গ্রেফতার হেলেনা জাহাঙ্গীরকে নিয়ে যা বললেন সেফুদা
jugantor
গ্রেফতার হেলেনা জাহাঙ্গীরকে নিয়ে যা বললেন সেফুদা

  যুগান্তর ডেস্ক  

৩১ জুলাই ২০২১, ২৩:২৫:২৮  |  অনলাইন সংস্করণ

আওয়ামী লীগের উপকমিটি থেকে বহিষ্কৃত ও গ্রেফতার হেলেনা জাহাঙ্গীরের সঙ্গে অস্ট্রিয়া প্রবাসী সমালোচিত বাংলাদেশি নাগরিক সেফাত উল্লাহ সেফুদার নিয়মিত যোগাযোগ ও আর্থিক লেনদেন ছিল বলে জানিয়েছে র‌্যাব। সেফুদা তাকে নাতনি হিসেবে সম্বোধন করতেন বলে র‌্যাবকে জানিয়েছেন হেলেনা জাহাঙ্গীর।

শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাবের এই বক্তব্যের পরদিনই বিষয়টি নিয়ে মুখ খুললেন সেফাত উল্লাহ সেফুদা। তিনি বলেছেন, ‘হেলেনা জাহাঙ্গীরের সঙ্গে (আমার) টাকা নয়, হৃদয়ের লেনদেন।’

শনিবার দুপুরে ফেসবুক লাইভে এসে সেফাত উল্লাহ সেফুদা বলেন, র‍্যাব বলেছে আমি নাকি হেলেনা জাহাঙ্গীরের কাছ থেকে টাকা-পয়সা নেই কিংবা সে নাকি আমাকে টাকা-পয়সা দেয়। এরকম কী কী জানি বলেছে। হেলেনা জাহাঙ্গীরের সঙ্গে আমার টাকা-পয়সার লেনদেন নেই। সম্পদের লেনদেন নেই। হৃদয়ের লেনদেন আছে। হেলেনা জাহাঙ্গীর লাস্ট কালকেও আমাকে বলেছে, দাদা আই লাভ ইউ। আমি বলেছি লাভ ইউ টু। কারণ লাভ ইজ পাওয়ার। আপনারা জানেন ভালোবাসা আমার আদর্শ।

এরপরই অবশ্য হেলেনা জাহাঙ্গীরকে তিনে চেনেন না বা চিনতেও চান না বলে জানান সেফুদা।

এরপরই আবার বলেন, ‘অনলাইনে গত প্রায় তিন বছরের কম সময় ধরে আমি তাকে চিনি। মানে আমাকে সে আবিষ্কার করেছে।’

এর আগে শুক্রবার এক ভিডিওতে হেলেনা জাহাঙ্গীরের মুক্তি দাবি করে সেফুদা বলেছিলেন, ‘তার সঙ্গে হেলেনা জাহাঙ্গীরের দেখা হয়নি। তবে টেলিফোনে কথা হতো। হেলেনা জাহাঙ্গীর একজন স্মার্ট নারী, তিনি দুঃসাহসের সঙ্গে কথা বলতেন। অবিলম্বে এবং সম্মানের সঙ্গে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে ছেড়ে দিতে হবে।’

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) রাত ১২টার দিকে গুলশানের ৩৬ নম্বর রোডের ৫ নম্বর বাসায় দীর্ঘ প্রায় চার ঘণ্টা অভিযান শেষে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আটক করে র‌্যাব।

আটকের সময় তার বাসা থেকে বিদেশি মদ, অবৈধ ওয়াকিটকি সেট, চাকু, বৈদেশিক মুদ্রা, ক্যাসিনো সরঞ্জাম ও হরিণের চামড়া উদ্ধার করা হয়। র‌্যাব সদর দপ্তরে নিয়ে যাওয়ার হেলেনা জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতার দেখানো হয়।

এছাড়া হেলেনা জাহাঙ্গীরের মালিকানাধীন আইপি টেলিভিশন জয়যাত্রার কার্যালয়ে অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন সরঞ্জামাদি জব্দ করা হয়।

প্রসঙ্গত, অস্ট্রিয়া প্রবাসী সেফুদা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেশের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিকে নিয়ে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করে সমালোচনায় আসে। তাকে মানসিক ভারসাম্যহীন বলেও মনে করেন অনেকে।

গ্রেফতার হেলেনা জাহাঙ্গীরকে নিয়ে যা বললেন সেফুদা

 যুগান্তর ডেস্ক 
৩১ জুলাই ২০২১, ১১:২৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

আওয়ামী লীগের উপকমিটি থেকে বহিষ্কৃত ও গ্রেফতার হেলেনা জাহাঙ্গীরের সঙ্গে অস্ট্রিয়া প্রবাসী সমালোচিত বাংলাদেশি নাগরিক সেফাত উল্লাহ সেফুদার নিয়মিত যোগাযোগ ও আর্থিক লেনদেন ছিল বলে জানিয়েছে র‌্যাব। সেফুদা তাকে নাতনি হিসেবে সম্বোধন করতেন বলে র‌্যাবকে জানিয়েছেন হেলেনা জাহাঙ্গীর।

শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাবের এই বক্তব্যের পরদিনই বিষয়টি নিয়ে মুখ খুললেন সেফাত উল্লাহ সেফুদা। তিনি বলেছেন, ‘হেলেনা জাহাঙ্গীরের সঙ্গে (আমার) টাকা নয়, হৃদয়ের লেনদেন।’

শনিবার দুপুরে ফেসবুক লাইভে এসে সেফাত উল্লাহ সেফুদা বলেন, র‍্যাব বলেছে আমি নাকি হেলেনা জাহাঙ্গীরের কাছ থেকে টাকা-পয়সা নেই কিংবা সে নাকি আমাকে টাকা-পয়সা দেয়। এরকম কী কী জানি বলেছে। হেলেনা জাহাঙ্গীরের সঙ্গে আমার টাকা-পয়সার লেনদেন নেই। সম্পদের লেনদেন নেই। হৃদয়ের লেনদেন আছে। হেলেনা জাহাঙ্গীর লাস্ট কালকেও আমাকে বলেছে, দাদা আই লাভ ইউ। আমি বলেছি লাভ ইউ টু। কারণ লাভ ইজ পাওয়ার। আপনারা জানেন ভালোবাসা আমার আদর্শ।

এরপরই অবশ্য হেলেনা জাহাঙ্গীরকে তিনে চেনেন না বা চিনতেও চান না বলে জানান সেফুদা।

এরপরই আবার বলেন, ‘অনলাইনে গত প্রায় তিন বছরের কম সময় ধরে আমি তাকে চিনি। মানে আমাকে সে আবিষ্কার করেছে।’

এর আগে শুক্রবার এক ভিডিওতে হেলেনা জাহাঙ্গীরের মুক্তি দাবি করে সেফুদা বলেছিলেন, ‘তার সঙ্গে হেলেনা জাহাঙ্গীরের দেখা হয়নি। তবে টেলিফোনে কথা হতো। হেলেনা জাহাঙ্গীর একজন স্মার্ট নারী, তিনি দুঃসাহসের সঙ্গে কথা বলতেন। অবিলম্বে এবং সম্মানের সঙ্গে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে ছেড়ে দিতে হবে।’

উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার (২৯ জুলাই) রাত ১২টার দিকে গুলশানের ৩৬ নম্বর রোডের ৫ নম্বর বাসায় দীর্ঘ প্রায় চার ঘণ্টা অভিযান শেষে হেলেনা জাহাঙ্গীরকে আটক করে র‌্যাব।

আটকের সময় তার বাসা থেকে বিদেশি মদ, অবৈধ ওয়াকিটকি সেট, চাকু, বৈদেশিক মুদ্রা, ক্যাসিনো সরঞ্জাম ও হরিণের চামড়া উদ্ধার করা হয়। র‌্যাব সদর দপ্তরে নিয়ে যাওয়ার হেলেনা জাহাঙ্গীরকে গ্রেফতার দেখানো হয়।

এছাড়া হেলেনা জাহাঙ্গীরের মালিকানাধীন আইপি টেলিভিশন জয়যাত্রার কার্যালয়ে অভিযান চালিয়ে বিভিন্ন সরঞ্জামাদি জব্দ করা হয়।

প্রসঙ্গত, অস্ট্রিয়া প্রবাসী সেফুদা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেশের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিকে নিয়ে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করে সমালোচনায় আসে। তাকে মানসিক ভারসাম্যহীন বলেও মনে করেন অনেকে।

 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন