করোনা মোকাবেলায় ৩২৯ মিলিয়ন ডলার দিচ্ছে জাপান
jugantor
করোনা মোকাবেলায় ৩২৯ মিলিয়ন ডলার দিচ্ছে জাপান

  যুগান্তর রিপোর্ট  

০৫ আগস্ট ২০২০, ১৭:৫৬:৫৮  |  অনলাইন সংস্করণ

করোনা মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ৩২৯ মিলিয়ন ডলার দিচ্ছে জাপান
ফাইল ছবি

করোনাভাইরাসের অভিঘাত মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ৩২৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার (৩৫ বিলিয়ন জাপানি ইয়েন) আর্থিক সহযোগিতা দিচ্ছে জাপান।

এ সংক্রান্ত একটি বিল জাপানের পার্লামেন্টে অনুমোদন পেয়েছে বলে বুধবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে টেলিফোনে জানিয়েছেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে। 

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বুধবার দুপুর ১টা ৫ মিনিটে শেখ হাসিনার সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেন শিনজো অ্যাবে।  দুই নেতার মধ্যে প্রায় ২৫ মিনিট কথোপকথন হয়।

দুই নেতা টেলিফোনে কুশলাদি বিনিময় করেন এবং দুই দেশের কোভিড-১৯ করোনাভাইরাস পরিস্থিতি সম্পর্কে একে-অপরকে অবহিত করেন।  

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার সরকার করোনা সংক্রমণ মোকাবেলায় এবং এর চিকিৎসা ক্ষেত্রে যেসব উদ্যোগ গ্রহণ করেছে সে সম্পর্কে বিস্তারিত তুলে ধরেন। একপর্যায়ে জাপান সরকার কর্তৃক বাংলাদেশকে কোভিড সংক্রমণ প্রতিরোধক ইকুইপমেন্টস পিপিই, মাস্ক, গাউন, গগলস ইত্যাদি প্রদানের জন্য শিনজো অ্যাবেকে শেখ হাসিনা ধন্যবাদ জানান।

মূল আলোচনায় দুই দেশের দ্বিপাক্ষিক অর্থনৈতিক সম্পর্ক আরও জোরদার করার বিষয়গুলো ওঠে আসে। জাপান সরকারের অর্থায়নে চলমান প্রকল্পগুলোর অগ্রগতি সম্পর্কে দুই নেতা আলোচনা করেন। বাংলাদেশের অবকাঠামো উন্নয়নে আরও জাপানি বিনিয়োগের জন্য শেখ হাসিনা জাপানি প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেন। তিনি চলমান রোহিঙ্গা সংকট সম্পর্কে শিনজো অ্যাবেকে অবহিত করেন এবং এ সংকট উত্তরণে জাপান সরকারের সহযোগিতা কামনা করেন। 

করোনা মোকাবেলায় ৩২৯ মিলিয়ন ডলার দিচ্ছে জাপান

 যুগান্তর রিপোর্ট 
০৫ আগস্ট ২০২০, ০৫:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
করোনা মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ৩২৯ মিলিয়ন ডলার দিচ্ছে জাপান
ফাইল ছবি

করোনাভাইরাসের অভিঘাত মোকাবেলায় বাংলাদেশকে ৩২৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার (৩৫ বিলিয়ন জাপানি ইয়েন) আর্থিক সহযোগিতা দিচ্ছে জাপান।

এ সংক্রান্ত একটি বিল জাপানের পার্লামেন্টে অনুমোদন পেয়েছে বলে বুধবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে টেলিফোনে জানিয়েছেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো অ্যাবে।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বুধবার দুপুর ১টা ৫ মিনিটে শেখ হাসিনার সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেন শিনজো অ্যাবে। দুই নেতার মধ্যে প্রায় ২৫ মিনিট কথোপকথন হয়।

দুই নেতা টেলিফোনে কুশলাদি বিনিময় করেন এবং দুই দেশের কোভিড-১৯ করোনাভাইরাস পরিস্থিতি সম্পর্কে একে-অপরকে অবহিত করেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার সরকার করোনা সংক্রমণ মোকাবেলায় এবং এর চিকিৎসা ক্ষেত্রে যেসব উদ্যোগ গ্রহণ করেছে সে সম্পর্কে বিস্তারিত তুলে ধরেন। একপর্যায়ে জাপান সরকার কর্তৃক বাংলাদেশকে কোভিড সংক্রমণ প্রতিরোধক ইকুইপমেন্টস পিপিই, মাস্ক, গাউন, গগলস ইত্যাদি প্রদানের জন্য শিনজো অ্যাবেকে শেখ হাসিনা ধন্যবাদ জানান।

মূল আলোচনায় দুই দেশের দ্বিপাক্ষিক অর্থনৈতিক সম্পর্ক আরও জোরদার করার বিষয়গুলো ওঠে আসে। জাপান সরকারের অর্থায়নে চলমান প্রকল্পগুলোর অগ্রগতি সম্পর্কে দুই নেতা আলোচনা করেন। বাংলাদেশের অবকাঠামো উন্নয়নে আরও জাপানি বিনিয়োগের জন্য শেখ হাসিনা জাপানি প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ করেন। তিনি চলমান রোহিঙ্গা সংকট সম্পর্কে শিনজো অ্যাবেকে অবহিত করেন এবং এ সংকট উত্তরণে জাপান সরকারের সহযোগিতা কামনা করেন।