হঠাৎ কেন সিরিয়ায় সেনা উপস্থিতি বাড়িয়েছে ফ্রান্স?

  যুগান্তর ডেস্ক    ২১ মে ২০১৮, ১৭:০৯ | অনলাইন সংস্করণ

কুর্দি যোদ্ধা ও মার্কিন সেনাদের ফাইল ফটো
সিরিয়ায় নিয়োজিত ফ্রান্সের সেনা সদস্য

কুর্দিদের প্রতি সমর্থনের অংশ হিসেবে সিরিয়ায় সেনা উপস্থিতি বাড়িয়েছে ফ্রান্স। এসব সেনা মার্কিন সেনাদের সঙ্গে মিলে কুর্দি যোদ্ধাদের নানা সহযোগিতা দেবে।

কুর্দি যোদ্ধারা সিরিয়াকে বিভক্ত করতে চায় বলে অভিযোগ রয়েছে। ইরাকেও কুর্দিস্তনা নামে আলাদা রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠান করতে চায় কুর্দিরা।

তুরস্কের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আনাদোলু রোববার জানিয়েছে, ফ্রান্সের স্পেশাল ফোর্স সিরিয়া-ইরাক সীমান্তে ছয়টি গোলন্দাজ ব্যাটারি বসিয়েছে। এসব ব্যাটারি নিয়ন্ত্রণ করছে কথিত সিরিয়ান ডেমোক্র্যাটিক ফোর্স বা এসডিএফ।

আনাদোলুর খবরে বলা হয়েছে, এরইমধ্যে ফরাসি অবস্থান থেকে গোলা ছোঁড়া হয়েছে।

মার্কিন নেতৃত্বাধীন কথিত জোট টুইটার বার্তায় দাবি করেছে, কুর্দি যোদ্ধাদের সমর্থনে দায়েশ সন্ত্রাসীদের ওপর হামলা করা হয়েছে। ফোরাত নদীর পূর্ব তীরে গোলাবর্ষণ করা হয় বলে টুইটার বার্তায় দাবি করা হয়।

যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্ররা দাবি করে আসছে, ২০১৪ সালের সেপ্টেম্বর থেকে তারা দায়েশ (আইএস) সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে হামলা চালাচ্ছে। কিন্তু এসব হামলায় দায়েশের বড় কোনো ক্ষতি হয়েছে এমন নজির নেই।

এছাড়া রাশিয়া যেমন প্রকাশ্যে দায়েশের বিরুদ্ধে সামরিক অভিযানে অংশ নিয়েছে তেমন কোনো কিছু মার্কিন জোট করে নি। সে কারণে যুক্তরাষ্ট্র ও তার মিত্রদের দায়েশ-বিরোধী অভিযানের দাবি মিথ্যা বলে গণ্য করা হয়।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
bestelectronics

 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
.