আবরার হত্যা: চার্জ গঠন সংক্রান্ত আদেশ ১৫ সেপ্টেম্বর
jugantor
আবরার হত্যা: চার্জ গঠন সংক্রান্ত আদেশ ১৫ সেপ্টেম্বর

  যুগান্তর রিপোর্ট  

০৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ২০:৪৮:১৭  |  অনলাইন সংস্করণ

আবরার হত্যা: চার্জ গঠন সংক্রান্ত আদেশ ১৫ সেপ্টেম্বর

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় অভিযোগ (চার্জ) গঠন সংক্রান্ত আদেশের জন্য আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

বুধবার ৯ আসামির পক্ষে অব্যাহতির শুনানি শেষে ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামান ওই দিন ঠিক করে দেন।

এদিন কারাগারে থাকা ২২ আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়। এদের মধ্যে ৯ আসামির পক্ষে অব্যাহতির শুনানি করেন তাদের আইনজীবীরা। এর আগে গত ২ সেপ্টেম্বর ১৩ আসামির পক্ষে অব্যাহতির শুনানি করেন তাদের আইনজীবীরা। মামলায় তিন আসামি পলাতক।

এদিন রাষ্ট্রপক্ষে আইনজীবী এহেসানুল হক সামাজী ও মো. আবু আব্দুল্লাহ ভূঞা আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের শুনানি করেন। মামলাটিতে আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের যথেষ্ট উপাদান রয়েছে বলে তারা আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের আবেদন জানান।

আদালত সূত্র জানায়, ১৮ মার্চ ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কেএম ইমরুল কায়েশ এ মামলাটি বদলীর আদেশ দেন। এরও আগে গত ২১ জানুয়ারি এ মামলার চার্জশিট (অভিযোগপত্র) গ্রহণ করেন আদালত। ১৩ নভেম্বর আদালতে এ চার্জশিট দাখিল করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

২৫ জনকে অভিযুক্ত করে এ চার্জশিট দেয়া হয়। এরমধ্যে ১১ আসামি সরাসরি হত্যাকাণ্ডে অংশ নেন। বাকি ১৪ জন বিভিন্নভাবে সম্পৃক্ততার কারণে চার্জশিটে অন্তর্ভুক্ত করা হয়। বর্তমানে এ মামলায় ২৫ জনের মধ্যে তিন আসামি পলাতক রয়েছেন। এরা হলেন- বুয়েট শিক্ষার্থী মোর্শেদুজ্জামান জিসান, এহতেশামুল রাব্বি তানিম ও মোস্তবা রাফিদ। বাকিরা কারাগারে।

মামলার চার্জশিটে বলা হয়, আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে শিবির সন্দেহে বুয়েট ছাত্র আবরারের বিরুদ্ধে মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন অভিযোগ এনে নির্মমভাবে পিটিয়ে তাকে হত্যা করেন। আবরার নিহতের ঘটনায় তার বাবা মো. বরকত উল্লাহ বাদী হয়ে ৭ অক্টোবর রাজধানীর চকবাজার থানায় মামলাটি করেন।

চার্জশিটে অভিযুক্ত ২৫ জনের মধ্যে এজাহারভুক্ত ১৯ জন এবং তদন্তে আগত ৬ জন রয়েছেন। এছাড়া অভিযুক্তদের মধ্যে আটজন আদালতে দোষ স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

আবরার হত্যা: চার্জ গঠন সংক্রান্ত আদেশ ১৫ সেপ্টেম্বর

 যুগান্তর রিপোর্ট 
০৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:৪৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
আবরার হত্যা: চার্জ গঠন সংক্রান্ত আদেশ ১৫ সেপ্টেম্বর
ফাইল ছবি

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদ হত্যা মামলায় অভিযোগ (চার্জ) গঠন সংক্রান্ত আদেশের জন্য আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত। 

বুধবার ৯ আসামির পক্ষে অব্যাহতির শুনানি শেষে ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামান ওই দিন ঠিক করে দেন।

এদিন কারাগারে থাকা ২২ আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়। এদের মধ্যে ৯ আসামির পক্ষে অব্যাহতির শুনানি করেন তাদের আইনজীবীরা। এর আগে গত ২ সেপ্টেম্বর ১৩ আসামির পক্ষে অব্যাহতির শুনানি করেন তাদের আইনজীবীরা। মামলায় তিন আসামি পলাতক।

এদিন রাষ্ট্রপক্ষে আইনজীবী এহেসানুল হক সামাজী ও মো. আবু আব্দুল্লাহ ভূঞা আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের শুনানি করেন। মামলাটিতে আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের যথেষ্ট উপাদান রয়েছে বলে তারা আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জ গঠনের আবেদন জানান।

আদালত সূত্র জানায়, ১৮ মার্চ ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কেএম ইমরুল কায়েশ এ মামলাটি বদলীর আদেশ দেন। এরও আগে গত ২১ জানুয়ারি এ মামলার চার্জশিট (অভিযোগপত্র) গ্রহণ করেন আদালত। ১৩ নভেম্বর আদালতে এ চার্জশিট দাখিল করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। 

২৫ জনকে অভিযুক্ত করে এ চার্জশিট দেয়া হয়। এরমধ্যে ১১ আসামি সরাসরি হত্যাকাণ্ডে অংশ নেন। বাকি ১৪ জন বিভিন্নভাবে সম্পৃক্ততার কারণে চার্জশিটে অন্তর্ভুক্ত করা হয়। বর্তমানে এ মামলায় ২৫ জনের মধ্যে তিন আসামি পলাতক রয়েছেন। এরা হলেন- বুয়েট শিক্ষার্থী মোর্শেদুজ্জামান জিসান, এহতেশামুল রাব্বি তানিম ও মোস্তবা রাফিদ। বাকিরা কারাগারে।

মামলার চার্জশিটে বলা হয়, আসামিরা পরস্পর যোগসাজশে শিবির সন্দেহে বুয়েট ছাত্র আবরারের বিরুদ্ধে মিথ্যা, বানোয়াট, ভিত্তিহীন অভিযোগ এনে নির্মমভাবে পিটিয়ে তাকে হত্যা করেন। আবরার নিহতের ঘটনায় তার বাবা মো. বরকত উল্লাহ বাদী হয়ে ৭ অক্টোবর রাজধানীর চকবাজার থানায় মামলাটি করেন। 

চার্জশিটে অভিযুক্ত ২৫ জনের মধ্যে এজাহারভুক্ত ১৯ জন এবং তদন্তে আগত ৬ জন রয়েছেন। এছাড়া অভিযুক্তদের মধ্যে আটজন আদালতে দোষ স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।
 

 

ঘটনাপ্রবাহ : বুয়েট ছাত্রের রহস্যজনক মৃত্যু

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০