ভূমধ্যসাগর থেকে ৪২০ শরণার্থীকে উদ্ধার করেছে ইতালি
jugantor
ভূমধ্যসাগর থেকে ৪২০ শরণার্থীকে উদ্ধার করেছে ইতালি

  অনলাইন ডেস্ক  

২১ নভেম্বর ২০২১, ১৪:২১:১২  |  অনলাইন সংস্করণ

ভূমধ্যসাগর থেকে শনিবার নারী ও শিশুসহ ৪২০ শরণার্থীকে উদ্ধার করেছেন ইতালির কোস্টগার্ড সদস্যরা।

ভূমধ্যসাগর থেকে উদ্ধার অভিবাসীদের বেশিরভাগই আফ্রিকার, যাদের মধ্যে ৬১ শিশু রয়েছে। খবর আরব নিউজের।

ইতালির কোস্টগার্ড এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এদের মধ্য থেকে ৭০ জনকে সিসিলি দ্বীপে পাঠানো হয়েছে।

মাছ ধরার একটি নৌকায় করে ওই অভিবাসনপ্রত্যাশীরা ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিচ্ছিল। খারাপ আবহাওয়ার কারণে নৌকাটি ডুবার উপক্রম হলে ইতালির কোস্টগার্ড গিয়ে দ্রুত তাদের উদ্ধার করে।

অন্যদিকে লিবিয়ার উপকূলে নৌকা ডুবে কমপক্ষে ৭৫ অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু হয়েছে।

জাতিসংঘের অভিবাসনবিষয়ক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেশন (আইওএম) শনিবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

আইওএম জানিয়েছে, গত ১৭ নভেম্বর লিবিয়া থেকে শরণার্থী বোঝাই এ নৌকাটি ইউরোপের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করে।

পরে ভূমধ্যসাগরে অতিরিক্ত যাত্রীবোঝাই নৌকাটি ডুবে গেলে মাত্র ১৫ জনকে স্থানীয় জেলেরা উদ্ধার করতে সক্ষম হন।

তাদের পরে লিবিয়ার বন্দর নগরী জারায় নামিয়ে দিয়ে গেছেন জেলেরা।

জাতিসংঘের অভিবাসনবিষয়ক সংস্থার পরিসংখ্যান অনুযায়ী চলতি বছরে এ পর্যন্ত ১ হাজার ৩০০ অভিবাসনপ্রত্যাশী ভূমধ্যসাগরে ডুবে মারা গেছেন।

ভূমধ্যসাগর থেকে ৪২০ শরণার্থীকে উদ্ধার করেছে ইতালি

 অনলাইন ডেস্ক 
২১ নভেম্বর ২০২১, ০২:২১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ভূমধ্যসাগর থেকে শনিবার নারী ও শিশুসহ ৪২০ শরণার্থীকে উদ্ধার করেছেন ইতালির কোস্টগার্ড সদস্যরা।

ভূমধ্যসাগর থেকে উদ্ধার অভিবাসীদের বেশিরভাগই আফ্রিকার, যাদের মধ্যে ৬১ শিশু রয়েছে।  খবর আরব নিউজের।

ইতালির কোস্টগার্ড এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, এদের মধ্য থেকে ৭০ জনকে সিসিলি দ্বীপে পাঠানো হয়েছে।

মাছ ধরার একটি নৌকায় করে ওই অভিবাসনপ্রত্যাশীরা ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিচ্ছিল। খারাপ আবহাওয়ার কারণে নৌকাটি ডুবার উপক্রম হলে ইতালির কোস্টগার্ড গিয়ে দ্রুত তাদের উদ্ধার করে।

অন্যদিকে লিবিয়ার উপকূলে নৌকা ডুবে কমপক্ষে ৭৫ অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু হয়েছে।

জাতিসংঘের অভিবাসনবিষয়ক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল অর্গানাইজেশন ফর মাইগ্রেশন (আইওএম) শনিবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।  

আইওএম জানিয়েছে, গত ১৭ নভেম্বর লিবিয়া থেকে শরণার্থী বোঝাই এ নৌকাটি ইউরোপের উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করে।

পরে ভূমধ্যসাগরে অতিরিক্ত যাত্রীবোঝাই নৌকাটি ডুবে গেলে মাত্র ১৫ জনকে স্থানীয় জেলেরা উদ্ধার করতে সক্ষম হন।

তাদের পরে লিবিয়ার বন্দর নগরী জারায় নামিয়ে দিয়ে গেছেন জেলেরা।

জাতিসংঘের অভিবাসনবিষয়ক সংস্থার পরিসংখ্যান অনুযায়ী চলতি বছরে এ পর্যন্ত ১ হাজার ৩০০ অভিবাসনপ্রত্যাশী ভূমধ্যসাগরে ডুবে মারা গেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন