পুতিনকে ‘গোপন বার্তা’ পৌঁছে দিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট
jugantor
পুতিনকে ‘গোপন বার্তা’ পৌঁছে দিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট

  অনলাইন ডেস্ক  

৩০ জুন ২০২২, ২২:৫১:৪২  |  অনলাইন সংস্করণ

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে বৃহস্পতিবার মস্কোতে দেখা করেছেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো।

বুধবার ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কির সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন জোকো উইদোদো।

পুতিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট বলেছেন, আমি পুতিনের কাছে জেলেনস্কির দেওয়া বার্তা পৌঁছে দিয়েছি।

তবে জেলেনস্কি তার মাধ্যমে পুতিনকে কি বার্তা দিয়েছেন সেটি জানাননি জোকো উইদোদো। তিনি বিষয়টি গোপন রেখেছেন।

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট আরও বলেছেন, পুতিন-জেলেনস্কির মধ্যে বৈঠক আয়োজন করতে তিনি প্রস্তত আছেন।

বিশ্বের সর্ববৃহৎ মুসলিম দেশটির প্রেসিডেন্ট আরও বলেছেন, তারা রাশিয়ার সঙ্গে তাদের দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতামূলক সম্পর্ক বজায় রাখবেন।

অন্যদিকে পুতিন বলেছেন, ইন্দোনেশিয়াকে তাদের চাহিদা অনুযায়ী সার দিতে প্রস্তুত আছে রাশিয়া। কিন্তু পশ্চিমাদের নিষেধাজ্ঞার কারণে রাশিয়া ইন্দোনেশিয়ার কাছে পণ্য পৌঁছাতে পারছে না।

এদিকে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো জি-২০ জোটের বর্তমান চেয়ারম্যান।

আগামী নভেম্বর মাসে ইন্দোনেশিয়ার বালিতে হবে জি-২০ সম্মেলন।

এ সম্মেলনে রাশিয়া এবং ইউক্রেন দুই দেশের প্রেসিডেন্টকেই স্বশরীরে উপস্থিত হয়ে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন জোকো উইদোদো।

সূত্র: বিবিসি

পুতিনকে ‘গোপন বার্তা’ পৌঁছে দিয়েছেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট

 অনলাইন ডেস্ক 
৩০ জুন ২০২২, ১০:৫১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে বৃহস্পতিবার মস্কোতে দেখা করেছেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো। 

বুধবার ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কির সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন জোকো উইদোদো। 

পুতিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট বলেছেন, আমি পুতিনের কাছে জেলেনস্কির দেওয়া বার্তা পৌঁছে দিয়েছি। 

তবে জেলেনস্কি তার মাধ্যমে পুতিনকে কি বার্তা দিয়েছেন সেটি জানাননি জোকো উইদোদো। তিনি বিষয়টি গোপন রেখেছেন।

ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট আরও বলেছেন, পুতিন-জেলেনস্কির মধ্যে বৈঠক আয়োজন করতে তিনি প্রস্তত আছেন। 

বিশ্বের সর্ববৃহৎ মুসলিম দেশটির প্রেসিডেন্ট আরও বলেছেন, তারা রাশিয়ার সঙ্গে তাদের দ্বিপাক্ষিক সহযোগিতামূলক সম্পর্ক বজায় রাখবেন। 

অন্যদিকে পুতিন বলেছেন, ইন্দোনেশিয়াকে তাদের চাহিদা অনুযায়ী সার দিতে প্রস্তুত আছে রাশিয়া। কিন্তু পশ্চিমাদের নিষেধাজ্ঞার কারণে রাশিয়া ইন্দোনেশিয়ার কাছে পণ্য পৌঁছাতে পারছে না। 

এদিকে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো জি-২০ জোটের বর্তমান চেয়ারম্যান। 

আগামী নভেম্বর মাসে ইন্দোনেশিয়ার বালিতে হবে জি-২০ সম্মেলন। 

এ সম্মেলনে রাশিয়া এবং ইউক্রেন দুই দেশের প্রেসিডেন্টকেই স্বশরীরে উপস্থিত হয়ে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন জোকো উইদোদো। 

সূত্র: বিবিসি  

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা