যেসব খাবারে কমে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা
jugantor
যেসব খাবারে কমে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

  লাইফস্টাইল ডেস্ক  

১১ জুন ২০২১, ১৫:৫৪:৫৫  |  অনলাইন সংস্করণ

যেসব খাবার খেলে কমে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

করোনা মহামারিকালে সবাই ইমিউনিটি নিয়ে চিন্তিত। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা যাদের কম, করোনায় তাদের মৃত্যুঝুঁকি রয়েছে। কিছু খাবারে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে। আবার কিছু খাবার আছে, যা খেলে ইমিউনিটি কমে যায়। আসুন জেনে নিই সেই সম্পর্কে—

চিনি: প্রতিদিনের খাদ্যাভ্যাসে চিনির পরিমাণ কমাতে হবে। বেশি চিনিযুক্ত খাবার খাওয়ার ফলে রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে যেতে পারে।

এটি টিউমার নেক্রোসিস আলফা, সি-অ্যাকটিভ প্রোটিন এবং ইন্টারলেউকিন প্রোটিনের উৎপাদন বাড়িয়ে দিতে পারে, যা পুরো ইমিউনিটি সিস্টেমের ওপর ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে। এ ছাড়া রক্তের শর্করার পরিমাণ বেশি হলে তা শরীরের ক্ষতি করে ও ভারসাম্যহীনতা সৃষ্টি করে।

লবণ: প্যাকেট চিপস, বিভিন্ন নোনতা বেকারি খাবার এবং বিভিন্ন প্যাকেটজাত খাবার পরিহার করতে হবে। এগুলোতে থাকা লবণের অটোইমিউন বিভিন্ন রোগের ঝুঁকি বাড়াতে পারে। তাই প্রয়োজনের বেশি লবণ না খাওয়াই উচিত।

বিভিন্ন ফ্রাইস: বাইরের বিভিন্ন ভাজা খাবারে উন্নত গ্লাইকেশন অ্যান্ড প্রোডাক্ট বেশি থাকে। উচ্চ-তাপমাত্রায় রান্নার সময় এতে থাকা সুগার, প্রোটিন বা ফ্যাটগুলোর সঙ্গে প্রতিক্রিয়া করে খুব উচ্চস্তরের এজিই সৃষ্টি করে, যা দেহের অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট প্রক্রিয়াগুলোসহ সেলুলার কর্মহীনতা এবং অন্ত্রের ব্যাক্টেরিয়াকে নেতিবাচকভাবে প্রভাবিত করে। ফলে শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায়। ফ্রেঞ্চ ফ্রাই, আলু চিপস, প্যান-ফ্রাইড স্টেক, ফ্রাইড বেকন এবং মাছের মতো ইত্যাদি ফ্রাইসগুলো পরিহার করতে হবে।

কফি ও চা: চা ও কফিতে বেশি মাত্রায় অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকার কারণে তা ঘুম কমিয়ে দেয়। ঘুম কম হলে তা ইমিউনিটি কমিয়ে ফেলতে পারে। তাই ক্যাফিনেটযুক্ত সোডা বা কৃত্রিম মিষ্টি দিয়ে তৈরি বিভিন্ন পানীয় এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।

তথ্যসূত্র: জি নিউজ

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-jugantorlifestyle@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]

যেসব খাবারে কমে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা

 লাইফস্টাইল ডেস্ক 
১১ জুন ২০২১, ০৩:৫৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
যেসব খাবার খেলে কমে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা
ছবি: সংগৃহীত

করোনা মহামারিকালে সবাই ইমিউনিটি নিয়ে চিন্তিত। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা যাদের কম, করোনায় তাদের মৃত্যুঝুঁকি রয়েছে। কিছু খাবারে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে। আবার কিছু খাবার আছে, যা খেলে ইমিউনিটি কমে যায়। আসুন জেনে নিই সেই সম্পর্কে—

চিনি: প্রতিদিনের খাদ্যাভ্যাসে চিনির পরিমাণ কমাতে হবে। বেশি চিনিযুক্ত খাবার খাওয়ার ফলে রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে যেতে পারে।

এটি টিউমার নেক্রোসিস আলফা, সি-অ্যাকটিভ প্রোটিন এবং ইন্টারলেউকিন প্রোটিনের উৎপাদন বাড়িয়ে দিতে পারে, যা পুরো ইমিউনিটি সিস্টেমের ওপর ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে। এ ছাড়া রক্তের শর্করার পরিমাণ বেশি হলে তা শরীরের ক্ষতি করে ও ভারসাম্যহীনতা সৃষ্টি করে। 

লবণ: প্যাকেট চিপস, বিভিন্ন নোনতা বেকারি খাবার এবং বিভিন্ন প্যাকেটজাত খাবার পরিহার করতে হবে। এগুলোতে থাকা লবণের অটোইমিউন বিভিন্ন রোগের ঝুঁকি বাড়াতে পারে। তাই প্রয়োজনের বেশি লবণ না খাওয়াই উচিত। 

বিভিন্ন ফ্রাইস: বাইরের বিভিন্ন ভাজা খাবারে উন্নত গ্লাইকেশন অ্যান্ড প্রোডাক্ট বেশি থাকে। উচ্চ-তাপমাত্রায় রান্নার সময় এতে থাকা সুগার, প্রোটিন বা ফ্যাটগুলোর সঙ্গে প্রতিক্রিয়া করে খুব উচ্চস্তরের এজিই সৃষ্টি করে, যা দেহের অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট প্রক্রিয়াগুলোসহ সেলুলার কর্মহীনতা এবং অন্ত্রের ব্যাক্টেরিয়াকে নেতিবাচকভাবে প্রভাবিত করে। ফলে শরীরের প্রতিরোধ ক্ষমতা কমে যায়।  ফ্রেঞ্চ ফ্রাই, আলু চিপস, প্যান-ফ্রাইড স্টেক, ফ্রাইড বেকন এবং মাছের মতো ইত্যাদি ফ্রাইসগুলো পরিহার করতে হবে।

কফি ও চা: চা ও কফিতে বেশি মাত্রায় অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকার কারণে তা ঘুম কমিয়ে দেয়। ঘুম কম হলে তা ইমিউনিটি কমিয়ে ফেলতে পারে।  তাই ক্যাফিনেটযুক্ত সোডা বা কৃত্রিম মিষ্টি দিয়ে তৈরি বিভিন্ন পানীয় এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।

তথ্যসূত্র: জি নিউজ

[প্রিয় পাঠক, আপনিও দৈনিক যুগান্তর অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইলবিষয়ক ফ্যাশন, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, নারী, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, এখন আমি কী করব, খাবার, রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন-jugantorlifestyle@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে।]
যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন