অনলাইনে পিৎজা অর্ডারে ১১ লাখ টাকা খোয়ালেন নারী
jugantor
অনলাইনে পিৎজা অর্ডারে ১১ লাখ টাকা খোয়ালেন নারী

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক  

১৭ জানুয়ারি ২০২২, ১৪:১০:৫০  |  অনলাইন সংস্করণ

অনলাইনে পিৎজা অর্ডারে ১১ লাখ টাকা খোয়ালেন নারী

ডিজিটাল যুগে অনলাইনে পণ্য কেনাবেচা এখন সাধারণ ব্যাপার। কিন্তু এ মাধ্যমে প্রতারণার শিকার হচ্ছেন অনেকেই।

অনলাইন প্লাটফরম ব্যবহার করে নানাভাবে সর্বস্ব লুটে নিচ্ছে প্রতারকরা। তবে ভারতের এক নারী এমনই প্রতারণার শিকার, যা শুনে বিস্ময় ধরে রাখা দায়।

মুম্বাইয়ের আন্ধেরি এলাকার ওই নারী অনলাইনে কয়েকশ টাকার পিৎজা আর ড্রাইফ্রুট অর্ডার করে খোয়ালেন ১১ লাখ টাকা!

ভারতীয় বার্তা সংস্থা পিটিআই জানায়, গত বছরের জুলাই মাসে ওই নারী অনলাইনে পিৎজা অর্ডার করেন। অর্ডার সম্পূর্ণ হওয়ার আগেই তার অ্যাকাউন্ট থেকে ৯ হাজার ৯৯৯ টাকা কেটে নেওয়া হয়। একইভাবে গত বছরের ২৯ অক্টোবর অনলাইনে ড্রাইফ্রুট অর্ডার করার সময় আবারও ওই নারী এক হাজার ৪৯৬ টাকা হারান।

সেই টাকা ফেরত পেতে গুগল সার্চ করে একটি নাম্বারে ফোন করেন তিনি। আর সেই নাম্বারটিই ছিল এক প্রতারকের। ফোন পেয়ে ওই নারীকে একটি অ্যাপ ডাউনলোড করতে বলেন অভিযুক্ত প্রতারক।

টাকা ফেরত পেতে উদগ্রীব নারী অ্যাপটি ডাউনলোড করেন। আর তাতেই সুযোগটা ভালোভাবেই পেয়ে যান প্রতারক। ওই অ্যাপের মাধ্যমে নারীর ব্যক্তিগত তথ্য হাতিয়ে নিয়ে একপর্যায়ে তার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থেকে ১১ লাখ ৭৮ হাজার টাকা সরিয়ে ফেলেন প্রতারক।

পথের ভিক্ষেরি হয়ে ওই নারী মুম্বাই পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগের দারস্থ হন। তথ্য ও প্রযুক্তি আইনে এফআইআর করে ইতোমধ্যে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

মুম্বাই পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগ জানিয়েছে, বিপুল পরিমাণ এই অর্থ একদিনে সরায়নি প্রতারক। গত ১৪ নভেম্বর থেকে ১ ডিসেম্বরের মধ্যে তার অ্যাকাউন্ট থেকে ওই পরিমাণ টাকা তুলে নেয় প্রতারক।

অনলাইনে পিৎজা অর্ডারে ১১ লাখ টাকা খোয়ালেন নারী

 আন্তর্জাতিক ডেস্ক 
১৭ জানুয়ারি ২০২২, ০২:১০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
অনলাইনে পিৎজা অর্ডারে ১১ লাখ টাকা খোয়ালেন নারী
প্রতীকী ছবি

ডিজিটাল যুগে অনলাইনে পণ্য কেনাবেচা এখন সাধারণ ব্যাপার। কিন্তু এ মাধ্যমে প্রতারণার শিকার হচ্ছেন অনেকেই। 

অনলাইন প্লাটফরম ব্যবহার করে নানাভাবে সর্বস্ব লুটে নিচ্ছে প্রতারকরা।  তবে ভারতের এক নারী এমনই প্রতারণার শিকার, যা শুনে বিস্ময় ধরে রাখা দায়। 

মুম্বাইয়ের আন্ধেরি এলাকার ওই নারী অনলাইনে কয়েকশ টাকার পিৎজা আর ড্রাইফ্রুট অর্ডার করে খোয়ালেন ১১ লাখ টাকা!

ভারতীয় বার্তা সংস্থা পিটিআই জানায়, গত বছরের জুলাই মাসে ওই নারী অনলাইনে পিৎজা অর্ডার করেন। অর্ডার সম্পূর্ণ হওয়ার আগেই তার অ্যাকাউন্ট থেকে ৯ হাজার ৯৯৯ টাকা কেটে নেওয়া হয়। একইভাবে গত বছরের ২৯ অক্টোবর অনলাইনে ড্রাইফ্রুট অর্ডার করার সময় আবারও ওই নারী এক হাজার ৪৯৬ টাকা হারান। 

সেই টাকা ফেরত পেতে গুগল সার্চ করে একটি নাম্বারে ফোন করেন তিনি। আর সেই নাম্বারটিই ছিল এক প্রতারকের। ফোন পেয়ে ওই নারীকে একটি অ্যাপ ডাউনলোড করতে বলেন অভিযুক্ত প্রতারক। 

টাকা ফেরত পেতে উদগ্রীব নারী অ্যাপটি ডাউনলোড করেন। আর তাতেই সুযোগটা ভালোভাবেই পেয়ে যান প্রতারক। ওই অ্যাপের মাধ্যমে নারীর ব্যক্তিগত তথ্য হাতিয়ে নিয়ে একপর্যায়ে তার ব্যাংক অ্যাকাউন্ট থেকে ১১ লাখ ৭৮ হাজার টাকা সরিয়ে ফেলেন প্রতারক।  

পথের ভিক্ষেরি হয়ে ওই নারী মুম্বাই পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগের দারস্থ হন।  তথ্য ও প্রযুক্তি আইনে এফআইআর করে ইতোমধ্যে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। 

মুম্বাই পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগ জানিয়েছে, বিপুল পরিমাণ এই অর্থ একদিনে সরায়নি প্রতারক। গত ১৪ নভেম্বর থেকে ১ ডিসেম্বরের মধ্যে তার অ্যাকাউন্ট থেকে ওই পরিমাণ টাকা তুলে নেয় প্রতারক।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন