শৈশবে অতিরিক্ত ওজন মূত্রথলি ক্যান্সারের ঝুঁকি বাড়ায়: গবেষণা

  লাইফস্টাইল ডেস্ক ০৫ জুন ২০২০, ১২:২৩:২১ | অনলাইন সংস্করণ

ছবি সংগৃহীত

শৈশবে যেসব শিশুর অতিরিক্ত ওজন থাকে, পরিণত বয়সে তাদের মূত্রথলিতে ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি অন্যদের তুলনায় বেশি বলে জানিয়েছে একটি গবেষণা।

‘অ্যানালস অফ হিউম্যান বায়োলজি’ শীর্ষক সাময়িকীতে গবেষণাটি প্রকাশিত হয়।

ডেনমার্কের ৩ লাখ ১৫ হাজারেরও বেশি শিশুর তথ্যের ওপর ভিত্তি করে এ গবেষণা পরিচালনা করা হয়।

গবেষণায় দেখা যায়, শারীরিক অতিরিক্ত ওজন পরিণত বয়সে বিভিন্ন রোগ বয়ে আনে।

শৈশবে ‘বডি ম্যাস ইনডেক্স’য়ের মাত্রা স্বাভাবিকের তুলনায় বেশি হলে, জন্মের সময় ওজন কম কিংবা বেশি এবং উচ্চতা গড় স্বাভাবিকের তুলনায় কম হওয়ারও ক্ষতিকর প্রভাব রয়েছে।

বিভিন্ন ধরনের ক্যান্সারের মধ্যে রোগীর সংখ্যায় নবম স্থানে রয়েছে মূত্রথলির ক্যান্সার। এর ফিরে আসার হার যেমন বেশি, তেমনি ৬৫ বছরের বেশি বয়সের মানুষ এ রোগে বেশি আক্রমণ হয়।

ডেনমার্কের ‘বিসপেজার্গ অ্যান্ড ফ্রেডরিস্কবার্গ হসপিটাল’য়ের ডা. ক্যাথরিন কে সোরেনসেন এ গবেষণার নেতৃত্ব দেন।

তিনি বলেন, গবেষণার ফল ইঙ্গিত করে যে, শিশুর ওজন যত বেশি হবে ভবিষ্যতে তার মূত্রথলির ক্যান্সার হওয়ার আশঙ্কাও ততই বাড়তে থাকবে। শৈশবে শারীরিক গড়ন পরবর্তী জীবনের কী ধরনের প্রভাব ফেলে তা জানতে বড় ধরনের সহযোগিতা করবে এই গবেষণা।


এই গবেষণায় ৩ লাখ ১৫ হাজার ৭৬৩ শিশুর তথ্য নিয়ে পর্যালোচনা করা হয়। যাদের জন্ম হয়েছিল ১৯৩০ থেকে ১৯৮৯ সালের মধ্যে এবং তাদের বয়স ছিল সাত থেকে ১৩ বছর।

‘কোপেনহেইগেন স্কুল হেলথ রেকর্ড’য়ে তালিকাভুক্ত তথ্যের মধ্যে ছিল ওই শিশুদের ‘বডি ম্যাস ইনডেক্স’য়ের মাত্রা, জন্মের সময়কার ওজন ও উচ্চতা। এই তথ্যের সঙ্গে ‘ড্যানিশ ক্যান্সার রেজিস্ট্রি’র তথ্য মিলিয়ে দেখা হয়। গবেষণার আওতাভুক্তদের মধ্যে এক হাজার ১৪৫ জন মানুষ পরিণত বয়সে এসে মূত্রথলির ক্যান্সারে আক্রান্ত হন, যাদের ৮৩৯ জনই ছিল পুরুষ।

গবেষণার জ্যেষ্ঠ লেখক ডা. জেনিফার এল বেকার বলেন, পাঁচ ফুট উচ্চতার দুজন ১৩ বছর বয়সী ছেলের ওজন যদি ৪২.৫ কেজি ও ৪৮.৪ কেজি হয়, তবে যার ওজন বেশি তার মূত্রথলির ক্যান্সারের আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা ১০ শতাংশ বেশি।

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-[email protected]-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
 

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত