¦
বিচারকের চাহিদা জানতে এসএমএস

নারায়ণগঞ্জ/ফতুল্লা প্রতিনিধি, ২০ ফেব্রুয়ারি: | প্রকাশ : ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৫

জজ সাহেব আপনার ডিমান্ড (চাহিদা) কত জানাবেন। আমরা নির্দোষ, আমাদের সাজা দেবেন না। বৃহস্পতিবার বিকালে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ থানা এলাকার একটি হত্যা মামলার রায়ে আসামিদের খালাস প্রদানের আহবান জানিয়ে নারায়ণগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ (প্রথম) আদালতের বিচারক মামুনুর রশীদের মুঠোফোনে এই এসএমএস করা হয়েছে।
নারায়ণগঞ্জ আদালতের অতিরিক্ত পিপি আবদুর রহিম এসএমএসের সত্যতা স্বীকার করে জানান, রূপগঞ্জের একটি হত্যা মামলার স্বাক্ষ্য গ্রহণ চলছে। অচিরেই মামলার রায় ঘোষণা করা হবে। এ অবস্থায় বৃহস্পতিবার বিকেলে নারায়ণগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ (প্রথম) আদালতের বিচারক মামুনুর রশীদের মুঠোফোনে একটি এসএমএস পাঠানো হয়। এতে বলা হয় ‘মামলায় আমরা নির্দোষ। আমাদের ফাঁসানো হলে সেটা ভুল করা হবে। রায় পরিবর্তনে আপনার ডিমান্ড কত জানাবেন।
রহিম জানান, ‘এসএমএস কারা পাঠিয়েছে সেটা এখনো নিশ্চিত না। এমনও হতে পারে প্রতিপক্ষের লোকজনও এমন এসএমএস পাঠাতে পারে। বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’
অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পেশকার শফিকুল ইসলাম জানান, রূপগঞ্জের ফারুক হত্যা মামলার কার্যক্রম চলছে। এখন শুধু ময়না তদন্ত প্রস্তুতকারী ডাক্তারের স্বাক্ষ্য বাদ রয়েছে। এটা হলেই রায় ঘোষণা করা হবে। ২০০৯ সালের ২৮ এপ্রিল বিকেলে রূপগঞ্জের চনপাড়া পুনর্বাস কেন্দ্রে থেকে ফারুক হোসেনকে ডেকে নিয়ে হত্যা করা হয়। মামলার আসামিরা বর্তমানে জামিনে রয়েছে। অচিরেই এ রায় ঘোষণা করা হবে।
নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোহাম্মদ জাকারিয়া সাংবাদিকদের জানান, যে মোবাইল নাম্বার থেকে এসএমএস পাঠানো হয়েছে সেটা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।
 

সর্বশেষ খবর পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close