সংরক্ষিত নারী আসন নিয়ে রিট
jugantor
সংরক্ষিত নারী আসন নিয়ে রিট

  যুগান্তর রিপোর্ট  

২২ জানুয়ারি ২০১৯, ১৪:৩৬:২৬  |  অনলাইন সংস্করণ

জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের পদের সংখ্যা ও মেয়াদ বৃদ্ধি করে আনা সংবিধানের সপ্তদশ সংশোধনীর বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট করা হয়েছে।

মঙ্গলবার জনস্বার্থে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিটটি করেন সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী ড. ইউনুস আলী আকন্দ।

আগামী ২৭ জানুয়ারি বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি আশরাফুল কামালের হাইকোর্ট বেঞ্চে শুনানি হতে পারে বলে জানিয়েছেন রিটকারী ওই আইনজীবী।

রিটে জাতীয় সংসদের স্পিকার, সংসদ সচিব, মন্ত্রিপরিষদ সচিব, আইন মন্ত্রণালয় সচিবকে বিবাদী করা হয়েছে।

রিট আবেদনে বলা হয়েছে, ষোড়শ সংশোধনীর রায়ে আপিল বিভাগ বলেছে, ‘সংসদে এখন আর সংরক্ষিত ৫০টি মহিলা আসনের দরকার নেই। আমাদের দেশে সংসদীয় গণতন্ত্র অপরিপক্ব।’

তা ছাড়া সংবিধানের ১১ ও ৬৫ অনুচ্ছেদে সংসদ সদস্যদের সরাসরি ভোটে নির্বাচিত হওয়ার বিধান রয়েছে। তাই সংবিধানের সপ্তদশ সংশোধনী সংবিধানের ৭, ১৯, ২৬, ২৭, ২৮ ও ৩১ অনুচ্ছেদের সঙ্গেও সাংঘর্ষিক। এ কারণে বিষয়টি চ্যালেঞ্জ করে রিট করা হয়েছে।

সংরক্ষিত নারী আসন নিয়ে রিট

 যুগান্তর রিপোর্ট 
২২ জানুয়ারি ২০১৯, ০২:৩৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের পদের সংখ্যা ও মেয়াদ বৃদ্ধি করে আনা সংবিধানের সপ্তদশ সংশোধনীর বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট করা হয়েছে।  

মঙ্গলবার জনস্বার্থে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিটটি করেন সুপ্রিমকোর্টের আইনজীবী ড. ইউনুস আলী আকন্দ।

আগামী ২৭ জানুয়ারি বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি আশরাফুল কামালের হাইকোর্ট বেঞ্চে শুনানি হতে পারে বলে জানিয়েছেন রিটকারী ওই আইনজীবী।

রিটে জাতীয় সংসদের স্পিকার, সংসদ সচিব, মন্ত্রিপরিষদ সচিব, আইন মন্ত্রণালয় সচিবকে বিবাদী করা হয়েছে।

রিট আবেদনে বলা হয়েছে, ষোড়শ সংশোধনীর রায়ে আপিল বিভাগ বলেছে, ‘সংসদে এখন আর সংরক্ষিত ৫০টি মহিলা আসনের দরকার নেই। আমাদের দেশে সংসদীয় গণতন্ত্র অপরিপক্ব।’ 

তা ছাড়া সংবিধানের ১১ ও ৬৫ অনুচ্ছেদে সংসদ সদস্যদের সরাসরি ভোটে নির্বাচিত হওয়ার বিধান রয়েছে। তাই সংবিধানের সপ্তদশ সংশোধনী সংবিধানের ৭, ১৯, ২৬, ২৭, ২৮ ও ৩১ অনুচ্ছেদের সঙ্গেও সাংঘর্ষিক। এ কারণে বিষয়টি চ্যালেঞ্জ করে রিট করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন