এবার ইউক্রেনের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ পুতিনের
jugantor
এবার ইউক্রেনের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ পুতিনের

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৭ মে ২০২২, ২২:৩৩:১৮  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ তুলেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। বার্তা সংস্থা এএফপি শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পুতিন ইউক্রেনের বিরুদ্ধে দুই দেশের মধ্যকার আলোচনা প্রক্রিয়ায় ‘নাশকতা’ সৃষ্টির অভিযোগ তুলেছেন।অস্ট্রিয়ান চ্যান্সেলর কার্ল নেহামারের সঙ্গে ফোনে আলাপকালে পুতিন এই অভিযোগ করেন বলে ক্রেমলিন শুক্রবার জানিয়েছে।

পুতিন নেহামারকে আরও বলেন, রাশিয়া আজভ এবং কৃষ্ণ সাগরে জাহাজ চলাচলের জন্য ব্যবস্থা নিচ্ছে। ক্রেমলিন এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানিয়েছে।

এর আগে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছিলেন, তিনি যুদ্ধের অবসান ঘটাতে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে একটি বৈঠকের আয়োজন করার জন্য বারবার চেষ্টা করেছিলেন, কিন্তু রাশিয়া এখনও গুরুতর শান্তি আলোচনার জন্য প্রস্তুত বলে মনে হচ্ছে না।

জেলেনস্কি আরও বলেছেন, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে সরাসরি কথা বলাটা হয়ত অনেকেই পছন্দ করবে না। কিন্তু ইউক্রেনকে বাস্তবতার মুখোমুখি হতে হবে এবং যুদ্ধ বন্ধ করতে পুতিনের সঙ্গেই সরাসরি কথা বলতে হবে।

এ ব্যাপারে ইন্দোনেশিয়ার একটি থিংক ট্যাংকের সঙ্গে জেলেনস্কি বলেন, রাশিয়ার নেতার সঙ্গে কথা বলতে হবে। আমি আপনাকে বলছি না যে আমাদের দেশের জনগণ তার (পুতিন) সঙ্গে কথা বলতে মুখিয়ে আছে। কিন্তু আমাদের বাস্তবতার মুখোমুখি হতে হবে যেখানে এখন আমরা আছি।

তিনি আরও বলেন, আমরা এ বৈঠক থেকে কি চাই...আমরা আমাদের জীবনগুলো ফিরে পেতে চাই। আমরা পুনরায় আমাদের একটি সার্বভৌম দেশের জীবন ফিরে পেতে চাই আমাদের নিজেদের দেশে।

এবার ইউক্রেনের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ পুতিনের

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৭ মে ২০২২, ১০:৩৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের বিরুদ্ধে বিস্ফোরক অভিযোগ তুলেছেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। বার্তা সংস্থা এএফপি শুক্রবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পুতিন ইউক্রেনের বিরুদ্ধে দুই দেশের মধ্যকার আলোচনা প্রক্রিয়ায় ‘নাশকতা’ সৃষ্টির অভিযোগ তুলেছেন। অস্ট্রিয়ান চ্যান্সেলর কার্ল নেহামারের সঙ্গে ফোনে আলাপকালে পুতিন এই অভিযোগ করেন বলে  ক্রেমলিন শুক্রবার জানিয়েছে। 

পুতিন নেহামারকে আরও বলেন, রাশিয়া আজভ এবং কৃষ্ণ সাগরে জাহাজ চলাচলের জন্য ব্যবস্থা নিচ্ছে। ক্রেমলিন এক বিবৃতিতে এ তথ্য জানিয়েছে। 

এর আগে ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছিলেন, তিনি যুদ্ধের অবসান ঘটাতে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে একটি বৈঠকের আয়োজন করার জন্য বারবার চেষ্টা করেছিলেন, কিন্তু রাশিয়া এখনও গুরুতর শান্তি আলোচনার জন্য প্রস্তুত বলে মনে হচ্ছে না।

জেলেনস্কি আরও বলেছেন, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে সরাসরি কথা বলাটা হয়ত অনেকেই পছন্দ করবে না। কিন্তু ইউক্রেনকে বাস্তবতার মুখোমুখি হতে হবে এবং যুদ্ধ বন্ধ করতে পুতিনের সঙ্গেই সরাসরি কথা বলতে হবে। 

এ ব্যাপারে ইন্দোনেশিয়ার একটি থিংক ট্যাংকের সঙ্গে জেলেনস্কি বলেন, রাশিয়ার নেতার সঙ্গে কথা বলতে হবে। আমি আপনাকে বলছি না যে আমাদের দেশের জনগণ তার (পুতিন) সঙ্গে কথা বলতে মুখিয়ে আছে। কিন্তু আমাদের বাস্তবতার মুখোমুখি হতে হবে যেখানে এখন আমরা আছি। 

তিনি আরও বলেন, আমরা এ বৈঠক থেকে কি চাই...আমরা আমাদের জীবনগুলো ফিরে পেতে চাই। আমরা পুনরায় আমাদের একটি সার্বভৌম দেশের জীবন ফিরে পেতে চাই আমাদের নিজেদের দেশে।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা