আভজস্টাল থেকে যে বার্তা দিলেন আজভ নেতা
jugantor
আভজস্টাল থেকে যে বার্তা দিলেন আজভ নেতা

  যুগান্তর ডেস্ক  

২০ মে ২০২২, ১৮:০৭:৫৬  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর মারিউপোলের আজভস্টাল স্টিল কারখানায় শেষ পর্যন্ত প্রতিরোধ গড়ে তোলা ইউক্রেনীয় বাহিনীর সশস্ত্র ইউনিট আজভ রেজিমেন্টের লেফটেন্যান্ট কর্নেল ডেনিস প্রোকোপেনকো বলেছেন, তাদের ‘প্রতিরোধ ব্যবস্থা’ বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ। বিবিসি শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও বার্তায় এ কথা বলেন তিনি।

ওই ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, মারিউপোলের প্রতিরক্ষার ৮৬ তম দিন। জীবন বাঁচাতে এবং গ্যারিসনের সৈনিকদের ভালোর জন্য শহর রক্ষা বন্ধ করার নির্দেশ দিয়েছেন উচ্চতর সামরিক নেতৃত্ব। প্রচণ্ড লড়াই, ঘেরাও থাকাকালীন প্রতিরক্ষা এবং সরবরাহের অভাবের পরও আমরা বেসামরিক ব্যক্তি, আহত ও নিহত– এই তিনটি বিষয়ে সবচেয়ে গুরুত্ব দিয়েছি।

ভিডিও বার্তায় তিনি আরও বলেন, আমরা বেসামরিক লোকদের সরিয়ে নিতে সক্ষম হয়েছি। আহতদের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে এবং আমরা তাদের নিয়ে ইউক্রেনীয় নিয়ন্ত্রিত অঞ্চলে ফিরে যেতে সক্ষম হয়েছি। সেইসঙ্গে নিহত বীরদের যথাযথ মর্যাদা দিতে প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। আমি আশা করি অদূর ভবিষ্যতে আত্মীয়স্বজন এবং সমগ্র ইউক্রেন তাদের সম্মানের সঙ্গে সমাহিত করতে সক্ষম হবে।

আভজস্টালের প্রায় দুই হাজার সৈন্য আত্মসমর্পণ করেছে বলে দাবি করেছে রাশিয়া। যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ও একই সংখ্যক সৈন্য আত্মসমর্পণ করেছে বলে ধারণা করছে।

আভজস্টাল থেকে যে বার্তা দিলেন আজভ নেতা

 যুগান্তর ডেস্ক 
২০ মে ২০২২, ০৬:০৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর মারিউপোলের আজভস্টাল স্টিল কারখানায় শেষ পর্যন্ত প্রতিরোধ গড়ে তোলা ইউক্রেনীয় বাহিনীর সশস্ত্র ইউনিট আজভ রেজিমেন্টের লেফটেন্যান্ট কর্নেল ডেনিস প্রোকোপেনকো বলেছেন, তাদের ‘প্রতিরোধ ব্যবস্থা’ বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সেনাবাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ। বিবিসি শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও বার্তায় এ কথা বলেন তিনি।

ওই ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, মারিউপোলের প্রতিরক্ষার ৮৬ তম দিন। জীবন বাঁচাতে এবং গ্যারিসনের সৈনিকদের ভালোর জন্য শহর রক্ষা বন্ধ করার নির্দেশ দিয়েছেন উচ্চতর সামরিক নেতৃত্ব। প্রচণ্ড লড়াই, ঘেরাও থাকাকালীন প্রতিরক্ষা এবং সরবরাহের অভাবের পরও আমরা বেসামরিক ব্যক্তি, আহত ও নিহত– এই তিনটি বিষয়ে সবচেয়ে গুরুত্ব দিয়েছি। 

ভিডিও বার্তায় তিনি আরও বলেন, আমরা বেসামরিক লোকদের সরিয়ে নিতে সক্ষম হয়েছি। আহতদের প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে এবং আমরা তাদের নিয়ে ইউক্রেনীয় নিয়ন্ত্রিত অঞ্চলে ফিরে যেতে সক্ষম হয়েছি। সেইসঙ্গে নিহত বীরদের যথাযথ মর্যাদা দিতে প্রক্রিয়া চলমান রয়েছে। আমি আশা করি অদূর ভবিষ্যতে আত্মীয়স্বজন এবং সমগ্র ইউক্রেন তাদের সম্মানের সঙ্গে সমাহিত করতে সক্ষম হবে। 

আভজস্টালের প্রায় দুই হাজার সৈন্য আত্মসমর্পণ করেছে বলে দাবি করেছে রাশিয়া। যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ও একই সংখ্যক সৈন্য আত্মসমর্পণ করেছে বলে ধারণা করছে। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা