রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে কিছুটা সময় লাগবে: সু চি

  যুগান্তর ডেস্ক ০৯ জুন ২০১৮, ১৫:২৬ | অনলাইন সংস্করণ

অং সান সু চি
ছবি: এনএইচকে

নিজ দেশে রোহিঙ্গাদের ফেরত নেয়ার বিষয়ে এই প্রথম মুখোমুখি কোনো সাক্ষাৎকারে আশ্বাস দিলেন মিয়ানমারের নেত্রী অং সান সু চি।

বৃহস্পতিবার জাপানের সংবাদমাধ্যম এনএইচকে-তে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে অং সান সু চি বলেন, রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে কিছুটা সময় লাগবে। কারণ তাদের ব্যাপারে মিয়ানমারের অন্য মানুষের মনে যে গভীর বিদ্বেষ রয়েছে, সেটা দূর হতে কিছুটা সময় প্রয়োজন।

রোহিঙ্গাদের ফেরত নেয়ার বিষয়ে সু চি বলেন, রোহিঙ্গাদের ফেরত নেয়ার জন্য দুই পক্ষকেই সমানভাবে কাজ করতে হবে।

তিনি বলেন, মিয়ানমার ও বাংলাদেশের মধ্যে স্বাক্ষরিত সমঝোতা স্মারক অনুযায়ী আমরা ফরম দিয়েছিলাম শরণার্থীদের মধ্যে বিতরণের জন্য, যেগুলো পূরণ করে দেয়ার কথা। কিন্তু সেভাবে ফরমগুলো বিতরণ করা হয়নি।

কত দ্রুত রোহিঙ্গাদের ফেরত নেয়া সম্ভব হবে এমন প্রশ্নের জবাবে সু চি বলেন, এই বিষয়টি যতটা আমাদের ওপর নির্ভর করছে, ঠিক ততটা বাংলাদেশের ওপরও। এটা হচ্ছে একটি দ্বিমুখী বিষয়। ফরমগুলো বিতরণ করা না হলে এবং শরণার্থীরা আইনসম্মত ও বৈধ উপায়ে রাখাইনে ফেরার উপায় না জানলে আমরা দ্রুত পরিস্থিতির উন্নতি করতে পারব না।

গত বুধবার রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে প্রত্যাবর্তন বিষয়ে মিয়ানমার ও জাতিসংঘের মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে সু চি বলেন, চুক্তিতে শরণার্থীদের ব্যাপারে যেসব দায়িত্ব গ্রহণ করা উচিত তার সবই আমরা গ্রহণ করেছি।

মিয়ানমারের গণতান্ত্রিক বাস্তবতা নিয়ে জানতে চাইলে সু চি বলেন, মিয়ানমারে সামরিক প্রভাব এখনো শক্তিশালী। পার্লামেন্টের ২৫ শতাংশ আসন এখন পর্যন্ত জেনারেলদের জন্য সংরক্ষিত থাকে। আসলে আমরা এখনো পুরোপুরি গণতান্ত্রিক দেশ হয়ে উঠতে পারিনি। আমাদের সংবিধানও পুরোপুরি গণতান্ত্রিক নয়।

 

 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter