আইফোন হ্যাক করার অভিযোগে ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা
jugantor
আইফোন হ্যাক করার অভিযোগে ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা

  অনলাইন ডেস্ক  

২৪ নভেম্বর ২০২১, ১১:০৪:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

ইসরাইলের তৈরি কুখ্যাত হ্যাকিং সফটওয়্যার পেগাসাসের বিরুদ্ধে এবার মামলা করেছে মার্কিন বহুজাতিক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান অ্যাপল।

পেগাসাস হ্যাকিং সফটওয়্যার প্রস্তুতকারী ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এনএসওর বিরুদ্ধে মার্কিন আদালতে শনিবার এ মামলা করা হয়েছে।

মামলার এজাহারে অ্যাপল বলেছে, ইসরাইলের কুখ্যাত এই হ্যাকিং সফটওয়্যার বিভিন্ন দেশের রাজনীতিক, সাংবাদিক, আইনজীবী ও মানবাধিকারকর্মীসহ গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের স্মার্টফোনে আড়িপাতার ঘটনা ফাঁস হয়েছে।

বর্তমানে ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এনএসওর হ্যাকিং সফটওয়্যার পেগাসাস আইফোনের গ্রাহকদের মোবাইলও হ্যাক করার চেষ্টা করছে। এটি মার্কিন নীতির স্পষ্ট লঙ্ঘন।

এর আগে গত অক্টোবারে হোয়াটসঅ্যাপ এবং সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকও ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করে।

এ কারণে গত ৩ অক্টোবর কুখ্যাত ওই ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

ব্রিটিশ প্রভাবশালী দৈনিক গার্ডিয়ান এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, পেগাসাস ব্যবহার করে বিভিন্ন দেশের কর্তৃত্ববাদী সরকারগুলো 'টার্গেট' করে নিজ দেশের বিভিন্ন ব্যক্তির ওপর নজরদারি চালাচ্ছিল যাদের তারা হুমকি বলে মনে করে।

এসব সরকার কোনো না কোনো সময় নাগরিক অথবা বিরোধী রাজনৈতিক নেতা অথবা সামাজিক আন্দোলনের সঙ্গে জড়িতদের ওপরে গোপন নজরদারির জন্য অভিযুক্ত হয়েছে।

এই দেশগুলোর মধ্যে বেশ কিছু দেশের সরকার আবার পেগাসাস অ্যাপের নির্মাতা সংস্থা এনএসওর কাছ থেকে মিলিটারি ইন্টেলিজেন্সির প্রযুক্তি কেনার গ্রাহক।

ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এনএসও গ্রুপ পেগাসাস নামে ওই স্পাইওয়্যারের নির্মাতা সংস্থা এবং এই অ্যাপটিকে মিলিটারি ইন্টেলিজেন্সের লাইসেন্সও দিয়েছে ইসরাইল সরকার। এটি দিয়ে আইফোন কিংবা অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ঢুকে ব্যবহারকারীর অজান্তে তার বার্তা, ছবি, ইমেইল পাচার; কল রেকর্ড, মাইক্রোফোন চালু রাখা সক্ষম।

এনএসও গ্রুপ অবশ্য বলছে, অপরাধী ও সন্ত্রাসীদের ওপর নজরদারি চালানো তাদের ওই স্পাইওয়্যার তৈরির লক্ষ্য। কিন্তু গোপনে ব্যবহার করতে বিভিন্ন দেশের সরকার এনএসওর গ্রাহক হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

আইফোন হ্যাক করার অভিযোগে ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা

 অনলাইন ডেস্ক 
২৪ নভেম্বর ২০২১, ১১:০৪ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইসরাইলের তৈরি কুখ্যাত হ্যাকিং সফটওয়্যার পেগাসাসের বিরুদ্ধে এবার মামলা করেছে মার্কিন বহুজাতিক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান অ্যাপল।
 
পেগাসাস হ্যাকিং সফটওয়্যার প্রস্তুতকারী ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এনএসওর বিরুদ্ধে মার্কিন আদালতে শনিবার এ মামলা করা হয়েছে।

মামলার এজাহারে অ্যাপল বলেছে, ইসরাইলের কুখ্যাত এই হ্যাকিং সফটওয়্যার বিভিন্ন দেশের রাজনীতিক, সাংবাদিক, আইনজীবী ও মানবাধিকারকর্মীসহ গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের স্মার্টফোনে আড়িপাতার ঘটনা ফাঁস হয়েছে।   

বর্তমানে ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এনএসওর হ্যাকিং সফটওয়্যার পেগাসাস আইফোনের গ্রাহকদের মোবাইলও হ্যাক করার চেষ্টা করছে।  এটি মার্কিন নীতির স্পষ্ট লঙ্ঘন।  

এর আগে গত অক্টোবারে হোয়াটসঅ্যাপ এবং সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকও ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করে।

এ কারণে গত ৩ অক্টোবর কুখ্যাত ওই ইসরাইলি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

ব্রিটিশ প্রভাবশালী দৈনিক গার্ডিয়ান এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, পেগাসাস ব্যবহার করে বিভিন্ন দেশের কর্তৃত্ববাদী সরকারগুলো 'টার্গেট' করে নিজ দেশের বিভিন্ন ব্যক্তির ওপর নজরদারি চালাচ্ছিল যাদের তারা হুমকি বলে মনে করে।

এসব সরকার কোনো না কোনো সময় নাগরিক অথবা বিরোধী রাজনৈতিক নেতা অথবা সামাজিক আন্দোলনের সঙ্গে জড়িতদের ওপরে গোপন নজরদারির জন্য অভিযুক্ত হয়েছে।

এই দেশগুলোর মধ্যে বেশ কিছু দেশের সরকার আবার পেগাসাস অ্যাপের নির্মাতা সংস্থা এনএসওর কাছ থেকে মিলিটারি ইন্টেলিজেন্সির প্রযুক্তি কেনার গ্রাহক।

ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এনএসও গ্রুপ পেগাসাস নামে ওই স্পাইওয়্যারের নির্মাতা সংস্থা এবং এই অ্যাপটিকে মিলিটারি ইন্টেলিজেন্সের লাইসেন্সও দিয়েছে ইসরাইল সরকার। এটি দিয়ে আইফোন কিংবা অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ঢুকে ব্যবহারকারীর অজান্তে তার বার্তা, ছবি, ইমেইল পাচার; কল রেকর্ড, মাইক্রোফোন চালু রাখা সক্ষম।

এনএসও গ্রুপ অবশ্য বলছে, অপরাধী ও সন্ত্রাসীদের ওপর নজরদারি চালানো তাদের ওই স্পাইওয়্যার তৈরির লক্ষ্য। কিন্তু গোপনে ব্যবহার করতে বিভিন্ন দেশের সরকার এনএসওর গ্রাহক হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন