কনক সারোয়ার ও দেলোয়ারের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ
jugantor
কনক সারোয়ার ও দেলোয়ারের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

  যুগান্তর প্রতিবেদন  

২৩ নভেম্বর ২০২১, ১৮:৩২:৩৮  |  অনলাইন সংস্করণ

কনক সারোয়ার ও দেলোয়ারের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

রাজধানীর শাহবাগ থানার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় পলাতক আসামি কনক সারোয়ার ও মেজর (অব.) দেলোয়ার হোসেনের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালত এ আদেশ দেন। একইসঙ্গে এ বিষয়ে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ১৩ ডিসেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

এর আগে ৩০ জুন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা শাহবাগ থানার এসআই মোহাম্মদ রাসেল মোল্লা দুই আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় আদালতে চার্জশিট (অভিযোগপত্র) দাখিল করেন।

গত ২ নভেম্বর চার্জশিট আমলে নেন আদালত। একইসঙ্গে পলাতক দুই আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

২০২০ সালের ১১ অক্টোবর মো. জাকির হোসেন বাদী হয়ে শাহবাগ থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে আসামিদের বিরুদ্ধে মামলাটি করেন। মামলার এজাহারে বলা হয়, আসামি কনক সারোয়ার ও মেজর (অব.) দেলোয়ার হোসেন ডিজিটাল মাধ্যম ব্যবহার করে রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক, মিথ্যা, মানহানিকর ও উসকানিমূলক তথ্য প্রচার করেছেন।

কনক সারোয়ার ও দেলোয়ারের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ

 যুগান্তর প্রতিবেদন 
২৩ নভেম্বর ২০২১, ০৬:৩২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
কনক সারোয়ার ও দেলোয়ারের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ
কনক সারোয়ার ও দেলোয়ার। ফাইল ছবি

রাজধানীর শাহবাগ থানার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় পলাতক আসামি কনক সারোয়ার ও মেজর (অব.) দেলোয়ার হোসেনের সম্পত্তি ক্রোকের আদেশ দিয়েছেন আদালত। 

মঙ্গলবার ঢাকার সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক আসসামছ জগলুল হোসেনের আদালত এ আদেশ দেন। একইসঙ্গে এ বিষয়ে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ১৩ ডিসেম্বর দিন ধার্য করেছেন আদালত।

এর আগে ৩০ জুন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা শাহবাগ থানার এসআই মোহাম্মদ রাসেল মোল্লা দুই আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় আদালতে চার্জশিট (অভিযোগপত্র) দাখিল করেন। 

গত ২ নভেম্বর চার্জশিট আমলে নেন আদালত। একইসঙ্গে পলাতক দুই আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়।

২০২০ সালের ১১ অক্টোবর মো. জাকির হোসেন বাদী হয়ে শাহবাগ থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে আসামিদের বিরুদ্ধে মামলাটি করেন। মামলার এজাহারে বলা হয়, আসামি কনক সারোয়ার ও মেজর (অব.) দেলোয়ার হোসেন ডিজিটাল মাধ্যম ব্যবহার করে রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক, মিথ্যা, মানহানিকর ও উসকানিমূলক তথ্য প্রচার করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন