¦
শ্বশুর বাড়ি যাওয়ার দিনেই মিললো স্বামীর ঝুলন্ত লাশ

গলাচিপা, ২০ মে: | প্রকাশ : ২০ মে ২০১৫

বিয়ের রেশ না কাটতেই মাত্র এক সপ্তাহে মধ্যে বিধবা হলেন পটুয়াখালীর গলাচিপা উপজেলার গোলখালী ইউনিয়নের চর ভাদাই গ্রামের ছোবাহান মীরের মেয়ে লাকী আক্তারের (২০) আর শ্বশুর বাড়ি যাওয়া হলো না। শ্বশুর বাড়ি যাওয়ার দিনেই মিললো স্বামীর ঝুলন্ত লাশ।
বুধবার ছিল লাকী আক্তারকে স্বামীর বাড়ি তুলে নেয়ার আনুষ্ঠানিক দিন। এ জন্য বরযাত্রীদের আপ্যায়নের জন্য জবাই করা হয় ২টি গরু ও আয়োজন করা করা হয় অন্যান্য ব্যাঞ্জনের। দাওয়াত দেয়া হয় আত্মীয়স্বজন ও গ্রামবাসীদের। কিন্তু বিধিবাম স্বামী মোশারেফ হোসেন (৩৫) মঙ্গলবার রাতের কোন এক সময়ে সকলের অলক্ষ্যে পুকুরপারের একটি রেন্ট্রি গাছের সাথে গলায় রশি দিয়ে আত্মহত্যা করে।
বুধবার ফজরের নামাজ পড়তে মসজিদে যাওয়ার সময় গাছের সাথে মোশারেফের লাশ ঝুঁলতে দেখে বাড়ির অন্যদের ডেকে আনেন। খবর পেয়ে গলাচিপা থানা পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পটুয়াখালী পাঠিয়েছে।
পারিবারিক ও পুলিশ সূত্র জানায়, টাকার অভাবে মোশারেফ আত্মহত্যা করেছে।
গলাচিপা শহরের রং ও হার্ডওয়ার ব্যবসায়ী শুশান্ত দত্ত জানান, গত ১৩ মে বুধবার গলাচিপা পৌর শহরের একটি মসজিদে মোশারেফ ও লাকি আক্তারের এক লাখ টাকা দেনমোহরে বিয়ে হয়। মোশারেফ পেশায় ছিল রং মিস্ত্রি। বেশ হাসিখুশী মেজাজের লোক ছিল মোশারেফ।
গলাচিপা থানার ভারপ্রপ্ত কর্মকর্তা শিশির কুমার পাল জানান, পারিবারিকভাবে টাকার অভাবের জন্য আত্মহত্যার কথা বলা হলেও অন্য কোন বিষয় আছে কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। এদিকে কনের বাড়িতে এ খবর পৌছলে বিয়ের আনন্দের বদলে নেমে আসে শোকের ছায়া।

সর্বশেষ খবর পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close