যুগান্তর রিপোর্ট    |    
প্রকাশ : ২৬ মে, ২০১৭ ০০:০০:০০ প্রিন্ট
সাগরে লঘুচাপ বৃষ্টির সম্ভাবনা
কাল থেকে কমবে দাবদাহ
এক সপ্তাহ ধরে চলমান তাপপ্রবাহ কমার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। আবহাওয়া বিভাগ ও বিশেষজ্ঞরা খবর দিয়েছেন, বঙ্গোপসাগরের দক্ষিণ-পূর্ব অংশে ভারতের আন্দামান নিকবর দ্বীপাঞ্চলের দিকে লঘুচাপ তৈরি হয়েছে। এটির প্রভাবে বাংলাদেশেও বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। তবে আজও তাপপ্রবাহ থাকবে। আগামীকাল থেকে তাপমাত্রা কমতে শুরু করবে। রোববার বৃষ্টিপাত হলে তাপমাত্রা আরও নেমে আসবে।
বুয়েটের পানি ও বন্যা ব্যবস্থাপনা ইন্সটিটিউটের অধ্যাপক ড. একেএম সাইফুল ইসলাম যুগান্তরকে বলেন, ‘স্যাটেলাইট পর্যালোচনায় দেখা যাচ্ছে, বঙ্গোপসাগরে আন্দামান-নিকবরের দিকে একটি ডিপ্রেশন (নিন্মচাপ) তৈরি হয়েছে। যদিও এটির রেখা খুবই ছোট। এটির গতি স্থলভাগের দিকে। সে ক্ষেত্রে এটি স্বস্তি নিয়ে আসতে পারে। শুক্রবারও (আজ) তাপমাত্রা থাকবে। শনিবারের দিকে তাপমাত্রা কমতে শুরু করবে। রোববার প্রশান্তিদায়ক পর্যায়ে নামতে পারে।’ ১৭ মে’র পর বাংলাদেশে বৃষ্টিপাত একেবারেই কমে যায়। ১৯ মে থেকে শুরু হয় তাপপ্রবাহ। এর ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবারও প্রায় সারা দেশে মৃদু থেকে মাঝারি আকারের তাপপ্রবাহ বয়ে যায়। এদিন সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে বিএমডির ওয়েবসাইটে দেখা যায়, দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল খুলনায় ৩৭ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। রাজশাহীতে তাপমাত্রা ছিল ৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এতে আরও দেখা যায়, যেসব অঞ্চলে কমবেশি বৃষ্টিপাত হয়েছে, সেসব অঞ্চলেই তাপমাত্রা কম ছিল। এর মধ্যে আছে রংপুর আর ময়মনসিংহ অঞ্চল। বাকি এলাকাগুলোয় তাপমাত্রা বেশি ছিল। এদিন সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে ঢাকায় সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ৩৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। ঢাকা বিভাগে ৬টি এলাকায় তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। এর মধ্যে সর্বনিন্ম তাপমাত্রা ছিল নিকলিতে ৩৩ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। বাকি এলাকাগুলোতে ৩৫ দশমিক ৮ থেকে ৩৬ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়। বিভাগীয় শহরের মধ্যে চট্টগ্রামে ৩৫ দশমিক ২ ডিগ্রি, সিলেটে ৩৪ দশমিক ৮ ডিগ্রি, ময়মনসিংহে ৩৪ দশমিক ৫ ডিগ্রি, রংপুরে ৩৪ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা ছিল।
এদিকে যেসব এলাকায় বৃহস্পতিবার তাপমাত্রা কম ছিল, সেসব এলাকায় বৃষ্টি বা বজ সহ বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস দিয়েছে বিএমডি। পাশাপাশি ওইসব এলাকার নদীবন্দরে ২ নম্বর নৌ হুশিয়ারি সংকেতও দেখাতে বলা হয়েছে। সংস্থাটির একজন ডিউটি অফিসার নাম প্রকাশ না করে বলেন, রাজশাহী, পাবনা, কুষ্টিয়া, বগুড়া, টাঙ্গাইল, ময়মনসিংহ এবং সিলেট অঞ্চলের ওপর দিয়ে পশ্চিম বা উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৬০-৮০ কিলোমিটার বেগে বৃষ্টি বা বজ বৃষ্টিসহ অস্থায়ীভাবে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে।



আরো পড়ুন
  • শীর্ষ খবর
  • সর্বশেষ খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Design and Developed by

© ২০০০-২০১৭ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত