ইরানে বিক্ষোভ দমনে প্রথম মৃত্যুদণ্ড কার্যকর
jugantor
ইরানে বিক্ষোভ দমনে প্রথম মৃত্যুদণ্ড কার্যকর

  যুগান্তর ডেস্ক  

০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২১:৩৪:৪৩  |  অনলাইন সংস্করণ

ইরানে সরকারবিরোধী বিক্ষোভের জন্য দোষী সাব্যস্ত একজন বিক্ষোভকারীর প্রথম মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করার ঘোষণা দিয়েছে।

রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, একটি বিপ্লবী আদালতে ‘সৃষ্টিকর্তার বিরুদ্ধে শত্রুতার’ দোষে দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর বৃহস্পতিবার সকালে একজনকে ফাঁসি দেওয়া হয়।

একজন ‘দাঙ্গাকারী’ হিসাবে অভিযুক্ত ওই বিক্ষোভকারীর নাম মোহসেন শেখারিকে । তিনি ২৫ সেপ্টেম্বর তেহরানের একটি প্রধান সড়ক অবরোধ করেছিলেন এবং আধাসামরিক বাসিজ বাহিনীর একজন সদস্যকে ছুরি দিয়ে আহত করেছিলেন।

একজন বিক্ষোভকারী বলেছেন, ‘যথাযথ কোনো প্রক্রিয়া ছাড়াই লোকদেখানো বিচারের পর’ তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়।

বিচার বিভাগের মিজান বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, মোহসেন রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেছিলেন, কিন্তু ২০ নভেম্বর সুপ্রিমকোর্ট আগের রায়ই বহাল রাখেন।

ইরানের বিচার বিভাগ সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি থেকে শুরু হওয়া বিক্ষোভের ঘটনায় এ পর্যন্ত ১১ জনের বিরুদ্ধে মৃত্যুদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছে। তবে আসামিদের পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি।

দেশটির কঠোর হিজাব নীতি লঙ্ঘনের দায়ে গ্রেফতার মাহসা আমিনির (২২) পুলিশি হেফাজতে মৃত্যুর পর থেকে ইরানজুড়ে বিক্ষোভ চলছে। চলমান এই বিক্ষোভ দেশটির ৩১টি প্রদেশের ১৬০টি শহরে ছড়িয়ে পড়েছে। যা ১৯৭৯ সালের বিপ্লবের পর থেকে ইসলামি প্রজাতন্ত্রের জন্য সবচেয়ে বড় আন্দোলন হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ ছাড়াও হিজাববিরোধী এই আন্দোলন সরকারবিরোধী আন্দোলনে রূপ নিয়েছে।

ইরানে বিক্ষোভ দমনে প্রথম মৃত্যুদণ্ড কার্যকর

 যুগান্তর ডেস্ক 
০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:৩৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ইরানে সরকারবিরোধী বিক্ষোভের জন্য দোষী সাব্যস্ত একজন বিক্ষোভকারীর প্রথম মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করার ঘোষণা দিয়েছে। 

রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, একটি বিপ্লবী আদালতে ‘সৃষ্টিকর্তার বিরুদ্ধে শত্রুতার’ দোষে দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পর বৃহস্পতিবার সকালে একজনকে ফাঁসি দেওয়া হয়। 

একজন ‘দাঙ্গাকারী’ হিসাবে অভিযুক্ত ওই বিক্ষোভকারীর নাম মোহসেন শেখারিকে । তিনি ২৫ সেপ্টেম্বর তেহরানের একটি প্রধান সড়ক অবরোধ করেছিলেন এবং আধাসামরিক বাসিজ বাহিনীর একজন সদস্যকে ছুরি দিয়ে আহত করেছিলেন। 

একজন বিক্ষোভকারী বলেছেন, ‘যথাযথ কোনো প্রক্রিয়া ছাড়াই লোকদেখানো বিচারের পর’ তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। 

বিচার বিভাগের মিজান বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, মোহসেন রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেছিলেন, কিন্তু ২০ নভেম্বর সুপ্রিমকোর্ট আগের রায়ই বহাল রাখেন। 

ইরানের বিচার বিভাগ সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি থেকে শুরু হওয়া বিক্ষোভের ঘটনায় এ পর্যন্ত ১১ জনের বিরুদ্ধে মৃত্যুদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছে। তবে আসামিদের পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। 

দেশটির কঠোর হিজাব নীতি লঙ্ঘনের দায়ে গ্রেফতার মাহসা আমিনির (২২) পুলিশি হেফাজতে মৃত্যুর পর থেকে ইরানজুড়ে বিক্ষোভ চলছে। চলমান এই বিক্ষোভ দেশটির ৩১টি প্রদেশের ১৬০টি শহরে ছড়িয়ে পড়েছে। যা ১৯৭৯ সালের বিপ্লবের পর থেকে ইসলামি প্রজাতন্ত্রের জন্য সবচেয়ে বড় আন্দোলন হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ ছাড়াও হিজাববিরোধী এই আন্দোলন সরকারবিরোধী আন্দোলনে রূপ নিয়েছে। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন