যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ফের আলোচনা, যা বলছে তালেবান
jugantor
যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ফের আলোচনা, যা বলছে তালেবান

  অনলাইন ডেস্ক  

২৪ নভেম্বর ২০২১, ২২:১৭:৫৪  |  অনলাইন সংস্করণ

আগামী সপ্তাহে কাতারে তালেবান প্রতিনিধি ফের যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনায় বসছে।আলোচনায় আফগানিস্তানে মানবিক সংকটসহ দেশটিতে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের বিষয় গুরুত্ব পাবে।

এর আগে গত ৯ থেকে ১০ অক্টোবর কাতারের রাজধানী দোহায় দুই পক্ষের মধ্যে প্রথম দফার আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়।

মঙ্গলবার মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস জানান, এই আলোচনা দুই সপ্তাহব্যাপী হওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে। আলোচনায় আফগানিস্তানবিষয়ক বিশেষ মার্কিন দূত টম ওয়েস্ট যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেবেন।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস বলেন, উভয় পক্ষ নিজেদের গুরুত্বপূর্ণ জাতীয় স্বার্থ নিয়ে আলোচনা করবে। তার মধ্যে থাকবে জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) ও আল-কায়েদার বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবিরোধী অভিযান, মানবিক সহায়তা, আফগানিস্তানের বিধ্বস্ত অর্থনীতি, ২০ বছরের যুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের জন্য কাজ করা মার্কিন নাগরিক ও আফগানদের জন্য নিরাপদ প্রস্থান।

এদিকে এক টুইট বার্তায় তালেবান আগামী সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বৈঠককে সম্পর্কের নতুন পর্ব হিসেবে উল্লেখ করছে। তালেবানের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, এই পর্যায়ে দুই দেশের মধ্যে আলোচনা নতুন অধ্যায় খুলতে সহায়তা করবে।

গত ১৫ আগস্ট তালেবানের হাতে কাবুলের পতন হয়। এর মধ্য দিয়ে আফগানিস্তানের ক্ষমতা তালেবানের হাতে যায়। আগস্টের শেষ দিকে আফগানিস্তান ত্যাগ করে মার্কিন বাহিনী। এর মধ্য দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ২০ বছরের আফগান যুদ্ধের সমাপ্তি ঘটে।

সেপ্টেম্বরের শুরুর দিকে আফগানিস্তানে অন্তর্বর্তী সরকার গঠনের ঘোষণা দেয় তালেবান। তবে তালেবানের এই সরকারকে এখনো আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় স্বীকৃতি দেয়নি।

যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ফের আলোচনা, যা বলছে তালেবান

 অনলাইন ডেস্ক 
২৪ নভেম্বর ২০২১, ১০:১৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

আগামী সপ্তাহে কাতারে তালেবান প্রতিনিধি ফের যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে আলোচনায় বসছে। আলোচনায় আফগানিস্তানে মানবিক সংকটসহ দেশটিতে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের বিষয় গুরুত্ব পাবে।

এর আগে গত ৯ থেকে ১০ অক্টোবর কাতারের রাজধানী দোহায় দুই পক্ষের মধ্যে প্রথম দফার আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়।

মঙ্গলবার মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস  জানান, এই আলোচনা  দুই সপ্তাহব্যাপী হওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে। আলোচনায় আফগানিস্তানবিষয়ক বিশেষ মার্কিন দূত টম ওয়েস্ট যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দেবেন।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের মুখপাত্র নেড প্রাইস বলেন, উভয় পক্ষ নিজেদের গুরুত্বপূর্ণ জাতীয় স্বার্থ নিয়ে আলোচনা করবে। তার মধ্যে থাকবে জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) ও আল-কায়েদার বিরুদ্ধে সন্ত্রাসবিরোধী অভিযান, মানবিক সহায়তা, আফগানিস্তানের বিধ্বস্ত অর্থনীতি, ২০ বছরের যুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের জন্য কাজ করা মার্কিন নাগরিক ও আফগানদের জন্য নিরাপদ প্রস্থান।

এদিকে এক টুইট বার্তায় তালেবান আগামী সপ্তাহে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বৈঠককে সম্পর্কের নতুন পর্ব হিসেবে উল্লেখ করছে। তালেবানের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, এই পর্যায়ে দুই দেশের মধ্যে  আলোচনা নতুন অধ্যায় খুলতে সহায়তা করবে। 

গত ১৫ আগস্ট তালেবানের হাতে কাবুলের পতন হয়। এর মধ্য দিয়ে আফগানিস্তানের ক্ষমতা তালেবানের হাতে যায়। আগস্টের শেষ দিকে আফগানিস্তান ত্যাগ করে মার্কিন বাহিনী। এর মধ্য দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ২০ বছরের আফগান যুদ্ধের সমাপ্তি ঘটে।

সেপ্টেম্বরের শুরুর দিকে আফগানিস্তানে অন্তর্বর্তী সরকার গঠনের ঘোষণা দেয় তালেবান। তবে তালেবানের এই সরকারকে এখনো আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় স্বীকৃতি দেয়নি।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন