বাদল দিনে কেন লং ড্রাইভে যাবেন

প্রকাশ : ২৬ এপ্রিল ২০১৮, ১৭:২৭ | অনলাইন সংস্করণ

  লাইফস্টাইল ডেস্ক

বাদল দিনে কেন লং ড্রাইভে যাবেন

লং ড্রাইভে আগ্রহ নেই এমন মানুষের সংখ্যা কিন্তু নিতান্তই কম। শহুরে কোলাহলময় জীবনের চাপে যেখানে প্রাণ খুলে তৃষ্ণা মেটানো দায় সেখানে লং ড্রাইভ ভালো লাগবারই কথা। আর তা যদি হয় বৃষ্টির দিনের তাহলে তো কথাই নেই। বাদল দিনের মানুষের মনটা একটু উদাসীন হয়। মন চায় প্রশান্তি ।বৃষ্টির সঙ্গে যেন মনের কষ্টও ধুয়ে-মুছে যায়। 

আসুন জেনে নেই বাদল দিনে কেন লং ড্রাইভে যাবেন।

ভালোবাসা জানাতে

বাদল দিনে মানুষের মনে নামে প্রশান্তি। আর তাই এ দিনে প্রিয়জনকে আপনার মনের সব ভালোবাসা জানাতে পারেন। বাদল দিনে ভালোবাসা অন্য দিনের চেয়ে সত্যি ব্যতিক্রম। তাই লং ড্রাইভে যান আর প্রিয়জনকে ভালোবাসার কথা জানান।

বৃষ্টিতে ভেজা

অ্যাডভেঞ্চার পছন্দ, এমন দম্পতিরা বা প্রেমিক-প্রেমিকা বৃষ্টিতে ভিজতে পারেন। একে অন্যের হাত ধরে ঝিরঝির বৃষ্টিতে ভেজা, বিষয়টি অনেক রোমান্টিকও বটে। এতে নিজেদের মধ্যে সম্পর্ক আরও গভীর হবে। আপনার মনের ডায়েরিতে সারা জীবন ভালোবাসার অক্ষরে বন্দি হয়ে যাবে প্রিয় দিনটি।

লং ড্রাইভ

বাদল দিনে প্রিয়জনের প্রতি ভালোবাসা বাড়ানোর আরেকটি মজার ব্যাপার হলো লং ড্রাইভে যাওয়া। কাছাকাছি কোনো স্থান থেকে ঘুরে আসতে পারেন। গাড়িতে করে ঘুরেও এলেন আর সঙ্গে একটু চায়ের বন্দোবস্ত থাকলে তো কথাই নেই।

গাড়িতে গান শোনেন

বৃষ্টিতে লং ড্রাইভে যাওয়ার সময় প্রিয় কোনো গান শুনতে পারেন। সঙ্গে একটু পপকর্ন বা পছন্দসই খাবার থাকলে পুরো ব্যাপারটাই দারুণ জমবে।

সম্পর্ক আরও গভীর হবে

বৃষ্টিতে প্রিয়জনের সঙ্গে লং ড্রাইভে গেলে আবেদনটা অনেক বেশি থাকে। প্রিয়জনের প্রতি টান বেড়ে যায়। সম্পর্ক আরও গভীর হয়।

সম্পর্কের দূরত্ব কমবে

কোনো কারণে যদি প্রিয়জনের সঙ্গে ঝগড়া হয় তবে যেতে পারেন লং ড্রাইভে। ভালো হবে মন। সঙ্গীর সঙ্গে কোনো সমস্যা থাকলে তা মিটিয়ে নিতে পারবেন সহজে। 

দিনটি হয়ে থাকবে স্মরণীয়

বাদলে ভেজা এই দিনটি থাকবে স্মরণীয় হয়ে। লিখে ফেলুন ডায়েরির পাতায়। প্রিয়জনের সঙ্গে এমন স্মৃতি কি ভোলা যায়। প্রিয়জনের এই প্রিয় মুহূর্ত দীর্ঘস্থায়ী করবে আপনার সম্পর্ক। 

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন[email protected]এ ঠি।কানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]