নিরাপত্তা পরিষদ থেকে বহিষ্কারের দাবি, তীব্র প্রতিক্রিয়া রাশিয়ার
jugantor
নিরাপত্তা পরিষদ থেকে বহিষ্কারের দাবি, তীব্র প্রতিক্রিয়া রাশিয়ার

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৯ জুন ২০২২, ১২:৩৪:১২  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের ক্রেমেনচুকে একটি ব্যস্ত শপিংমলে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার বিষয়ে জাতিসংঘের প্রতি তদন্তের আহ্বান জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। এ ঘটনার পর রাশিয়াকে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ থেকে বহিষ্কারের দাবিও করেছেন তিনি।

মঙ্গলবার টেলিকনফারেন্সের মাধ্যমে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে অংশ নেন ভলোদিমির জেলেনস্কি। এ সময় তিনি হামলার ঘটনা তদন্তে ইউক্রেনে একজন দূত বা একটি কমিশন পাঠাতে জাতিসংঘের প্রতি আহ্বান জানান।

জেলেনস্কি বলেন, ওই হামলায় বহু বেসামরিক মানুষের মৃত্যু হয়েছে। বহু মানুষ আহত। এটি যুদ্ধও নয়, সন্ত্রাসী হামলা। বস্তুত রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনকে সরাসরি সন্ত্রাসী বলে আখ্যা দিয়েছেন জেলেনস্কি।

জেলেনস্কির মন্তব্যের তীব্র প্রতিক্রিয়া দিয়েছে রাশিয়া। জাতিসংঘে রাশিয়ার ডেপুটি রাষ্ট্রদূত বলেছেন, নিরাপত্তা পরিষদ কারও পিআর ক্যাম্পেইনের জায়গা নয়। জেলেনস্কি এখানে এসে সে কাজই করছেন আরও অস্ত্র পাওয়ার জন্য। জাতিসংঘের উচিত এ কাজ বন্ধ করা।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি জানিয়েছেন, হামলার সময় শপিং সেন্টারটির ভেতরে সহস্রাধিক মানুষ ছিল। তিনি বলেন, রাশিয়ার কাছ থেকে শালীনতা ও মানবতা আশা করা ভুল। জাতিসংঘের মুখপাত্র স্টেফান দুজারিচ বেসামরিক স্থাপনায় এমন হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন।

পোলটাভা অঞ্চলের প্রশাসনিক প্রধান দিমিত্রো লুনিন এ আক্রমণকে ‘যুদ্ধাপরাধ’ হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন।

নিরাপত্তা পরিষদ থেকে বহিষ্কারের দাবি, তীব্র প্রতিক্রিয়া রাশিয়ার

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৯ জুন ২০২২, ১২:৩৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের ক্রেমেনচুকে একটি ব্যস্ত শপিংমলে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার বিষয়ে জাতিসংঘের প্রতি তদন্তের আহ্বান জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। এ ঘটনার পর রাশিয়াকে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ থেকে বহিষ্কারের দাবিও করেছেন তিনি।

মঙ্গলবার টেলিকনফারেন্সের মাধ্যমে জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে অংশ নেন ভলোদিমির জেলেনস্কি। এ সময় তিনি হামলার ঘটনা তদন্তে ইউক্রেনে একজন দূত বা একটি কমিশন পাঠাতে জাতিসংঘের প্রতি আহ্বান জানান।

জেলেনস্কি বলেন, ওই হামলায় বহু বেসামরিক মানুষের মৃত্যু হয়েছে। বহু মানুষ আহত। এটি যুদ্ধও নয়, সন্ত্রাসী হামলা। বস্তুত রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনকে সরাসরি সন্ত্রাসী বলে আখ্যা দিয়েছেন জেলেনস্কি।

জেলেনস্কির মন্তব্যের তীব্র প্রতিক্রিয়া দিয়েছে রাশিয়া। জাতিসংঘে রাশিয়ার ডেপুটি রাষ্ট্রদূত বলেছেন, নিরাপত্তা পরিষদ কারও পিআর ক্যাম্পেইনের জায়গা নয়। জেলেনস্কি এখানে এসে সে কাজই করছেন আরও অস্ত্র পাওয়ার জন্য। জাতিসংঘের উচিত এ কাজ বন্ধ করা।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি জানিয়েছেন, হামলার সময় শপিং সেন্টারটির ভেতরে সহস্রাধিক মানুষ ছিল। তিনি বলেন, রাশিয়ার কাছ থেকে শালীনতা ও মানবতা আশা করা ভুল। জাতিসংঘের মুখপাত্র স্টেফান দুজারিচ বেসামরিক স্থাপনায় এমন হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন।

পোলটাভা অঞ্চলের প্রশাসনিক প্রধান দিমিত্রো লুনিন এ আক্রমণকে ‘যুদ্ধাপরাধ’ হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা