যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো নিয়ে জিনপিংয়ের খোঁচা
jugantor
যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো নিয়ে জিনপিংয়ের খোঁচা

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৩ জুন ২০২২, ১৮:৩১:৪৬  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেন ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বধীন সামরিক জোট ন্যাটোকে নিয়ে খোঁচা দিয়েছেন চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং।

ইউক্রেন সংকট বিশ্বের সবার জন্য আরেকটি জেগে ওঠার আহ্বান উল্লেখ করে জিনপিং বলেন, এই লড়াই আমাদের মনে করিয়ে দিচ্ছে যে তথাকথিত 'শক্তির অবস্থানে' অন্ধ বিশ্বাস এবং সামরিক জোট সম্প্রসারণ করার চেষ্টা এবং অন্যের খরচে নিজের নিরাপত্তা খোঁজার চেষ্টা কেবল নিজেকেই একটি নিরাপত্তা সংকটে নিয়ে যায়।

এই মন্তব্য ন্যাটো ও যুক্তরাষ্ট্রকে খোঁচা দিয়েই করা হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে বলে সিএনএনের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসনের উসকানি দেওয়ার জন্য বরাবরই যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বধীন সামরিক জোট ন্যাটোকে দুষছে বেইজিং।

বুধবার উদীয়মান অর্থনীতির দেশগুলোর প্রধানদের সঙ্গে অংশ নেওয়া এক ভার্চুয়াল বৈঠকে এ কথা বলেন তিনি। ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চীন এবং দক্ষিণ আফ্রিকার অর্থনৈতিক জোট ব্রিকসের বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিতব্য ভার্চুয়াল শীর্ষ সম্মেলনের আগে ওই ব্যবসায়িক ফোরামের ভার্চুয়াল বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় জিনপিং ঐক্যবদ্ধ হওয়ারও আহ্বান জানান।

ওই ভার্চুয়াল বৈঠকে জিনপিং করোনা মহামারি থেকে উত্তরণের লড়াই চলাকালে বিশ্বের এই পরিস্থিতিকে সংকটকাল হিসেবে উল্লেখ করেছেন। এই পরিস্থিতিতে পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞাকে নতুন ‘নিরাপত্তা চ্যালেঞ্জ’ হিসেবেও অভিহিত করেন তিনি।

তিনি বলেন, অতীতের ট্র্যাজেডি আমাদের বলে যে আধিপত্য, গোষ্ঠীর রাজনীতি এবং গোত্র সংঘাত শান্তি বা নিরাপত্তা নিয়ে আসে না; এসব শুধুমাত্র যুদ্ধ এবং সংঘাতের দিকে ঠেলে দেয়।


যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো নিয়ে জিনপিংয়ের খোঁচা

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৩ জুন ২০২২, ০৬:৩১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেন ইস্যুতে যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বধীন সামরিক জোট ন্যাটোকে নিয়ে খোঁচা দিয়েছেন  চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। 

ইউক্রেন সংকট বিশ্বের সবার জন্য আরেকটি জেগে ওঠার আহ্বান উল্লেখ করে জিনপিং বলেন, এই লড়াই আমাদের মনে করিয়ে দিচ্ছে যে তথাকথিত 'শক্তির অবস্থানে' অন্ধ বিশ্বাস এবং সামরিক জোট সম্প্রসারণ করার চেষ্টা এবং অন্যের খরচে নিজের নিরাপত্তা খোঁজার চেষ্টা কেবল নিজেকেই একটি নিরাপত্তা সংকটে নিয়ে যায়।

এই মন্তব্য ন্যাটো ও যুক্তরাষ্ট্রকে খোঁচা দিয়েই করা হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে বলে সিএনএনের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। ইউক্রেনে রুশ আগ্রাসনের উসকানি দেওয়ার জন্য বরাবরই যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বধীন সামরিক জোট ন্যাটোকে দুষছে বেইজিং।

বুধবার উদীয়মান অর্থনীতির দেশগুলোর প্রধানদের সঙ্গে অংশ নেওয়া এক ভার্চুয়াল বৈঠকে এ কথা বলেন তিনি।  ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চীন এবং দক্ষিণ আফ্রিকার অর্থনৈতিক জোট ব্রিকসের বৃহস্পতিবার অনুষ্ঠিতব্য ভার্চুয়াল শীর্ষ সম্মেলনের আগে ওই ব্যবসায়িক ফোরামের ভার্চুয়াল বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। 

এ সময় অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় জিনপিং ঐক্যবদ্ধ হওয়ারও আহ্বান জানান। 

ওই ভার্চুয়াল বৈঠকে জিনপিং করোনা মহামারি থেকে উত্তরণের লড়াই চলাকালে বিশ্বের এই পরিস্থিতিকে সংকটকাল হিসেবে উল্লেখ করেছেন। এই পরিস্থিতিতে পশ্চিমা নিষেধাজ্ঞাকে নতুন ‘নিরাপত্তা চ্যালেঞ্জ’ হিসেবেও অভিহিত করেন তিনি।

তিনি বলেন, অতীতের ট্র্যাজেডি আমাদের বলে যে আধিপত্য, গোষ্ঠীর রাজনীতি এবং গোত্র সংঘাত শান্তি বা নিরাপত্তা নিয়ে আসে না; এসব শুধুমাত্র যুদ্ধ এবং সংঘাতের দিকে ঠেলে দেয়। 


 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা