প্রথমবারের মতো টিভিতে মোল্লা ওমরের ছেলে
jugantor
প্রথমবারের মতো টিভিতে মোল্লা ওমরের ছেলে

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৭ অক্টোবর ২০২১, ২১:৫৩:০৪  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রথবারের মতো জনসম্মুখে দেখা গেছে তালেবানের প্রতিষ্ঠাতা মোল্লা ওমরের ছেলে মোল্লা মোহাম্মদ ইয়াকুবকে। বুধবার টেলিভিশনে প্রচারিত একটি অনুষ্ঠানে তাকে দেখা যায় বলে বার্তা সংস্থা এএফপি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

স্থানীয় এক ব্যবসায়ীর হাসপাতাল ও ক্লিনিকে বিনিয়োগ সংক্রান্ত একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেন তালেবানের অন্তর্বর্তী সরকারের প্রতিরক্ষামন্ত্রী মোল্লা ইয়াকুব। সেই অনুষ্ঠানই টেলিভিশনে সম্প্রচারিত হয়েছে।

কাবুলের সরদার মোহাম্মদ দাউদ খান সামরিক হাসপাতালে মোল্লা ইয়াকুব বলেন, এখানে কিছু অর্থ বিনিয়োগ করুন। ব্যবসায়ী ভাইয়েরা হাসপাতাল, ক্লিনিক নির্মাণে এগিয়ে আসুন। চিকিৎসকরাও এই ক্ষেত্রে বিনিয়োগে এগিয়ে আসুন।

শীর্ষস্থানীয় নেতাদের লোকচক্ষুর আড়ালে রাখার অঘোষিত নিয়ম আছে তালেবানের। তালেবান প্রথম দফায় ক্ষমতায় থাকাকালে সংগঠনের শীর্ষ নেতা মোল্লা ওমরকে খুব কমই জনসম্মুখে দেখা গেছে। তার ছবি প্রদর্শনও নিষিদ্ধ করেছে তালেবান। এমনকি ২০১৩ সালে তার মৃত্যুর দুবছর পর্যন্ত এই খবর গণমাধ্যমে জানানো হয়নি।

তবে গণমাধ্যমের প্রতি এই বিরূপ মনোভাব থেকে ধীরে ধীরে সরে আসছে তালেবান। রক্ষণশীল সংগঠনটি মিডিয়া ইমেজও তৈরি করতে ইচ্ছুক। মোল্লা ইয়াকুবের টেলিভিশন অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ সেই ইঙ্গিতই দিচ্ছে।

প্রথমবারের মতো টিভিতে মোল্লা ওমরের ছেলে

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৭ অক্টোবর ২০২১, ০৯:৫৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রথবারের মতো জনসম্মুখে দেখা গেছে তালেবানের প্রতিষ্ঠাতা মোল্লা ওমরের ছেলে মোল্লা মোহাম্মদ ইয়াকুবকে। বুধবার টেলিভিশনে প্রচারিত একটি অনুষ্ঠানে তাকে দেখা যায় বলে বার্তা সংস্থা এএফপি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে। 

স্থানীয় এক ব্যবসায়ীর হাসপাতাল ও  ক্লিনিকে বিনিয়োগ সংক্রান্ত একটি অনুষ্ঠানে যোগ দেন তালেবানের অন্তর্বর্তী সরকারের প্রতিরক্ষামন্ত্রী মোল্লা ইয়াকুব।  সেই অনুষ্ঠানই টেলিভিশনে সম্প্রচারিত হয়েছে।

কাবুলের সরদার মোহাম্মদ দাউদ খান সামরিক হাসপাতালে মোল্লা ইয়াকুব বলেন, এখানে কিছু অর্থ বিনিয়োগ করুন। ব্যবসায়ী ভাইয়েরা হাসপাতাল, ক্লিনিক নির্মাণে এগিয়ে আসুন।  চিকিৎসকরাও এই ক্ষেত্রে বিনিয়োগে এগিয়ে আসুন।

শীর্ষস্থানীয় নেতাদের লোকচক্ষুর আড়ালে রাখার অঘোষিত নিয়ম আছে তালেবানের। তালেবান প্রথম দফায় ক্ষমতায় থাকাকালে সংগঠনের শীর্ষ নেতা মোল্লা ওমরকে খুব কমই জনসম্মুখে দেখা গেছে। তার ছবি প্রদর্শনও নিষিদ্ধ করেছে তালেবান। এমনকি ২০১৩ সালে তার মৃত্যুর দুবছর পর্যন্ত এই খবর গণমাধ্যমে জানানো হয়নি।

তবে গণমাধ্যমের প্রতি এই বিরূপ মনোভাব থেকে ধীরে ধীরে সরে আসছে তালেবান। রক্ষণশীল সংগঠনটি মিডিয়া ইমেজও তৈরি করতে ইচ্ছুক। মোল্লা ইয়াকুবের টেলিভিশন অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ সেই ইঙ্গিতই দিচ্ছে।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন