¦
দেশ পুড়ছে-প্রধানমন্ত্রী ভায়োলিন বাজাচ্ছেন

ঢাকা ৭ ফেব্রুয়ারি : | প্রকাশ : ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৫

 বিকল্পধারা বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী বলেছেন, বাংলাদেশ পুড়ছে আর প্রধানমন্ত্রী ভায়োলিন বাজাচ্ছেন। দেশ জ্বলবে আর আপনারা ভায়োলিন বাজাবেন-এটা হবে না। দেশ ও জনগণের এ সংকটকালে নিরুর মতো বাঁশি বাজালে চলবে না।

শনিবার মতিঝিলে কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের ১৬তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বদরুদ্দোজা চৌধুরী এ কথা বলেন।
বি চৌধুরী বলেন, ‘সন্তু লারমা কী আগুন লাগায়নি। আপনি কী তার সঙ্গে শান্তির জন্য সংলাপ করেননি। আপনার পিতা কী পাকিস্তানীদের সঙ্গে আলোচনায় বসেননি। আপনি এত সহজে সবকিছু ভুলে গেলেন।
বিকল্পধারার সভাপতি বলেন, সংলাপ তো আপনাকে এক দিন করতেই হবে। এখন প্রশ্ন উঠেছে, আপনি শান্তির পক্ষে না বিপক্ষে। সংলাপ ছাড়া সংকটের কোনো সমাধান অতীতে হয়নি, এবারও হবে না।
সাবেক রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘দেশ আজ মহাসংকটে, প্রায় গৃহযুদ্ধের কাছাকাছি। সবার মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে। ভয় পাই, গৃহযুদ্ধ হলে কই যাব? গোটা শিক্ষা ব্যবস্থা গোল্লায় গেছে। তাই আলোচনার কোনো বিকল্প নেই।
গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, কথা বলতে পারব না, চুপ করে থাকতে হবে।‘এটা কি গণতন্ত্র?  সরকারকে মানসিক বিকারগ্রস্ত আখ্যায়িত করে তিনি বলেন, কার নির্দেশে কাদের সিদ্দিকীর সামিয়ানা তুলে নেওয়া হল? অন্যের ঘরে আগুন দিলে নিজের ঘরেও তাপ লাগবে, শুধু সময়ের অপেক্ষা।
তিনি বলেন, পাড়ায় পাড়ায় শান্তি কমিটি করলেন, বাঁশিতে ফু দিলেন, কি হলো? অচিরেই সুষ্ঠু নির্বাচনের ঘোষণা দিয়ে দেশে শান্তি ফিরিয়ে আনার আহবান জানান।
কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি আব্দুল কাদের সিদ্দিকীর সভাপতিত্বে জনসভায় ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক ফ্রন্টের চেয়ারম্যান শেখ শওকত হোসেন নীলু, সাবেক পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আবুল হাসান চৌধুরী কায়সার, কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান তালুকদার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ইকবাল সিদ্দিকী, সাংগঠনিক সম্পাদক শফিকুল ইসলাম দেলোয়ার, যুব নেতা হাবিব উন নবী সোহেল প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।
 
সর্বশেষ খবর পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close