জাতিসংঘে মস্কোবিরোধী নিন্দা প্রস্তাবে ভোট দিল না চীন-ভারত
jugantor
জাতিসংঘে মস্কোবিরোধী নিন্দা প্রস্তাবে ভোট দিল না চীন-ভারত

  অনলাইন ডেস্ক  

০১ অক্টোবর ২০২২, ১০:৪২:৩০  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের অধিকৃত চার অঞ্চল রাশিয়ার অন্তর্ভুক্ত করার ঘোষণায় জাতিসংঘে উত্থাপন করা মস্কোবিরোধী নিন্দা প্রস্তাবে ভোট দেয়নি ভারত, চীন, ব্রাজিল ও গাবুন।

জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্র ও আলবেনিয়া এ খসড়া প্রস্তাবটি উত্থাপন করে। খবর আনাদোলুর।

১৫ সদস্যের এ নিরাপত্তা পরিষদে প্রস্তাবটির বিপক্ষে একমাত্র ভোটটি প্রদান করে রাশিয়া। যুক্তরাষ্ট্রসহ ১০ দেশ এর পক্ষে ভোট দেয়।

পরে এ প্রস্তাবটি জাতিসংঘের ১৯৩ সদস্যবিশষ্ট সাধারণ পরিষদে উত্থাপন করা হবে।

জাতিসংঘ রাশিয়ার এ পদক্ষেপকে অবৈধ আখ্যায়িত করে মস্কোর নিন্দা জানিয়েছে।

উল্লেখ্য, ইউক্রেনের দোনেৎস্ক, লুহানস্ক, জাপোরিঝিয়া ও খেরসন— এই চার অঞ্চলকে শুক্রবার আনুষ্ঠানিকভাবে রাশিয়ার অন্তর্ভুক্ত করার কথা ঘোষণা করা হয়েছে।

মস্কোর দাবি, এ চার অঞ্চলেই গণভোটে রাশিয়ার জয় হয়েছে। জাতিসংঘে আমেরিকাসহ পশ্চিমা দেশগুলো মস্কোর এ দাবির বিরোধিতা করেছিল। এ গণভোটকে তারা ‘ভুয়া’ বলেও দাবি করে আসছে।

জাতিসংঘে মস্কোবিরোধী নিন্দা প্রস্তাবে ভোট দিল না চীন-ভারত

 অনলাইন ডেস্ক 
০১ অক্টোবর ২০২২, ১০:৪২ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইউক্রেনের অধিকৃত চার অঞ্চল রাশিয়ার অন্তর্ভুক্ত করার ঘোষণায় জাতিসংঘে উত্থাপন করা মস্কোবিরোধী নিন্দা প্রস্তাবে ভোট দেয়নি ভারত, চীন, ব্রাজিল ও গাবুন।

জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে শুক্রবার যুক্তরাষ্ট্র ও আলবেনিয়া এ খসড়া প্রস্তাবটি উত্থাপন করে। খবর আনাদোলুর।

১৫ সদস্যের এ নিরাপত্তা পরিষদে প্রস্তাবটির বিপক্ষে একমাত্র ভোটটি প্রদান করে রাশিয়া। যুক্তরাষ্ট্রসহ ১০ দেশ এর পক্ষে ভোট দেয়।

পরে এ প্রস্তাবটি জাতিসংঘের ১৯৩ সদস্যবিশষ্ট সাধারণ পরিষদে উত্থাপন করা হবে।   
 
জাতিসংঘ রাশিয়ার এ পদক্ষেপকে অবৈধ আখ্যায়িত করে মস্কোর নিন্দা জানিয়েছে।

উল্লেখ্য, ইউক্রেনের দোনেৎস্ক, লুহানস্ক, জাপোরিঝিয়া ও খেরসন— এই চার অঞ্চলকে শুক্রবার আনুষ্ঠানিকভাবে রাশিয়ার অন্তর্ভুক্ত করার কথা ঘোষণা করা হয়েছে।

মস্কোর দাবি, এ চার অঞ্চলেই গণভোটে রাশিয়ার জয় হয়েছে। জাতিসংঘে আমেরিকাসহ পশ্চিমা দেশগুলো মস্কোর এ দাবির বিরোধিতা করেছিল। এ গণভোটকে তারা ‘ভুয়া’ বলেও দাবি করে আসছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : রাশিয়া-ইউক্রেন উত্তেজনা