¦
পুলিশের গুলিতে চিরিরবন্দরে যুবদল কর্মী নিহত

দিনাজপুর প্রতিনিধি | প্রকাশ : ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৫

দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে শুক্রবার দুপুরে নাশকতা মামলার আসামি ধরতে গিয়ে আসামিপক্ষের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়েছে। এ সময় পুলিশের গুলিতে রেজোয়ান নামে কলেজছাত্র ও যুবদল কর্মী নিহত হয়েছে। আহত হয়েছেন ৫ পুলিশ সদস্যসহ ৮ জন।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বেলা সাড়ে ৩টার দিকে চিরির বন্দর উপজেলার তুলশিপুর গ্রামে নাশকতা মামলার আসামি ১০নং পুনট্টি ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ও কৃষকদল নেতা হাবিবুর রহমানকে পুলিশ আটক করে। এ সময় তার ছেলেসহ পরিবারের লোকজন পুলিশের ওপর চড়াও হয়ে হাবিবুরকে ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করলে পুলিশ আত্মরক্ষায় গুলি চালালে হাবিবুরের ছেলে রেজোয়ান ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারায়। আহত হয় রেজোয়ানের ভাই হায়দার, ভাবী আম্বিয়া ও দাদি হনুফা বেগম।
আসামি পক্ষের লোকদের হামলায় আহত হন ৫ পুলিশ সদস্য। তারা হলেন- চিরিরবন্দর থানার উপপরিদর্শক নজরুল ইসলাম ও তিন সহকারী উপপরিদর্শক মোস্তাফিজুর রহমান, রবিউল ইসলাম, হাবিবুল্লাহ ও কনস্টেবল জাহাঙ্গীর। আহতদের দিনাজপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
চিরিরবন্দর থানার ওসি আনিসুর রহমান যুগান্তরকে জানান, অবরোধে গাড়ি পোড়ানো মামলার আসামি পুনট্টি ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হবিবর রহমানকে ধরতে যায় চিরিরবন্দর থানা পুলিশের একটি দল। তুলশিপুর গ্রামে গিয়ে হবিবর রহমানকে আটক করলে তার পরিবারের লোকজন ও আত্মীয়স্বজন দেশী অস্ত্রশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে পুলিশের ওপর হামলা চালায়। এ সময় পুলিশ আত্মরক্ষার্থে ৪ রাউন্ড গুলিবর্ষণ করে। পুলিশের ছোড়া গুলিতে রেজোয়ান নিহত হয়। এ সময় তাদের হামলায় ৫ জন পুলিশ সদস্য আহত হন।
প্রথম পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close