'অনেকেই ছাত্রদের শাসন করাকে নেগেটিভভাবে দেখেন'
jugantor
'অনেকেই ছাত্রদের শাসন করাকে নেগেটিভভাবে দেখেন'

  গাজীপুর প্রতিনিধি  

১০ অক্টোবর ২০২১, ২০:১৩:৫২  |  অনলাইন সংস্করণ

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ছাত্রদের এখন আগের মতো শাসন করা যায় না। অনেকেই ছাত্রদের শাসন করাকে নেগেটিভভাবে দেখেন। অনেকে শিক্ষার্থীদের শাসন করলে প্রতিবাদ করেন। অতি আদর সন্তানদের খারাপের দিকে নিয়ে যায়, আবার অতিশাসনেও তারা খারাপের দিকে চলে যায়।

রোববার বিকালে গাজীপুর নগরীর রানী বিলাসমনি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের ভবন নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, মানুষদের গড়ে তোলার দায়িত্বে যারা আছেন তারা হলেন শিক্ষক এবং বাবা-মা। এক্ষেত্রে বাবা-মা একে অপরের পরিপূরক। আমি মনে করি শিক্ষকরা শাসন করবেন এটাই স্বাভাবিক। আদরের পাশাপাশি যতটুকু প্রয়োজন তাদের শাসনও করতে হবে। সোহাগ করেন যিনি, শাসন করেন তিনি- এ মানসিকতা নিয়ে আমাদের কাজ করতে হবে।

এ সময় সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, জেলার শহীদ বরকত স্টেডিয়ামটি আধুনিকায়ন করার বড় অন্তরায় হচ্ছে এটির জমি খাস তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হয়ে রয়েছে। এর জমি যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীনে নয়। আমরা এটিকে ভূমি মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে নামমাত্র মূল্যে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীনে আনতে চাচ্ছি। যখন এ জমি ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীনে নিয়ে নিতে পারব তখনই এর আধুনিকায়নের কাজ শুরু করতে পারব।

গাজীপুরের জেলা প্রশাসক এসএম তরিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) অঞ্জন কুমার সরকার, গাজীপুর সরকারি মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক এবিএম ইসমাইল হোসেন খান, রানী বিলাসমনি সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শাহিনা বেগম, জয়দেবপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক আবুল বাশার প্রমুখ।

'অনেকেই ছাত্রদের শাসন করাকে নেগেটিভভাবে দেখেন'

 গাজীপুর প্রতিনিধি 
১০ অক্টোবর ২০২১, ০৮:১৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, ছাত্রদের এখন আগের মতো শাসন করা যায় না। অনেকেই ছাত্রদের শাসন করাকে নেগেটিভভাবে দেখেন। অনেকে শিক্ষার্থীদের শাসন করলে প্রতিবাদ করেন। অতি আদর সন্তানদের খারাপের দিকে নিয়ে যায়, আবার অতিশাসনেও তারা খারাপের দিকে চলে যায়। 

রোববার বিকালে গাজীপুর নগরীর রানী বিলাসমনি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের ভবন নির্মাণ কাজের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। 

প্রতিমন্ত্রী বলেন, মানুষদের গড়ে তোলার দায়িত্বে যারা আছেন তারা হলেন শিক্ষক এবং বাবা-মা। এক্ষেত্রে বাবা-মা একে অপরের পরিপূরক। আমি মনে করি শিক্ষকরা শাসন করবেন এটাই স্বাভাবিক। আদরের পাশাপাশি যতটুকু প্রয়োজন তাদের শাসনও করতে হবে। সোহাগ করেন যিনি, শাসন করেন তিনি- এ মানসিকতা নিয়ে আমাদের কাজ করতে হবে। 

এ সময় সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে প্রতিমন্ত্রী বলেন, জেলার শহীদ বরকত স্টেডিয়ামটি আধুনিকায়ন করার বড় অন্তরায় হচ্ছে এটির জমি খাস তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হয়ে রয়েছে। এর জমি যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীনে নয়। আমরা এটিকে ভূমি মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে নামমাত্র মূল্যে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীনে আনতে চাচ্ছি। যখন এ জমি ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের অধীনে নিয়ে নিতে পারব তখনই এর আধুনিকায়নের কাজ শুরু করতে পারব। 

গাজীপুরের জেলা প্রশাসক এসএম তরিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন- অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) অঞ্জন কুমার সরকার, গাজীপুর সরকারি মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক এবিএম ইসমাইল হোসেন খান, রানী বিলাসমনি সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শাহিনা বেগম, জয়দেবপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক আবুল বাশার প্রমুখ। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন