ধেয়ে আসছে ছাইয়ের মেঘ, বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছে মানুষ (ভিডিও)
jugantor
ধেয়ে আসছে ছাইয়ের মেঘ, বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছে মানুষ (ভিডিও)

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ২০:২৯:১৭  |  অনলাইন সংস্করণ

আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাত থেকে সৃষ্ট ঘন ছাইয়ের মেঘে ছেয়ে গেছে ইন্দোনেশিয়ার জাভা দ্বীপের আকাশ। চলতি মাসের মধ্যে দ্বিতীয়বারের মতো অগ্নুৎপাতের ফলে স্থানীয় বাসিন্দারা বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছেন বলে শনিবার বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, মাউন্ট সেমেরু থেকে আগ্নেয়গিরির ছাইয়ের ঘন বৃষ্টির সৃষ্টি হয়েছে। এ কারণে সেখানাকার অন্তত দুই জেলার থেকে সূর্য দেখা যাচ্ছে না।
এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি বলে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

তবে ছাইয়ের মেঘ ৫০ হাজার ফুট উপরে ওঠার কারণে পর্যবেক্ষকরা বিমান চলাচলে সতর্কতা জারি করেছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা গেছে, পেছনে বিশাল ছাইয়ের ঢেউ ধেয়ে আসায় স্থানীয় বাসিন্দারা পালাচ্ছেন।

ওই এলাকা থেকে মালাং শহরের কাছের একটি সড়ক ও সেতু বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে বলে স্থানীয় কর্মকর্তা তরিকুল হক বা রয়টার্সকে জানিয়েছেন।

অস্ট্রেলিয়ার ডারউইনের ভলক্যানিক অ্যাশ অ্যাডভাইজরি সেন্টার (ভিএএনসি) জানিয়েছে, ছাই মাউন্ট সেমেরুর শিখর থেকে দক্ষিণ-পশ্চিমে প্রবাহিত হচ্ছে বলে মনে হচ্ছে।

আগ্নেয়গিরি থেকে সৃষ্ট ছাইয়ের সম্ভব্য বিপদ আমলে নিয়ে ভিএএনসি বিমান সংস্থাগুলোকে ওই এলাকায় চলাচলের ক্ষেত্রে সতর্কতা জারি করেছে।

মাউন্ট সেমেরু ইন্দোনেশিয়ার ১৩০টি সক্রিয় আগ্নেয়গিরির মধ্যে অন্যতম। চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে ওই আগ্নেয়গিরি থেকে অগ্নুৎপাত হয়েছিল।

ধেয়ে আসছে ছাইয়ের মেঘ, বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছে মানুষ (ভিডিও)

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৪ ডিসেম্বর ২০২১, ০৮:২৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাত থেকে সৃষ্ট ঘন ছাইয়ের মেঘে ছেয়ে গেছে ইন্দোনেশিয়ার জাভা দ্বীপের আকাশ। চলতি মাসের মধ্যে দ্বিতীয়বারের মতো অগ্নুৎপাতের ফলে স্থানীয় বাসিন্দারা বাড়িঘর ছেড়ে পালাচ্ছেন বলে শনিবার বিবিসি এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, মাউন্ট সেমেরু থেকে আগ্নেয়গিরির ছাইয়ের ঘন বৃষ্টির সৃষ্টি হয়েছে। এ কারণে সেখানাকার অন্তত দুই জেলার থেকে সূর্য দেখা যাচ্ছে না। 
এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি বলে বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে।

তবে ছাইয়ের মেঘ ৫০ হাজার ফুট উপরে ওঠার কারণে পর্যবেক্ষকরা বিমান চলাচলে সতর্কতা জারি করেছে। 

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিওতে দেখা গেছে, পেছনে বিশাল ছাইয়ের ঢেউ ধেয়ে আসায় স্থানীয় বাসিন্দারা পালাচ্ছেন। 

ওই এলাকা থেকে মালাং শহরের কাছের একটি সড়ক ও সেতু বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে বলে স্থানীয় কর্মকর্তা তরিকুল হক বা রয়টার্সকে জানিয়েছেন।

অস্ট্রেলিয়ার ডারউইনের ভলক্যানিক অ্যাশ অ্যাডভাইজরি সেন্টার (ভিএএনসি) জানিয়েছে, ছাই  মাউন্ট সেমেরুর শিখর থেকে দক্ষিণ-পশ্চিমে প্রবাহিত হচ্ছে বলে মনে হচ্ছে।

আগ্নেয়গিরি  থেকে সৃষ্ট ছাইয়ের সম্ভব্য বিপদ আমলে নিয়ে ভিএএনসি বিমান সংস্থাগুলোকে ওই এলাকায় চলাচলের ক্ষেত্রে সতর্কতা জারি করেছে। 

মাউন্ট সেমেরু ইন্দোনেশিয়ার ১৩০টি সক্রিয় আগ্নেয়গিরির মধ্যে অন্যতম। চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে ওই আগ্নেয়গিরি থেকে অগ্নুৎপাত হয়েছিল।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন