কৃষ্ণকুমার দাস, কলকাতা থেকে    |    
প্রকাশ : ২০ আগস্ট, ২০১৬ ০০:০০:০০ প্রিন্ট
বাংলাদেশের অনলাইনে আপত্তিকর ছবি ও খবর
নালিশ নিয়ে লালবাজারে ‘পাখি’

বাংলাদেশের অনলাইন নিউজ পোর্টালে কলকাতার অভিনেত্রী মধুমিতা চক্রবর্তীকে নিয়ে প্রচারিত খবর ঘিরে বিতর্ক। ভারতীয় চ্যানেল স্টার জলসায় ‘বোঝে না সে বোঝে না’ সিরিয়ালে ‘পাখি’ চরিত্রে অভিনয় করে খুবই খ্যাতি পেয়েছিলেন মধুমিতা। পাখির পোশাক কিশোরী ও তরুণীদের মধ্যে খুবই হিট করেছিল। সেই পাখি ওরফে মধুমিতার অভিযোগ- বেশ কয়েকটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত হয়েছে, তিনি নাকি গোয়ায় দেহব্যবসার সঙ্গে যুক্ত। এ ঘটনা সম্পূর্ণ মিথ্যা এবং তাকে কলংকিত করার চেষ্টা চালানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন মধুমিতা। শুক্রবার সকালে বিষয়টি নিয়ে অভিযোগ জানাতে কলকাতার লালবাজারে পুলিশের সদর দফতরে অভিযোগ জানাতে যান মধুমিতা ও তার স্বামী সৌরভ চক্রবর্তী।

সেখানে ওই অভিনেত্রী জানান, সুপার ইম্পোজ করে তার ছবি বিকৃত করা হয়েছে। মিথ্যা খবর প্রচার করা হয়েছে। এ কাজে যুক্ত তাদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেবেন। লালবাজারে এদিন জয়েন্ট সিপি ক্রাইমের কাছে অভিযোগ জানান মধুমিতা।

পরে জয়েন্ট সিপি (ক্রাইম) জানান, বিষয়টি নিয়ে কলকাতার বাংলাদেশ উপ-দূতাবাসের সঙ্গে কথা বলা হবে এবং অভিযুক্ত ওয়েবসাইটকে আইনি নোটিশ পাঠানো হবে।’

যুগান্তরকে মধুমিতা জানান, ‘আমার নামে ভুয়া ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খোলা হয়েছে। গোয়ার সেক্স কেলেংকারির সঙ্গে আমাকে জড়িয়ে ছবি বিকৃত করে ভুয়া খবর ও গালগপ্পো তৈরি করা হয়েছে। ওই ভুয়া ফেসবুকে নানা অশ্লীল ও নোংরা ছবি আপলোড করা হয়েছে। সেই ছবির সঙ্গে আমাদের কোনো সম্পর্ক নেই। আমি পুলিশকে জানিয়েছি, এ চক্রান্তের সঙ্গে বাংলাদেশের তিনটি ওয়েবপোর্টাল জড়িত।’

স্টার জলসায় ‘বোঝে না সে বোঝে না’ সিরিয়ালে ‘পাখি’ চরিত্রে অভিনয় করে ভারত ও বাংলাদেশে বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছেন মধুমিতা। অভিযোগ সম্প্রতি বাংলাদেশের বেশ কয়েকটি নিউজ পোর্টালে প্রকাশিত হয়, ‘গোয়ায় দেহব্যবসায় জড়িত থাকার অভিযোগে পাখি গ্রেফতার।’ সোশ্যাল মিডিয়াতেও ছড়িয়ে পড়ে সেই খবর। ঘটনাচক্রে সম্প্রতি এক বলিউড অভিনেত্রীকে গোয়া পুলিশ একটি হোটেল থেকে গ্রেফতার করেছিল দেহব্যবসা চালানোর অভিযেগে। ফলে পাখির খবরেও আলোড়ন পড়ে টালিগঞ্জের অন্দরে। লাখো ভক্তের মনে জায়গা করে নেয়া পাখির এমন খবর চতুর্দিকে ভাইরাল হওয়ায় আরও সমস্যায় পড়েন এ অভিনেত্রী। একটি ভিডিওতে দেখানো হয়েছে, গোয়ার এক পাঁচতারা হোটেল থেকে কালো কাপড়ে মুখ ঢাকা অবস্থায় এক যুবতীকে গ্রেফতার করে নিয়ে যাচ্ছে পুলিশ। এ ভিডিও দেখিয়ে বাংলাদেশের একাধিক নিউজ পোর্টালের তরফে দাবি করা হয়, ওই যুবতী মধুমিতা। তা ভাইরাল হতে থাকে। সেই খবর পৌঁছায় টালিগঞ্জের এ অভিনেত্রীর কানেও। তারপরই লালবাজারে অভিযোগ দায়ের করেন তিনি। এদিন সকালে এ অভিযোগ জানানোর পরই তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।



টালিগঞ্জের একাধিক অভিনেত্রী এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন। অভিনেত্রী ইন্দ্রানী হালদার বলেন, ‘আমাদেরও সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারে আরও সতর্ক হতে হবে। এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।’


 


আরো পড়ুন
  • শীর্ষ খবর
  • সর্বশেষ খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Design and Developed by

© ২০০০-২০১৭ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত