jugantor
উৎসবমুখর পরিবেশে শারদীয় দুর্গাপূজা শুরু

  যুগান্তর ডেস্ক  

২০ অক্টোবর ২০১৫, ০০:০০:০০  | 

কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সোমবার সারা দেশে শুরু হয়েছে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। মহা ষষ্ঠীর মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে পূজার আনুষ্ঠানিকতা। এ উপলক্ষে পূজা মণ্ডপগুলো সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। যুগান্তর প্রতিনিধিরা জানান-

শেরপুর : জেলা পূজা উদযাপন পরিষদ কার্যালয়ের সামনে থেকে আগমনী শোভাযাত্রা বের হয়ে শহর প্রদক্ষিণ করা হয়। শোভাযাত্রায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) অঞ্জনকুমার পাল, পুলিশ সুপার মেহেদুর করিম, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ছানুয়ার হোসেন ছানু, পৌর মেয়র হুমায়ুন কবীর রুমান, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি দেবাশীষ ভট্টাচার্য, সাধারণ সম্পাদক কানুচন্দ চন্দ্রসহ শত শত শিশু ও নারী-পুরুষ অংশ নেয়।

ভোলা : ভোলায় ৯৫টি দুর্গা মণ্ডপে ষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠনিকভাবে শারদীয় উৎসব শুরু হয়েছে। একই সঙ্গে বিভিন্ন মণ্ডপে আরতি, নৃত্য ও সঙ্গীত প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এ ছাড়া ওয়ের্স্টানপাড়া পূজা মণ্ডপে সেরা নারী প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে।

জয়পুরহাট : জেলার পাঁচটি উপজেলায় মোট ২৬৫টি মন্দির ও পূজা মণ্ডপে শারদীয় দুর্গোৎসব অনুষ্ঠিত হচ্ছে। পূজা মণ্ডপ এলাকার আইনশৃংখলা পরিস্থিতি সুন্দর ও নিরাপদ রাখতে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ও সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে সংশ্লিষ্ট প্রশাসন।

মাদারীপুর : মাদারীপুরের সাড়ে ৩ শতাধিক পূজা মণ্ডপে সনাতন ধর্মালম্বীদের বড় উৎসব দুর্গাপূজা শুরু হয়েছে। সোমবার সকাল থেকেই বেদ মন্ত্র পাঠ ও ঢাকঢোলের তালে তালে সব মণ্ডপে শুরু হয় দুর্গাপূজা।

দুমকি : মোট ৮টি মন্দির ও মণ্ডপে দুর্গোৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। হরি মন্দির, মুরাদিয়া ইউনিয়নের বোর্ড অফিস বাজারসংলগ্ন দুর্গা মন্দির, ঠাকুরবাড়ি, দক্ষিণ মুরাদিয়ার ভক্তবাড়ি, উত্তর পাঙ্গাশিয়ার শ্রী দুর্গা মন্দির, বাঁশবুনিয়া দুর্গা মন্দিরে ষষ্ঠী পূজা শুরু হয়েছে।

গাইবান্ধা : মন্দির ও মণ্ডপগুলোতে ভক্তদের সমাগম ঘটে। এবারে গাইবান্ধা শহরে পৌর এলাকার ১৯টিসহ জেলায় ৫৫৯টি মন্দির ও মণ্ডপে শারদীয় দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

আগৈলঝাড়া : পাঁচটি ইউনিয়নে মোট ১৪১টি পূজামণ্ডপের জন্য প্রায় ৭০ টন চাল বরাদ্দ দিয়েছে বরিশাল জেলা প্রশাসক। সোমবার সকালে পূজামণ্ডপের জন্য ৫৫ জন পুলিশ ও ৮৮৮ জন আনসারকে পাঁচটি ইউনিয়নের প্রতিটি পূজামণ্ডপে ভাগ করে দেয়া হয়েছে।

গৌরনদী : নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে ও একটি পৌরসভায় ৭৭টি মণ্ডপে শারদীয় দুর্গাপূজা শুরু হয়েছে।

তজুমদ্দিন : ১২টি পূজামণ্ডপে শারদীয় দুর্গোৎসব শুরু হয়েছে। জানা গেছে, শশীগঞ্জ বাজার, অনিলকাকুর বাড়ী, কালিমন্দির, দাশেরহাটসহ ১২টি পূজামণ্ডপে দুর্গোৎসব শুরু হয়েছে।

নালিতাবাড়ী (শেরপুর) : ষষ্ঠী বিল্বর মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে নালিতাবাড়ী উপজেলার খালভাংগা গ্রামের ১২০ বছরের ঐতিহ্যবাহী দুর্গাপূজা। শুধু মংগল ভবনেই নয় উপজেলার ৩২টি পূজামণ্ডপ এখন চন্ডীপাঠ, ঢাক, খোল, করতাল আর উলুধ্বনিতে মুখরিত।

দৌলতখান : ৬টি পূজামণ্ডপে সোমবার ষষ্ঠী তিথিতে দেবীর আবাহনের মধ্য দিয়ে শুরু হল সনাতন ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দুর্গোৎসব। পূজামণ্ডপ ৬টি হল- শ্রীশ্রীমদনমোহন বাউজির মন্দির, সুকদেব পল্লী মদনমোহন মন্দির, বাংলাবাজার শ্রীশ্রীহরিঠাকুর দুর্গা মন্দির প্রভৃতি।



সাবমিট

উৎসবমুখর পরিবেশে শারদীয় দুর্গাপূজা শুরু

 যুগান্তর ডেস্ক 
২০ অক্টোবর ২০১৫, ১২:০০ এএম  | 
কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে সোমবার সারা দেশে শুরু হয়েছে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সর্ববৃহৎ ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। মহা ষষ্ঠীর মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে পূজার আনুষ্ঠানিকতা। এ উপলক্ষে পূজা মণ্ডপগুলো সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। যুগান্তর প্রতিনিধিরা জানান-

শেরপুর : জেলা পূজা উদযাপন পরিষদ কার্যালয়ের সামনে থেকে আগমনী শোভাযাত্রা বের হয়ে শহর প্রদক্ষিণ করা হয়। শোভাযাত্রায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) অঞ্জনকুমার পাল, পুলিশ সুপার মেহেদুর করিম, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ছানুয়ার হোসেন ছানু, পৌর মেয়র হুমায়ুন কবীর রুমান, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি দেবাশীষ ভট্টাচার্য, সাধারণ সম্পাদক কানুচন্দ চন্দ্রসহ শত শত শিশু ও নারী-পুরুষ অংশ নেয়।

ভোলা : ভোলায় ৯৫টি দুর্গা মণ্ডপে ষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠনিকভাবে শারদীয় উৎসব শুরু হয়েছে। একই সঙ্গে বিভিন্ন মণ্ডপে আরতি, নৃত্য ও সঙ্গীত প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। এ ছাড়া ওয়ের্স্টানপাড়া পূজা মণ্ডপে সেরা নারী প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে।

জয়পুরহাট : জেলার পাঁচটি উপজেলায় মোট ২৬৫টি মন্দির ও পূজা মণ্ডপে শারদীয় দুর্গোৎসব অনুষ্ঠিত হচ্ছে। পূজা মণ্ডপ এলাকার আইনশৃংখলা পরিস্থিতি সুন্দর ও নিরাপদ রাখতে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ও সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে সংশ্লিষ্ট প্রশাসন।

মাদারীপুর : মাদারীপুরের সাড়ে ৩ শতাধিক পূজা মণ্ডপে সনাতন ধর্মালম্বীদের বড় উৎসব দুর্গাপূজা শুরু হয়েছে। সোমবার সকাল থেকেই বেদ মন্ত্র পাঠ ও ঢাকঢোলের তালে তালে সব মণ্ডপে শুরু হয় দুর্গাপূজা।

দুমকি : মোট ৮টি মন্দির ও মণ্ডপে দুর্গোৎসবের আয়োজন করা হয়েছে। হরি মন্দির, মুরাদিয়া ইউনিয়নের বোর্ড অফিস বাজারসংলগ্ন দুর্গা মন্দির, ঠাকুরবাড়ি, দক্ষিণ মুরাদিয়ার ভক্তবাড়ি, উত্তর পাঙ্গাশিয়ার শ্রী দুর্গা মন্দির, বাঁশবুনিয়া দুর্গা মন্দিরে ষষ্ঠী পূজা শুরু হয়েছে।

গাইবান্ধা : মন্দির ও মণ্ডপগুলোতে ভক্তদের সমাগম ঘটে। এবারে গাইবান্ধা শহরে পৌর এলাকার ১৯টিসহ জেলায় ৫৫৯টি মন্দির ও মণ্ডপে শারদীয় দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

আগৈলঝাড়া : পাঁচটি ইউনিয়নে মোট ১৪১টি পূজামণ্ডপের জন্য প্রায় ৭০ টন চাল বরাদ্দ দিয়েছে বরিশাল জেলা প্রশাসক। সোমবার সকালে পূজামণ্ডপের জন্য ৫৫ জন পুলিশ ও ৮৮৮ জন আনসারকে পাঁচটি ইউনিয়নের প্রতিটি পূজামণ্ডপে ভাগ করে দেয়া হয়েছে।

গৌরনদী : নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে ও একটি পৌরসভায় ৭৭টি মণ্ডপে শারদীয় দুর্গাপূজা শুরু হয়েছে।

তজুমদ্দিন : ১২টি পূজামণ্ডপে শারদীয় দুর্গোৎসব শুরু হয়েছে। জানা গেছে, শশীগঞ্জ বাজার, অনিলকাকুর বাড়ী, কালিমন্দির, দাশেরহাটসহ ১২টি পূজামণ্ডপে দুর্গোৎসব শুরু হয়েছে।

নালিতাবাড়ী (শেরপুর) : ষষ্ঠী বিল্বর মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে নালিতাবাড়ী উপজেলার খালভাংগা গ্রামের ১২০ বছরের ঐতিহ্যবাহী দুর্গাপূজা। শুধু মংগল ভবনেই নয় উপজেলার ৩২টি পূজামণ্ডপ এখন চন্ডীপাঠ, ঢাক, খোল, করতাল আর উলুধ্বনিতে মুখরিত।

দৌলতখান : ৬টি পূজামণ্ডপে সোমবার ষষ্ঠী তিথিতে দেবীর আবাহনের মধ্য দিয়ে শুরু হল সনাতন ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দুর্গোৎসব। পূজামণ্ডপ ৬টি হল- শ্রীশ্রীমদনমোহন বাউজির মন্দির, সুকদেব পল্লী মদনমোহন মন্দির, বাংলাবাজার শ্রীশ্রীহরিঠাকুর দুর্গা মন্দির প্রভৃতি।



 
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র