এ সময় গ্যাসের চুলা ব্যবহারে সতর্কতা
jugantor
এ সময় গ্যাসের চুলা ব্যবহারে সতর্কতা

  স্বর্ণালি সাঈদ  

০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৩:০৯:৩৯  |  অনলাইন সংস্করণ

ছবি সংগৃহীত

শীতকালে অগ্নিকাণ্ডের খবর বেশি পাওয়া যায়। রান্নাঘরের চুলা, শোবারঘরের কয়েল, গ্যাস সিলিন্ডার অথবা বিদ্যুতের শর্টসার্কিট থেকে ঘটতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা। তাই প্রয়োজন একটু বাড়তি সতর্কতা।

১. অপ্রয়োজনে রান্নাঘরে গ্যাসের চুলা জ্বালিয়ে রাখবেন না। চুলার ওপরে কাপড় শুকাতে দেবেন না।

২. বাসা থেকে বের হওয়ার সময় রান্নাঘরে চুলা বন্ধ রয়েছে কিনা দেখে নিন।

৩. রান্নাঘরে একটি জানালা সবসময় খোলা রাখুন।

৪. শীতে ঘরের মশা তাড়াতে অনেকে কয়েল ব্যবহার করেন। কয়েল অবশ্যই এমন পাত্রে রাখবেন না, যেটায় আগুন লাগতে পারে।

৫. ঘুমের সময় কয়েলের পরিবর্তে মশারি ব্যবহার করুন।

৬. অনেকেই শীতের প্রকোপ থেকে বাঁচতে আগুন পোহান। এটি না করাই ভালো।

৭. গ্যাসলাইনে লিকেজ থাকলে অবহেলা না করে মেকানিক ডেকে সারিয়ে নিন দ্রুত।

৮. নিয়মিত বিদ্যুৎ ও গ্যাসের লাইন ঠিক আছে কিনা চেক করুন।

৯. অগ্নিকাণ্ড হলে প্রথমে সব বিদ্যুতের মেইন সুইচ বন্ধ করে দিন। এ ছাড়া দ্রুত নিরাপদ স্থানে সরে যান ও ফায়ার সার্ভিসে যোগাযোগ করুন।

ফায়ার ব্রিগেড ইমারজেন্সি নম্বর : ৯৯৯ (পুলিশ, অ্যাম্বুলেন্স ও ফায়ার সার্ভিসের সেবার জন্য) হেড অফিস কন্ট্রোলরুম-৯৫৫৫৫৫৫-৯৫৫৬৬৬৬

লেখক: গৃহিণী।

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-[email protected]-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

এ সময় গ্যাসের চুলা ব্যবহারে সতর্কতা

 স্বর্ণালি সাঈদ 
০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০১:০৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ছবি সংগৃহীত
ছবি সংগৃহীত

শীতকালে অগ্নিকাণ্ডের খবর বেশি পাওয়া যায়। রান্নাঘরের চুলা, শোবারঘরের কয়েল, গ্যাস সিলিন্ডার অথবা বিদ্যুতের শর্টসার্কিট থেকে ঘটতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা। তাই প্রয়োজন একটু বাড়তি সতর্কতা। 

১. অপ্রয়োজনে রান্নাঘরে গ্যাসের চুলা জ্বালিয়ে রাখবেন না। চুলার ওপরে কাপড় শুকাতে দেবেন না।

২. বাসা থেকে বের হওয়ার সময় রান্নাঘরে চুলা বন্ধ রয়েছে কিনা দেখে নিন। 

৩. রান্নাঘরে একটি জানালা সবসময় খোলা রাখুন।  
 
৪. শীতে ঘরের মশা তাড়াতে অনেকে কয়েল ব্যবহার করেন। কয়েল অবশ্যই এমন পাত্রে রাখবেন না, যেটায় আগুন লাগতে পারে।

৫. ঘুমের সময় কয়েলের পরিবর্তে মশারি ব্যবহার করুন।

৬. অনেকেই শীতের প্রকোপ থেকে বাঁচতে আগুন পোহান। এটি না করাই ভালো।  

৭. গ্যাসলাইনে লিকেজ থাকলে অবহেলা না করে মেকানিক ডেকে সারিয়ে নিন দ্রুত। 

৮. নিয়মিত বিদ্যুৎ ও গ্যাসের লাইন ঠিক আছে কিনা চেক করুন।  

৯. অগ্নিকাণ্ড হলে প্রথমে সব বিদ্যুতের মেইন সুইচ বন্ধ করে দিন। এ ছাড়া দ্রুত নিরাপদ স্থানে সরে যান ও ফায়ার সার্ভিসে যোগাযোগ করুন। 

ফায়ার ব্রিগেড ইমারজেন্সি নম্বর : ৯৯৯ (পুলিশ, অ্যাম্বুলেন্স ও ফায়ার সার্ভিসের সেবার জন্য) হেড অফিস কন্ট্রোলরুম-৯৫৫৫৫৫৫-৯৫৫৬৬৬৬

লেখক: গৃহিণী।

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-[email protected]-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]