যুগান্তর রিপোর্ট    |    
প্রকাশ : ২৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০:০০ প্রিন্ট
১৫ লাখ টন সার ও ক্রুডওয়েল আমদানি করা হবে
ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে সিদ্ধান্ত
আন্তর্জাতিক কোটেশনের মাধ্যমে ১ লাখ টন সার এবং ১৪ লাখ টন ক্রুডওয়েল আমদানি করা হবে। সারের মধ্যে রয়েছে ব্যাগড প্রিল্ড ইউরিয়া ২৫ হাজার টন এবং ব্যাগড গ্রানুলার ৭৫ হাজার টন। সার আমদানিতে ব্যয় হবে প্রায় ২৬০ কোটি টাকা, আর ক্রুডওয়েলের জন্য চার হাজার ৯০১ কোটি ৬ লাখ টাকা। বুধবার ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠকে এসব প্রস্তাবের অনুমোদন দেয়া হয়। ওই বৈঠকে বাংলাদেশ কোস্টগার্ডের জন্য দুটি টাগ বোট ক্রয় প্রস্তাব অনুমোদন দেয়া হয়। এতে ব্যয় ধরা হবে ১৫০ কোটি টাকা। উন্মুক্ত দরপত্র পদ্ধতিতে বোট দুটি সরবরাহ করার দায়িত্ব পেয়েছে খুলনা শিপইয়ার্ড লিমিটেড। সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সম্মেলন কক্ষে কমিটির সভাপতি অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিতের সভাপতিত্বে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এতে কমিটির সদস্য, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সিনিয়র সচিব, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব মোস্তাফিজুর রহমান সাংবাদিকদের জানান, ২৫ হাজার টন প্রিল্ড ইউরিয়া আমদানিতে প্রতি টনের দাম ৩১৯ দশমিক ৫০ ডলার হিসাবে ব্যয় হবে ৬৬ কোটি ২৮ লাখ টাকা। এ সার মোংলা বন্দর দিয়ে সরবরাহ করা হবে। আর দুটি লটে ৭৫ হাজার টন ব্যাগড গ্রানুলার ইউরিয়া আমদানি করা হবে। প্রতি টনের দাম ৩১৯ দশমিক ৫০ ডলার হিসাবে মোট ব্যয় হবে ১৯২ কোটি ৮৫ লাখ টাকা। চট্রুগ্রাম বন্দর দিয়ে এ সার আমদানি করা হবে।



আরো পড়ুন
  • শীর্ষ খবর
  • সর্বশেষ খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Design and Developed by

© ২০০০-২০১৭ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত