সৌদি আরবের উদ্দেশে দেশ ছাড়লেন ২৫২ প্রবাসী
jugantor
সৌদি আরবের উদ্দেশে দেশ ছাড়লেন ২৫২ প্রবাসী

  যুগান্তর রিপোর্ট  

২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:২৪:২২  |  অনলাইন সংস্করণ

করোনা পরিস্থিতে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর ২৫২ জন প্রবাসীকে নিয়ে সৌদি আরবের উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছে সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট।

মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২টা ৫৭ মিনিটের দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করে ফ্লাইটটি। ফ্লাইটটি সকাল ৭টার দিকে রিয়াদ বিমানবন্দরে ল্যান্ড করবে।

ছুটিতে এসে ১০ মাস ধরে আটকেপড়া বেশ অনেক প্রবাসী রয়েছেন ওই ফ্লাইটে। এদের মধ্যে অনেকেরই ভিসার মেয়াদ শেষের তারিখ ৩০ সেপ্টেম্বর।

যে কারণে গত তিন দিন ধরে টিকিট না পেয়ে রাজধানীতে বিক্ষোভ করেছেন এসবপ্রবাসী।

ওই ফ্লাইটের কয়েকজন যাত্রী জানিয়েছেন, ছুটিতে এসে করোনার কারণে দেশে আটকা পড়েছিলেন তারা। এদিকে তাদের ভিসার মেয়াদ শেষ প্রায়। সৌদি আরবে থাকা বন্ধুদের মাধ্যমে সেখান থেকে টিকিট রি ইস্যু করে নিয়েছেন তারা। করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট করে অবশেষে ফ্লাইট ধরেছেন।

জানা গেছে, আগামী ১ অক্টোবর থেকে বিমান বাংলাদেশে এয়ারলাইন্সকে বাণিজ্যিক ফ্লাইট পরিচালনার সিদ্ধান্ত প্রদান করেছে সৌদি আরব । তবে যাত্রীদের আসন বরাদ্দ শুরু করার আগে সৌদি আরবে ল্যান্ডিং পারমিশন আবশ্যক হলেও সেটির অনুমতি পায়নি বিমান। এ কারণে এখনও টিকিট বিক্রি শুরু করতে পারেনি বিমান।

এ বিষয়ে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ - বেবিচকের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মো. মফিদুর রহমান বলেন, ‘এত দিন সৌদি আরবের সঙ্গে আমাদের আকাশ পথে যোগাযোগ পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন ছিল। সৌদি আরব থেকে ফ্লাইট শুরু করতে আমারা সর্বাত্মক সহযোগিতা করছি। সৌদি আরবে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে কথা বলেছি। বাংলাদেশিদের ফিরে যেতে সাউদিয়া যে কয়টি ফ্লাইটের অনুমোদন চাইবে, আমরা দেব। যেন প্রবাসীরা ফিরে যেতে পারেন। একইসঙ্গে আমাদের বিমান বাংলাদেশও যেন যেতে পারে সেজন্য কাজ করছি।’

সৌদি আরবের উদ্দেশে দেশ ছাড়লেন ২৫২ প্রবাসী

 যুগান্তর রিপোর্ট 
২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:২৪ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

করোনা পরিস্থিতে দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর ২৫২ জন প্রবাসীকে নিয়ে সৌদি আরবের উদ্দেশে ঢাকা ছেড়েছে সৌদি অ্যারাবিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইট। 

মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২টা ৫৭ মিনিটের দিকে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করে ফ্লাইটটি। ফ্লাইটটি সকাল ৭টার দিকে রিয়াদ বিমানবন্দরে ল্যান্ড করবে।

ছুটিতে এসে ১০ মাস ধরে আটকেপড়া বেশ অনেক প্রবাসী রয়েছেন ওই ফ্লাইটে। এদের মধ্যে অনেকেরই ভিসার মেয়াদ শেষের তারিখ ৩০ সেপ্টেম্বর।

যে কারণে গত তিন দিন ধরে টিকিট না পেয়ে রাজধানীতে বিক্ষোভ করেছেন এসব প্রবাসী।

ওই ফ্লাইটের কয়েকজন যাত্রী জানিয়েছেন, ছুটিতে এসে করোনার কারণে দেশে আটকা পড়েছিলেন তারা। এদিকে তাদের ভিসার মেয়াদ শেষ প্রায়। সৌদি আরবে থাকা বন্ধুদের মাধ্যমে সেখান থেকে টিকিট রি ইস্যু করে নিয়েছেন তারা। করোনা নেগেটিভ সার্টিফিকেট করে অবশেষে ফ্লাইট ধরেছেন।

জানা গেছে, আগামী ১ অক্টোবর থেকে বিমান বাংলাদেশে এয়ারলাইন্সকে বাণিজ্যিক ফ্লাইট পরিচালনার সিদ্ধান্ত প্রদান করেছে সৌদি আরব । তবে যাত্রীদের আসন বরাদ্দ শুরু করার আগে সৌদি আরবে ল্যান্ডিং পারমিশন আবশ্যক হলেও সেটির অনুমতি পায়নি বিমান। এ কারণে এখনও টিকিট বিক্রি শুরু করতে পারেনি বিমান।

এ বিষয়ে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ - বেবিচকের চেয়ারম্যান এয়ার ভাইস মার্শাল মো. মফিদুর রহমান বলেন, ‘এত দিন সৌদি আরবের সঙ্গে আমাদের আকাশ পথে যোগাযোগ পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন ছিল। সৌদি আরব থেকে ফ্লাইট শুরু করতে আমারা সর্বাত্মক সহযোগিতা করছি। সৌদি আরবে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে কথা বলেছি। বাংলাদেশিদের ফিরে যেতে সাউদিয়া যে কয়টি ফ্লাইটের অনুমোদন চাইবে, আমরা দেব। যেন প্রবাসীরা ফিরে যেতে পারেন। একইসঙ্গে আমাদের বিমান বাংলাদেশও যেন যেতে পারে সেজন্য কাজ করছি।’