অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০২০: বই মেলায় আলোচিত ১০ বই

  যুগান্তর ডেস্ক    ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৫:৩৪ | অনলাইন সংস্করণ

অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০২০: বই মেলায় আলোচিত ১০ বই। ছবি: যুগান্তর
অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০২০: বই মেলায় আলোচিত ১০ বই। ছবি: যুগান্তর

বইমেলা এখন জমজমাট। এবারের বইমেলায় বেশ কিছু বই আলোচনায় এসেছে। নানান বিষয়আশয়ের ওপর লেখা এসব বইয়ের মধ্যে কিছু আছে সর্বাধিক বিক্রির তালিকাতেও। পাঠকপ্রিয় হয়ে ওঠা এই বইগুলোর মধ্যে আছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বই, আছে উপন্যাস, বৈজ্ঞানিক কল্পকাহিনী, ছড়া, রম্য ও তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ক বইও। জেনে নিন অমর একুশে গ্রন্থমেলা ২০২০–এর ১০টি আলোচিত বই সম্পর্কে।

১. আমার দেখা নয়াচীন

লেখক: বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান

প্রকাশক : বাংলা একাডেমি

দাম: ৪০০ টাকা।

১৯৫২ সালে বঙ্গবন্ধু চীনে শান্তি সম্মেলনে গিয়েছিলেন। পূর্ববঙ্গ থেকে প্রতিনিধি দলের সদস্য হিসেবে তিনি আমন্ত্রিত ছিলেন। সেখানে যাবার পথটি, কীভাবে গিয়েছেন তার বিস্তারিত বর্ণনা আছে এই বইয়ে। বিশেষভাবে লক্ষণীয়, এই বইতেই লেখা আছে—তিনি শান্তি সম্মেলনে বাংলা ভাষায় বক্তৃতা দিয়েছিলেন। মনোজ বসু তাঁর বইয়ে এ কথা লিখেছেন। এসবই এই বইতে পাওয়া যাবে।

২. গ্লিনা

লেখক: মুহম্মদ জাফর ইকবাল

প্রকাশক: সময় প্রকাশন

দাম: ২৪০ টাকা।

গ্লিনা তার কথা শেষ করতে পারে না তার আগেই আবার খিল খিল করে হাসতে শুরু করে। হাসতে হাসতে মেয়েটি যখন তার কোমরে ঝোলানো অস্ত্রটি খুলে নিতে থাকে, তখন কী জানেন মনে হয় এবং কি কি অপূর্ব সুন্দরী, কি নিষ্পাপ তার দু'টি চোখ, কি অপূর্ব স্বর্গের দেবীর মত তার চেহারা।

যারা এই মেয়েটির নকশা করেছে তারা নিশ্চয়ই সমস্ত পৃথিবীর সৌন্দর্য একত্র করে এই মেয়েটির ডিজাইন করেছে। তার দিকে তীক্ষ্ণ দৃষ্টিতে তাকিয়ে থেকেও বোঝা সম্ভব নয় এই মেয়েটির সত্যিকারের মানুষ নয়। এসব অনেক কথা গ্লিনা বইটিতে রয়েছে।

৩. এখানে থেমো না

লেখক: আনিসুল হক

প্রকাশক: প্রথমা প্রকাশ

দাম: ৫৫০ টাকা।

রাত্রি ১২টা। ক্রিং ক্রিং। হাজি মোরশেদ ফোন ধরলেন, ‘হ্যালো।’ ‘হ্যালো, বলধা গার্ডেন থেকে বলছি।’ ‘আমি শেখ মুজিবের বাড়ি থেকে বলছি।’ ‘মেসেজ পাঠানো হয়ে গেছে। মেশিন কী করব?’ ‘আপনি একটু ধরেন। মুজিব ভাইকে জিজ্ঞেস করে আসছি।’ হাজি মোরশেদ দৌড়ে গেলেন বঙ্গবন্ধুর কাছে। ‘মেসেজ পাঠানো হয়ে গেছে, মেশিন কী করবে জানতে চায়।’ মুজিব বললেন, ‘মেশিন ভেঙে ফেলে পালিয়ে যেতে বলো।’ হাজি সাহেব বুঝলেন, বলধা গার্ডেন একটা কোড। বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতা ঘোষণার মেসেজ পাঠানো হয়ে গেল। বাংলাদেশ রাষ্ট্রের জন্য ১৯৪৭ থেকে ১৯৭১ সময় পর্ব নানা কারণে গুরুত্বপূর্ণ এবং ইতিহাস বদলে দেওয়া অধ্যায়। স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশের স্বপ্ন ও ফায়সালা এক রকম ১৯৪৭ সালেই তৈরি হয়ে গিয়েছিল। পরে ধাপে ধাপে ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র বালুকণার মতো স্বাধীনতা অর্জনের ভাবনা, পরিকল্পনা, সাহস এবং ব্যাপক আন্দোলনের ধারাবাহিকতা একীভূত হয়ে তৈরি হয়েছে।

এই সময় পর্বে অংশ নিয়ে জীবন বাজি রেখে ঝাঁপিয়ে পড়েছেন স্বাধীনতাকামী বাংলাদেশের অকুতোভয় মানুষেরা। আর এর নেতৃত্ব দিয়েছেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। সাতচল্লিশ থেকে একাত্তর সময়টি কেমন ছিল এবং কিভাবে মুক্তিযুদ্ধের মধ্য দিয়ে স্বাধীন বাংলাদেশ হয়ে উঠল—সেসব ঘটনা ও রক্তের ইতিহাসের ছায়া অবলম্বনে উপন্যাস লিখে চলেছেন কবি ও কথাসাহিত্যিক আনিসুল হক। তাঁর সেই প্রচেষ্টার নবতর সংযোজন এই উপন্যাস ‘এখানে থেমো না’।

৪. উন্মাদ জোকস

লেখক : আহসান হাবীব (কার্টুনিস্ট)

প্রকাশক : উন্মাদ

দাম : ৫৮০ টাকা।

৮১৯ পৃষ্ঠার এই বইয়ের বাছাই করা প্রায় পাঁচ হাজার জোকস সম্পাদনা করেছেন স্বয়ং আহসান হাবীব। পেপার ব্যাক সংস্করণে প্রথমবারের মত সুবৃহৎ এই সংকলন বাংলা ভাষাভাষির জোকসপ্রেমী যে কা কারোরই অবশ্যই সংগ্রহে রাখার মত।

৫. দেহবণ্টনবিষয়ক দ্বিপক্ষীয় চুক্তি স্বাক্ষর

চাবি ছাড়াও মায়ের আঁচলে আমিও তো বাঁধা থাকি

লেখক : মারজুক রাসেল

প্রকাশক : ৫২ (বায়ান্ন)

দাম: ২০০ টাকা।

চিহ্ন রাখে খোঁজ আয়ু কতদূর গেলে অপরাধ গড়পড়তার,

নিয়মিত শেভ— পবিত্র সেলুন,

থলেভর্তি বাজারের পুঁইশাক উঁকি দ্যায়— ‘ভালো আছি,

কাঁটা দিত বুড়ি— ঝাঁট দ্যায় পথ,

এতদিনে সেই প্রান্তবর্তী পথিক পেয়েছি।’

৬. কোডিং ইন্টারভিউ : প্রস্তুতি, সমস্যা ও সমাধান

লেখক : তামিম শাহরিয়ার সুবিন

প্রকাশক : দ্বিমিক প্রকাশনী

দাম : ২৮০ টাকা।

দেশের সব সফটওয়্যার কোম্পানিতে ইন্টারভিউয়ের সময় হয়তো অ্যালগরিদমের ওপর জোর দেওয়া হয় না, কিন্তু শীর্ষস্থানীয় সফটওয়্যার কোম্পানিগুলোতে অ্যালগরিদম-ভিত্তিক প্রশ্নের গুরুত্ব বেশি। কিন্তু অনেক বিশ্ববিদ্যালয়ে অ্যালগরিদম কোর্সে এখনো মূলত জানা অ্যালগরিদম মুখস্থ লিখতে দেওয়া হয়। তাই ভালো সফটওয়্যার কোম্পানিতে (দেশে কিংবা দেশের বাইরে) ইন্টারভিউ দিতে হলে আলাদাভাবে প্রস্তুতি নেওয়া জরুরি। তাদের জন্য এই বইটি যথেষ্ট উপকারে আসবে বলে মনে হয়।

৭. গুল্টু

লেখক: মাহফুজ রহমান

প্রকাশক: ময়ূরপঙ্খি

দাম: ২৫০ টাকা।

গুল্টু’র ছড়াগুলো এমনই যে শিশুরা সেগুলো শুনতে শুনতে করলামাখা ভাতও গপাগপ খেয়ে ফেলবে। বন্ধু ভেবে ছুঁতে চাইবে বইয়ে আঁকা চরিত্রগুলোকে। আর যারা একটু বড়, মানে কিশোরবয়সীরা ছড়াগুলো পড়ে ফেলবে ঝড়ের বেগে।

কারণ, প্রতিটি ছড়াতেই আছে অদ্ভুত একেকটি গল্প। সবচেয়ে বড় কথা, শিশু-কিশোরেরা ছড়াগুলো মুখস্থ করে ফেলবে পরম মমতায়। আর বড়রা? সন্তানদের পড়ে শোনাতে শোনাতে তাঁরাও বইটি ভালোবেসে ফেলবেন; কে না চায় শৈশবে ডুবে যেতে? অভিনব বিষয়আশয়, নিটোল ছন্দের চিরকালীন দোলা আর চোখজুড়ানো সব ছবি নিয়ে ‘গুল্টু’। বইটি শিশু-কিশোরদের ছেলেবেলার সঙ্গী হয়ে উঠবে বলেই আমাদের বিশ্বাস। ‘গুল্টু’র অনিন্দ্য সুন্দর প্রচ্ছদ–অলংকরণ করেছেন লেখক নিজেই।

৮. চরের মাস্টার কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার

লেখক: রাহিতুল ইসলাম

প্রকাশক : আদর্শ

দাম: ২৪০ টাকা।

লেখাপড়া শিখে সবাই শহরমুখী হয়। শহরের সুখ, স্বাচ্ছন্দ্য, আরাম ত্যাগ করে কেই বা পড়ে থাকতে চায় অজপাড়াগায়ে! গ্রাম থেকে বেরিয়ে মেধাবী ছেলেমেয়েরা এভাবেই হয়ে যায় শহরের মানুষ। মাটির সঙ্গে আর তাদের যোগাযোগ থাকে না। তাই গ্রামও উন্নত হয় না।

দিনে দিনে গ্রামগুলো শ্রীহীন হয়ে পড়ে। কিন্তু আমাদের অর্থনীতি এখনও গ্রামনির্ভর। গ্রামকে বাদ দিয়ে বাংলাদেশের সামগ্রিক উন্নয়ন সম্ভব নয়। আমাদের শিক্ষিত জনগোষ্ঠী এসব বোঝে। কিন্তু নিজেদের ক্ষেত্রে কাজে লাগায় না। তথ্যপ্রযুক্তির এই যুগে বিশ্ব এখন এমন এক জায়গায় এসে পৌঁছেছে, যখন গ্রাম ও শহরের ভেদরেখা অনেক অংশেই মুছে দেওয়া সম্ভব।

ইন্টারনেট সংযোগ থাকলে যে কেউ প্রত্যন্ত গ্রামে থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে উন্নত শহরের জন্যও কাজ করতে পারেন। কেউ কেউ তেমনটি করছেনও। সেরকমই একজন শিক্ষিত তরুণের স্বপ্ন ও সংগ্রামের গল্প লেখক রাহিতুল ইসলাম লিখেছেন তাঁর ‘চরের মাস্টার কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার’ উপন্যাসে।

উপন্যাসের প্রধান চরিত্র শফিক। সে একটি নামকরা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে কম্পিউটার সায়েন্সে স্নাকত্তোর সম্পন্ন করেছে। বাবা–মায়ের ইচ্ছা ছিল ছেলে পড়ালেখা শেষ করে শহরে বড় চাকরি করে তাদের মুখ উজ্জ্বল করবে। কিন্তু শফিক ফিরে যেতে চেয়েছে গ্রামে।

যে চরে যাতায়াতেরই কোনো ভালো ব্যবস্থা নেই, সেখানকার মানুষদেরই গড়ে তুলতে চেয়েছেন অত্যাধুনিক ও প্রযুক্তিতে দক্ষ মানুষ হিসেবে। এই কাজে শফিকের অনুপ্রেরণা তার স্কুলের এক স্যার। যিনি তার সারা জীবনের সম্বল দিয়ে গড়ে তুলেছেন একটি স্কুল।

শফিক তার লোভনীয় চাকরি এবং শহর ছেড়ে ভার নিতে চায় সেই স্কুলের। কিন্তু তার এই চেষ্টা কি সফল হবে? একদিকে লোভনীয় চাকরি, খ্যাতির হাতছানি, শহরের চাকচিক্য আর অন্যদিকে চরের ছেলেমেয়েদের জন্য প্রায় শূন্য থেকে কিছু শুরু করা। শফিকের বাবা, মা ও প্রেমিকা প্রত্যেকেই শফিকের সিদ্ধান্তের তীব্র প্রতিক্রিয়া জানায়। সবার আপত্তির মুখে শফিক কি পারবে তার স্বপ্ন পূরণ করতে? না কি মাঝপথে এসে পিছু হটে যাবে? স্বপ্ন আর বাস্তবতার দ্বন্দ্বে এগিয়ে চলে এই উপন্যাস।

রাহিতুল ইসলামের এটি চতুর্থ উপন্যাস। আগের উপন্যাসগুলোর মতো এতেও রয়েছে চমক, বাস্তবতা আর সাহসী মানুষের গল্প। বাস্তবতা কখনো গল্পকেও হার মানায়। এ উপন্যাস বাস্তবের সংগ্রামী মানুষের জন্য হয়ে উঠবে এক অনুপ্রেরণার দলিল। বইটি প্রকাশ করছে আদর্শ। প্রচ্ছদ করেছেন নিয়াজ চৌধুরী তুলি।

৯. ডিগবাজি

হাসতে হাসতে ডিগবাজি খাওয়ার গল্প

লেখক : আদনান মুকিত

প্রকাশক : eআরকি প্রকাশন

দাম: ২৮০ টাকা।

ডিগবাজির ২১টি হাসির গল্প, যা আপনাকে বড়োজোর বিনোদন দিতে পারে। গল্পগুলো বিশ্বের ৫টি ভাষায় অনূদিত হয়েছে--গুগল ট্রান্সলেটরের মাধ্যমে। কোনো গল্পই স্থানীয় বা আন্তর্জাতিক কোনো পুরস্কার পায়নি, ভবিষ্যতে না পাওয়ার কোনো সম্ভাবনাও উড়িয়ে দেওয়া যায় না। সমাজের কঠিন বাস্তবতার নির্মম কষাঘাত, দৈনন্দিন জীবনের টানাপোড়েন এই বইয়ে উঠে আসেনি। মোটিভেশনাল বা শিক্ষামূলক কোনো কিছুও নেই এই বইয়ে। শুধুই হাসির গল্প।

১০. লোকে কী বলবে?

লোকের ১০০ রকম কথা ও তাতে কান না দেয়ার ১০১ পদ্ধতি

লেখক: আয়মান সাদিক , সাকিব বিন রশীদ

প্রকাশক : আদর্শ

দাম : ২৫৫ টাকা।

লোকে কী বলবে" বইটিতে কি কি থাকছে দেখে নেওয়া যাক- সূচিপত্র: » তুমি এত প্রশ্ন করো কেন? » এই পিচ্ছি/ছোটু » A+ তো পাইলা না,এখন কি করবা? » ছোট মুখে এতবড় কথা? » এত ভাব নাও কেন? পড়ো তো প্রাইভেট ভার্সিটিতে » ক্লাব তো করিস প্রেম করার জন্যে » গল্পের বই বাদ দিয়ে পড়ার বই পড়ো » এইসব করে তো ভাত পাবা না » মেয়ে মানুষ এত বেশি কথা। এমন সব বিষয়গুলো বইটিতে উঠে এসেছে।

মেলার পাশাপাশিও বইগুলো অনলাইন বাজার রকমারি, বইবাজারসহ বিভিন্ন সাইটে ডিসকাউন্টে পাওয়া যাবে।

'কোভিড-১৯' সর্বশেষ আপডেট

# আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বাংলাদেশ ৪২৪ ৩৩ ২৭
বিশ্ব ১৬,০৪,৫৩৫ ৩,৫৬,৬৬০ ৯৫,৭৩৪
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত