¦
সংঘর্ষে নিহত ১: ভাসানী বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ ঘোষণা

টাঙ্গাইল, ১৩ মে: | প্রকাশ : ১৩ মে ২০১৫

দুই গ্রুপের সংঘর্ষে নিহতের পর টাঙ্গাইলের মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছে কর্তৃপক্ষ। বুধবার সন্ধ্যায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। বৃহস্পতিবার বেলা ১০টার মধ্যে শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।
এর আগে বুধবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ে টাঙ্গাইলের মনির গ্রুপের সঙ্গে সংঘর্ষে ময়মনসিংহের এ এস কে মোশারফ গ্রুপের প্রধান মোশারফ মারা যায়। এ ঘটনায় বাঁধন ও ফয়সাল নামে দুই শিক্ষার্থী আহত হয়।
নিহত এএসকে মোশারফ অপরাধতত্ত্ব ও পুলিশ বিজ্ঞান বিভাগের মাস্টার্স দ্বিতীয় সেমিস্টার  ও ফয়সাল পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের দ্বিতীয় সেমিস্টারের ছাত্র। বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে রাজনীতি নিষিদ্ধ থাকলেও এ এস কে মোশারফ নিজেকে মাভাবিপ্রবি ছাত্রলীগ ইউনিটের সভাপতি বলে পরিচয় দেয়। মনির বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়রিং বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী।
বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. মোহাম্মদ খাদেমুল ইসলাম জানায়, বিশ্ববিদ্যালয়ে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের মধ্যে কয়েকদিন যাবত ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে আসছিল। এক পর্যায়ে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ দুই গ্রুপের সাথে বসে বিষয়টি মিমাংসা করে দেয়। কিন্তু বুধবার হঠাৎ করে এক গ্রুপ অপর আবারো গ্রুপকে হামলা করে। এতে বাধঁন, মোশারফ ও ফয়সাল নামে তিন শিক্ষার্থী আহত হয়। পরে মোশারফ মারা যায়।
টাঙ্গাইল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) প্রাণবন্ধু বিশ্বাস ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন।
ঘটনার পর থেকে পুরো ক্যাম্পাসে উত্তেজনা বিরাজ করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে থাকলেও ফের সংঘর্ষে আশঙ্কায় ক্যাম্পাসে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

সর্বশেষ খবর পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close