এবার ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান দেওয়ার ঘোষণা
jugantor
এবার ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান দেওয়ার ঘোষণা

  অনলাইন ডেস্ক  

০৬ আগস্ট ২০২২, ২২:২৬:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কির উপদেষ্টা মাইখাইলো পোদোলায়েক শনিবার বলেছেন, ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান ও ট্যাংক দিতে সম্মত হয়েছে উত্তর মেসিডোনিয়া।

রাশিয়াকে হারাতে ইউক্রেনকে এসব মারণাস্ত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইউরোপের এ দেশটি।

এ ব্যাপারে টুইটারে মাইখাইলো পোদোলায়েক বলেছেন, জি-২০ দেশের অর্ধেক দেশও যে সাহস দেখাতে পারেনি এখন অন্য আরও দেশ আরও বেশি সাহস দেখাচ্ছে। মেসিডোনিয়ার মতো দেশ ট্যাংক এবং বিমান দিয়ে ইউক্রেনকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে।

এদিকে গত সপ্তাহে উত্তর মেসিডোনিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী নিশ্চিত করে জানান, তাদের কাছে থাকা সোভিয়েত আমলের ট্যাংক ইউক্রেনকে দেবেন তারা।

তবে ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান দেওয়ার কোনো তথ্য মেসিডোনিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানাননি।

উত্তর মেসিডোনিয়া যদি ইউক্রেনকে সত্যি সত্যি যুদ্ধ বিমান দেয় তাহলে তারাই প্রথম দেশ হিসেবে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ বাধার পর ইউক্রেনকে বিমান সহায়তা দেবে।

যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর রাশিয়ার আক্রমণ প্রতিহত করতে যুক্তরাষ্ট্র ও বিভিন্ন দেশের কাছে বিমান চান ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কি। কিন্তু সে সময় ঝুঁকির কথা চিন্তা করে কেউ বিমান দিতে রাজী হয়নি।

সূত্র: আল জাজিরা

এবার ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান দেওয়ার ঘোষণা

 অনলাইন ডেস্ক 
০৬ আগস্ট ২০২২, ১০:২৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কির উপদেষ্টা মাইখাইলো পোদোলায়েক শনিবার বলেছেন, ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান ও ট্যাংক দিতে সম্মত হয়েছে উত্তর মেসিডোনিয়া। 

রাশিয়াকে হারাতে ইউক্রেনকে এসব মারণাস্ত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইউরোপের এ দেশটি। 

এ ব্যাপারে টুইটারে মাইখাইলো পোদোলায়েক বলেছেন, জি-২০ দেশের অর্ধেক দেশও যে সাহস দেখাতে পারেনি এখন অন্য আরও দেশ আরও বেশি সাহস দেখাচ্ছে। মেসিডোনিয়ার মতো দেশ ট্যাংক এবং বিমান দিয়ে ইউক্রেনকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে।

এদিকে গত সপ্তাহে উত্তর মেসিডোনিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী নিশ্চিত করে জানান, তাদের কাছে থাকা সোভিয়েত আমলের ট্যাংক ইউক্রেনকে দেবেন তারা। 

তবে ইউক্রেনকে যুদ্ধ বিমান দেওয়ার কোনো তথ্য মেসিডোনিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানাননি।

উত্তর মেসিডোনিয়া যদি ইউক্রেনকে সত্যি সত্যি যুদ্ধ বিমান দেয় তাহলে তারাই প্রথম দেশ হিসেবে রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ বাধার পর ইউক্রেনকে বিমান সহায়তা দেবে। 

যুদ্ধ শুরু হওয়ার পর রাশিয়ার আক্রমণ প্রতিহত করতে যুক্তরাষ্ট্র ও বিভিন্ন দেশের কাছে বিমান চান ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কি। কিন্তু সে সময় ঝুঁকির কথা চিন্তা করে কেউ বিমান দিতে রাজী হয়নি। 

সূত্র: আল জাজিরা 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা