মহাসাগরে জন্ম নিল ‘শিশু’ দ্বীপ
jugantor
মহাসাগরে জন্ম নিল ‘শিশু’ দ্বীপ

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ২২:৪৩:৪৩  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রশান্ত মহাসাগরের মধ্যে অবস্থিত দ্বীপরাষ্ট্র টোঙ্গা স্বাগত জানিয়েছে একটি নতুন শিশুকে। সেই নতুন শিশু হলো একটি ‘শিশু’ দ্বীপ যা আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাতের ফলে সৃষ্টি হয়েছে।

নতুন শিশু দ্বীপটি দক্ষিণ-পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরে সৃষ্টি হয়েছে। ওই অঞ্চলে পানির নিচে রয়েছে অনেক আগ্নেয়গিরি। এই নিমজ্জিত আগ্নেয়গিরিগুলোর মধ্যে একটি থেকে গত ১০ অগ্নুৎপাত ‍শুরু হয় বলে নাসা আর্থ অবজারভেটরি এক বিবৃতিতে জানিয়েছে।

আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত শুরু হওয়ার মাত্র ১১ ঘণ্টা পর একটি নতুন দ্বীপ ভূপৃষ্ঠের উপরে ভেসে ওঠে বলে জানিয়েছে নাসা। স্যাটেলাইট দিয়ে সদ্য জন্ম দেওয়া দ্বীপেরও ছবি ধারণ তারা।

নাসা জানায়, নতুন দ্বীপটি আকারে দ্রুত বৃদ্ধি পেয়েছে। টোঙ্গা ভূতাত্ত্বিক সার্ভিসের গবেষকরা অনুমান করেছিলেন ১৪ সেপ্টেম্বর দ্বীপটির আয়তন ছিল মাত্র চার হাজার বর্গ মিটার বা প্রায় এক একর। কিন্তু ২০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে, দ্বীপটি ২৪ হাজার বর্গ মিটার বা প্রায় ৬ একর আয়তনে বেড়েছে।

মহাসাগরে জন্ম নিল ‘শিশু’ দ্বীপ

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১০:৪৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

প্রশান্ত মহাসাগরের মধ্যে অবস্থিত দ্বীপরাষ্ট্র টোঙ্গা স্বাগত জানিয়েছে একটি নতুন শিশুকে। সেই নতুন শিশু হলো একটি ‘শিশু’ দ্বীপ যা আগ্নেয়গিরির অগ্নুৎপাতের ফলে সৃষ্টি হয়েছে। 

নতুন শিশু দ্বীপটি দক্ষিণ-পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরে সৃষ্টি হয়েছে। ওই অঞ্চলে পানির নিচে রয়েছে অনেক আগ্নেয়গিরি। এই নিমজ্জিত আগ্নেয়গিরিগুলোর মধ্যে একটি থেকে গত ১০ অগ্নুৎপাত  ‍শুরু হয় বলে নাসা আর্থ অবজারভেটরি এক বিবৃতিতে জানিয়েছে।

আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত শুরু হওয়ার মাত্র ১১ ঘণ্টা পর একটি নতুন দ্বীপ ভূপৃষ্ঠের উপরে ভেসে ওঠে বলে জানিয়েছে নাসা। স্যাটেলাইট দিয়ে সদ্য জন্ম দেওয়া দ্বীপেরও ছবি ধারণ তারা। 

নাসা জানায়, নতুন দ্বীপটি আকারে দ্রুত বৃদ্ধি পেয়েছে। টোঙ্গা ভূতাত্ত্বিক সার্ভিসের গবেষকরা অনুমান করেছিলেন ১৪ সেপ্টেম্বর দ্বীপটির আয়তন ছিল মাত্র চার হাজার বর্গ মিটার বা প্রায় এক একর। কিন্তু ২০ সেপ্টেম্বরের মধ্যে, দ্বীপটি ২৪ হাজার বর্গ মিটার বা প্রায় ৬ একর আয়তনে বেড়েছে।
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন