¦

এইমাত্র পাওয়া

  • হালনাগাদ ভোটার তালিকার খসড়া প্রকাশ; নতুন ভোটার ৪৩ লাখ ৬৮ হাজার ৪৭ জন
২০১৫ সালের আলোচিত ৩৫ ঘটনা

শেখ মামুনূর রশীদ ও মাহমুদুল হাসান নয়ন | প্রকাশ : ০২ জানুয়ারি ২০১৬

ইতিহাসের পাতায় স্থান নিল আরও একটি ঘটনাবহুল বছর- ২০১৫ খ্রিস্টাব্দ। বছরটিতে ঘটে যাওয়া অনেক ঘটনা জাতিকে করেছে বিমোহিত। আবার অনেক ঘটনা এনে দিয়েছে দুঃখ-বেদনা। কিছু ঘটনা বিশ্ববাসীর কাছে বাঙালি জাতিকে নতুনভাবে তুলে ধরেছে। আবার কিছু ঘটনা সেই সম্মানকে ম্লান করেছে। স্বাধীনতার সাড়ে চার দশক পর স্বাধীনতার স্বাদ পেয়েছে ‘ছিটমহলবাসী’, ক্রিকেটে ছিল সোনায় মোড়ানো সাফল্য। আবার পৈশাচিকভাবে শিশু হত্যা থেকে শুরু করে বিদেশী ও একের পর এক ব্লগার খুনের ঘটনাও ঘটেছে। সুখ-দুঃখ, আনন্দ-বেদনা সংবলিত গত বছরের সবচেয়ে আলোচিত ৩৫ ঘটনার বর্ণনা তুলে ধরা হল-
ক্রিকেটে সাফল্যের বছর, ফুটবলে হতাশা : বিদায়ী বছরে ঐশ্বর্যমণ্ডিত হয়ে রইল লাল-সবুজের ক্রিকেট। কৌলীন্যে, গরিমায় সব খেলাকে ছাপিয়ে যাওয়া ক্রিকেটে এ বছর ধারাবাহিক সাফল্য পেয়েছে বাংলাদেশ। বিশ্বকাপ কোয়ার্টার ফাইনালে খেলা, নিজেদের আঙিনায় পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশ, ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ওয়ানকে সিরিজ জয়, এত ‘প্রথম’-এর মধ্যেও জ্বলজ্বল করছে উল্কাবেগে মুস্তাফিজুর রহমানের আগমন, আইসিসির ওডিআই বর্ষসেরা খেলোয়াড় হওয়া- এসবই প্রাপ্তির ভাণ্ডার পূর্ণ করেছে কানায় কানায়। বিশ্বকাপে বাংলাদেশের কোনো ব্যাটসম্যানের সেঞ্চুরি না থাকার অপূর্ণতাও ঘুচে গেছে মাহমুদউল্লাহর টানা জোড়া শতকে। ‘ধন-ধান্যে পুষ্পভরা আমাদের এই বসুন্ধরার মতো ক্রিকেটের কল্যাণে বছরটা টইট¤ু^র হয়ে রইল গরিমায়, সাফল্যে। বিপরীতে ফুটবলে সাফ-স্বপ্ন চুরমার হয়েছে পরপর দুটি পরাজয়ে, সাত গোল হজমে। বছরের শেষে মেয়েদের অনূর্ধ্ব-১৪ ফুটবলে হিমালয় জয় খানিকটা প্রলেপ দিয়েছে খরাজর্জর ২০১৫-তে।
বছর শেষে বাড়ল বেতন : বহু আলোচনা ও জল্পনা-কল্পনার পর গত ১৫ ডিসেম্বর সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের নতুন বেতন স্কেলের প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। এতে দুটি গ্রেড স্বয়ংক্রিয়ভাবে পরিবর্তন (উপরের ধাপে যাবে) বিধান রয়েছে- চাকরির বয়স ১০ বছর পূর্ণ হওয়ার পর একটি এবং ১৬ বছরের পর আরেকটি। ৩৪ বছরের পুরনো টাইম স্কেল ও সিলেকশন গ্রেড বাতিল করে বিকল্প হিসেবে এ বিধান রাখা হয়েছে। পে-স্কেলে ২০টি গ্রেড রয়েছে। গ্রেড-১ সচিবের বেতন রাখা হয়েছে ৭৮ হাজার টাকা এবং গ্রেড-২০ এ ৮ হাজার ২৫০ টাকা। টাইম স্কেল ও সিলেকশন গ্রেড বাতিল নিয়ে সারা দেশে শুরু হয় আন্দোলন, যা এখনও অব্যাহত আছে।
মধ্যম আয়ের দেশ বাংলাদেশ : গত ১ জুলাই বাংলাদেশকে নিম্ন আয়ের দেশ থেকে নিুমধ্যম আয়ের দেশের তালিকায় উন্নীত করে বিশ্বব্যাংক। মধ্যম আয়ের দেশগুলোকে দুটি শ্রেণীতে ভাগ করেছে বিশ্বব্যাংক- নিম্নমধ্যম আয়ের দেশ ও উচ্চমধ্যম আয়ের দেশ। বাংলাদেশ এখন বিশ্বে পরিচিত হবে নিুমধ্যম আয়ের দেশ হিসেবে।
বিদেশী খুন : বছরজুড়ে আলোচনায় ছিল তিন বিদেশী খুন। ২৮ সেপ্টেম্বর গুলশানে ইতালির নাগরিক সিজারি তাভেল্লাকে হত্যা করা হয়। এর পাঁচ দিন পর ৩ অক্টোবর রংপুরের কাউনিয়ায় খুন হন জাপানের নাগরিক কুনিও হোশি। বছরের শেষদিকে আলোচনায় আসে উত্তরায় জাপানের নাগরিক হিরোয়ী মিয়েতাকে হত্যা করে লাশ গুমের ঘটনা। তাকে হালিমা খাতুন নাম দিয়ে দাফন করা হয়। এছাড়া দিনাজপুরে ইতালির এক নাগরিককে হত্যার চেষ্টা করা হয়। বাংলাদেশে বিদেশী নাগরিকদের ওপর এ ধরনের হামলার ঘটনা অতীতে দেখা যায়নি।
আলোচনায় শিশু হত্যা : ৩ আগস্ট খুলনার টুটপাড়ায় ১৩ বছরের শিশু রাকিবকে কমপ্রেসার মেশিন দিয়ে মলদ্বারে বাতাস ঢুকিয়ে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। একই দিন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের কম্পাউন্ডে লাগেজের ভেতর ৯ বছর বয়সের এক শিশুর লাশ উদ্ধার করা হয়। তার শরীরে ইস্ত্রির ছ্যাঁকাসহ ৫৭টি আঘাতের চিহ্ন ছিল। এর আগে ২৩ জুলাই মাগুরায় ছাত্রলীগ নেতার গুলিতে মাতৃগর্ভেই গুলিবিদ্ধ হয় এক শিশু। ৮ জুলাই চুরির অপবাদ দিয়ে সিলেটের কুমারগাঁওয়ে শিশু রাজনকে নির্মমভাবে পিটিয়ে হত্যা করা হয়। হত্যাকাণ্ডে ভিডিও ফেসবুকেও আপলোড করে দেয় খুনিরা। ১৩ এপ্রিল রাজধানীর খিলক্ষেতে কবুতর চুরির অপবাদ দিয়ে ১৬ বছরের কিশোর নাজিমকে বর্বর নির্যাতন করে ফেলে দেয়া হয় বালু নদীতে। এ ঘটনার ভিডিওটিও ফেসবুকে আপলোড করে খুনিরা।
ইস্কাটনে জোড়া খুন এমপি-পুত্র রনির : ১৩ এপ্রিল রাতে রাজধানী ইস্কটানে জোড়া খুনের ঘটনা ঘটে। সংরক্ষিত আসনের এমপি ও মহিলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক পিনু খানের ছেলে বখতিয়ার আলম রনি মাদকাসক্ত অবস্থায় গাড়ি থেকে এলোপাতাড়ি গুলি চালালে নিহত হন রিকশাচালক হাকিম ও দৈনিক জনকণ্ঠের সিএনজিচালক ইয়াকুব। ৩০ জুন গ্রেফতার করা হয় রনিকে। তার তিন বন্ধু ও গাড়িচালকসহ ৩৭ জনের সাক্ষ্য অনুযায়ী বখতিয়ার আলম রনিকে প্রধান আসামি করে মামলার চার্জশিট দেয় ডিবি পুলিশ।
তিন যুদ্ধাপরাধীর ফাঁসি : দীর্ঘ আইনি প্রক্রিয়া শেষে গত বছর তিন শীর্ষ যুদ্ধাপরাধীর বিচারের রায় কার্যকর করা হয়। এরা হলেন- বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরী, জামায়াতের সেক্রেটারি জেনারেল আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ, সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল মুহাম্মদ কামারুজ্জামান। এর মধ্যে ১১ এপ্রিল মুহাম্মদ কামারুজ্জামানের এবং ২১ নভেম্বর একই সঙ্গে সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরী ও আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের ফাঁসি কার্যকর করা হয়।
একের পর এক ব্লগার হত্যা : চারজন ব্লগার হত্যার ঘটনা ছিল দেশে-বিদেশে ব্যাপক আলোচিত। ৩১ অক্টোবর শাহবাগ আজিজ সুপার মার্কেটে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে খুন হন প্রকাশক ফয়সাল আরেফীন দীপন। একইদিন লালমাটিয়ায় দুর্বৃত্তদের হামলায় গুরুতর জখম হন প্রকাশক আহমেদুর রশীদ টুটুল, লেখক তারেক রহিম ও সুদীপ কুমার। এর আগে ২৬ ফেব্রুয়ারি রাতে বইমেলা থেকে বেরোনোর পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি মোড়ে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী বিজ্ঞান লেখক অভিজিৎ রায়কে নির্মমভাবে কুপিয়ে হত্যা করে জঙ্গিরা। চাপাতির আঘাতে আহত হন তার স্ত্রী রাফিদা আহমেদ বন্যা। ৩০ মার্চ রাজধানীর তেজগাঁও বেগুনবাড়ীতে খুন হন ব্লগার ওয়াশিকুর রহমান বাবু। ৭ আগস্ট খিলগাঁও গোড়ানের নিজ বাসায় খুন হন নীলাদ্রি চ্যাটার্জি নিলয়। ১২ মে সকালে সিলেটের সুবিদবাজারে দুর্বৃত্তরা কুপিয়ে খুন করে অনন্ত বিজয় দাশকে। বছরের শেষদিন ব্লগার রাজীব হত্যার দায়ে দু’জনকে ফাঁসির দণ্ড দেয়া হয়।
ঐশীর ফাঁসির রায় : বাবা-মাকে হত্যার অপরাধে ঐশী রহমানকে ১২ নভেম্বর ফাঁসির দণ্ড দেয় আদালত। ২০১৩ সালের ১৬ আগস্ট বাবা পুলিশের বিশেষ শাখার (এসবি) পরিদর্শক মাহফুজুর রহমান এবং মা স্বপ্না রহমানকে খুন করে ঐশী। হত্যাকাণ্ডে সহায়তার জন্য ঐশীর বন্ধু দুই বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।
লতিফ সিদ্দিকীর পদত্যাগ : ইসলাম ধর্ম ও হজ নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে দল ও সরকার থেকে বাদ পড়া আবদুল লতিফ সিদ্দিকীর পদত্যাগের বিষয়টিও ছিল আলোচনায়। ১ সেপ্টেম্বর অনেকটা আকস্মিকভাবেই সংসদ অধিবেশনে যোগ দেন টাঙ্গাইল-৪ আসন থেকে নৌকা প্রতীকে নির্বাচিত এ সংসদ সদস্য। অধিবেশনে বক্তৃতা দিয়ে দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চান। এরপরই স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর কাছে পদত্যাগপত্র জমা দেন বিতর্কিত কথাবার্তায় পটু এ রাজনীতিবিদ।
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভ্যাট, আন্দোলনে পিছু হঠল সরকার : ২০১৫-২০১৬ অর্থবছরের বাজেটে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়, মেডিকেল ও ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের টিউশন ফির ওপর সাত শতাংশ ভ্যাট আরোপ করেছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। এ সিদ্ধান্ত মেনে নেয়নি শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা। প্রতিবাদে তারা আন্দোলনে নামেন। আন্দোলনের প্রবল চাপে ১৪ সেপ্টেম্বর ভ্যাট আরোপের সিদ্ধান্ত থেকে পিছু হঠতে বাধ্য হয় সরকার।
ছিটমহল : দীর্ঘ ৬৮ বছরের বঞ্চনার ইতিহাসের সমাপ্তি ঘটে ছিটমহল বিনিময়ের মাধ্যমে। সীমান্ত চুক্তির রূপরেখা অনুযায়ী ৩১ জুলাই মধ্যরাতে ভারতের অভ্যন্তরে বাংলাদেশের ৫১ ও বাংলাদেশের অভ্যন্তরে ভারতের ১১১ ছিটমহল বিনিময় করা হয়। এর মধ্য দিয়ে দুই দেশের সীমান্তে ‘ছিটমহল’ শব্দটির আনুষ্ঠানিক বিলুপ্তি ঘটে। আর বাংলাদেশের স্বাধীনতার সাড়ে চার দশক পর স্বাধীনতার স্বাদ পেল ‘ছিটমহলবাসী’।
অব্যাহতির গুঞ্জন আশরাফকে, অবশেষে দফতর বদল : বছরের মাঝামাঝি সময়ে হঠাৎ করে আলোচনায় আসেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। একনেকের বৈঠকে উপস্থিত না থাকায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষুব্ধ হন তার ওপর। শুরু হয় তাকে অব্যাহিত দেয়ার গুঞ্জন। একসময় সে গুঞ্জন খানিকটা সত্য হয় দফতর বদলের মধ্য দিয়ে। ৯ জুলাই স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় থেকে সরিয়ে দিয়ে সৈয়দ আশরাফকে দফতরবিহীন রাখা হয়। পরে ১৬ জুলাই তাকে জনপ্রশাসনমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়।
পদদলিত হয়ে ২৭ জনের মৃত্যু : জাকাতের কাপড় নিতে গিয়ে পদদলিত হয়ে ২৭ জনের মৃত্যু হয় ময়মনসিংহে। সদর পৌরসভার কাছে নুরানী জর্দা ফ্যাক্টরিতে ১০ জুলাই জাকাতের কাপড় নিতে গিয়ে পদদলিত হয়ে মারা যান তারা। এদের মধ্যে ২১ জন মহিলা ও ৪ জন শিশু।
অনুপ চেটিয়াকে দিয়ে আনা হল নূর হোসেনকে : উত্তর-পূর্ব ভারতের বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন উলফার প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক অনুপ চেটিয়া ও তার দুই সহযোগী লক্ষ্মী প্রসাদ গোম্বামী ও বাবুল শর্মাকে ভারতের কাছে হস্তান্তরের বিষয়টি ছিল আলোচিত ঘটনাগুলোর অন্যতম। ১১ নভেম্বর কঠোর গোপনীয়তায় কাশিমপুর কারাগার থেকে মুক্তির পর তাদের তামাবিল-ডাউকি সীমান্ত দিয়ে ভারতের কাছে হস্তান্তর করা হয়। পরদিন ১২ নভেম্বর নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত খুনের প্রধান আসামি নূর হোসেনকে বাংলাদেশের কাছে হস্তান্তর করে ভারত।
তাজিয়া মিছিলে হামলা : ২৪ অক্টোবর পবিত্র আশুরা উপলক্ষে তাজিয়া মিছিলের প্রস্তুতি চলাকালে পুরান ঢাকার হোসনি দালানে বোমা হামলা চালানো হয়। এতে ঘটনাস্থলেই এক শিশু নিহত হয়। আহত হয় দেড় শতাধিক। ঢাকার ৪শ’ বছরের ইতিহাসে এ ধরনের হামলার ঘটনা কখনও ঘটেনি।
গাইবান্ধায় শিশুর ওপর গুলি, আলোচনায় এমপি লিটন : বিতর্কিত কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে শাসক দল আওয়ামী লীগের একাধিক মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী ও এমপি বছরজুড়েই আলোচনায় ছিলেন। তবে সবাইকে ছাপিয়ে যান গাইবান্ধা-১ আসনের এমপি ও সুন্দরগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন। ২ অক্টোবর জেলার সুন্দরগঞ্জে বামনডাঙ্গা সড়কের ব্র্যাক মোড়ে মাতাল অবস্থায় চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্র শিশু সৌরভের ওপর নির্বিচারে গুলি চালান তিনি। এ নিয়ে সর্বত্র সমালোচনার ঝড় ওঠে। দাবি ওঠে এমপি লিটনকে গ্রেফতারের। অবশেষে ১৪ অক্টোবর তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।
তারেক রহমানের বক্তব্য প্রচারে নিষেধাজ্ঞা : আইনের দৃষ্টিতে ‘পলাতক’ থাকায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বক্তব্য যে কোনো ধরনের (প্রিন্ট, ইলেকট্রনিক ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম) মিডিয়ায় প্রচার ও প্রকাশ বন্ধের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। এক রিট আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে গত বছরের ৭ জানুয়ারি এ নিষেধাজ্ঞার আদেশ দেন আদালত। তথ্য সচিব ও স্বরাষ্ট্র সচিবকে এ আদেশ বাস্তবায়ন করতে বলা হয়।
নিখোঁজ সালাহউদ্দিন ৬২ দিন পর শিলংয়ে : বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহউদ্দিন আহমেদ ৬২ দিন নিখোঁজ থাকার পর ভারতের মেঘালয়ের শিলং থেকে উদ্ধার হন। তাকে মেঘালয় ইন্সটিটিউট অব মেন্টাল হেলথ অ্যান্ড নিউরোসায়েন্স (মিমহান্স) হসপিটালের সামনে পাওয়া যায়। বর্তমানে তিনি আদালত থেকে শর্তসাপেক্ষে জামিন নিয়ে সেখানেই অবস্থান করছেন। ১০ মার্চ সালাহউদ্দিনকে উত্তরার একটি বাসা থেকে গোয়েন্দা পুলিশ পরিচয়ে তুলে নিয়ে যাওয়া হয় বলে পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়।
কোকোর মৃত্যু, সমবেদনা জানাতে গিয়ে ব্যর্থ হয়ে ফিরে আসেন শেখ হাসিনা : বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার কনিষ্ঠ পুত্র আরাফাত রহমান কোকো হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ২৪ জানুয়ারি মালয়েশিয়ায় মারা যান। ছেলের মৃত্যুর খবরে অসুস্থ হয়ে পড়েন বিএনপি চেয়ারপারসন। পুত্র শোকে কাতর গুলশান কার্যালয়ে অবরুদ্ধ খালেদা জিয়াকে শোক জানাতে গিয়ে সাক্ষাৎ না পেয়ে ফিরে যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
অবরোধ ও অকার্যকর আন্দোলনে বছর পার : বিদায়ী বছরের শুরুতেই ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রতিবাদে আন্দোলনে নেমে গুলশানে নিজ কার্যালয়ে আটকা পড়েন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। কার্যালয়ে ‘অবরুদ্ধ’ থাকা অবস্থায় অনির্দিষ্টকালের অবরোধের ডাক দেন তিনি। প্রথম তিন মাস কার্যকরভাবেই চলে অবরোধ। এরপর থেকে কোনো কার্যকারিতা না থাকলেও আনুষ্ঠানিকভাবে এখনও অবরোধ তুলে নেয়া হয়নি।
৯২ দিন পর খালেদা জিয়ার বাসায় ফেরা : ৪ এপ্রিল ৯২ দিন পর বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের তালা খুলে দেয়া হয়। দীর্ঘ সময় পর নেতাকর্মীদের পদচারণায় মুখর হয়ে ওঠে কার্যালয় প্রাঙ্গণ। ৫ এপ্রিল ৯২ দিন পর আদালত হয়ে বাসায় ফেরেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া।
পিন্টুর মৃত্যু : বিএনপি নেতা ও ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি নাসির উদ্দিন আহমেদ পিন্টু গত বছর ৩ মে কারা রাজশাহী কারাগারে মারা যান। তিনি ২০০৯ সালে বহুল আলোচিত পিলখানা হত্যা মামলায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত বন্দি ছিলেন। পিলখানা হত্যা মামলায় ২০০৯ সালের ২ জুন পিন্টুকে গ্রেফতার করে গোয়েন্দা পুলিশ।
শমসের মবিনের সরে যাওয়া : ২৯ অক্টোবর বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শমসের মবিন চৌধুরী হঠাৎ করেই সব রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেন। এছাড়া ১৫ নভেম্বর দলটির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও ফরিদপুর জেলা বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি এমএম শাহরিয়ার রুমী বিএনপির সব পদ থেকে ইস্তফা দেন।
ফেসবুকবিহীন ২২ দিন : টানা ২২ দিন ফেসবুকহীন কেটেছে বিদায়ী বছরে। শুধু ফেসবুকই নয়, বন্ধ থেকেছে হোয়াটসঅ্যাপ, ভাইবার, ট্যাঙ্গো, লাইন, হ্যাং-আউটস, স্কাইপ, টুইটার, ইমোর মতো সেবাও। ১৮ নভেম্বর এসব বন্ধ করে দেয়া হয়। ব্যাপক সমালোচনার মুখে ১০ ডিসেম্বর সব খুলে দেয় সরকার।
পদ্মায় লঞ্চডুবি, ৭৯ জনের লাশ উদ্ধার : গেল বছরের ২২ ফেব্রুয়ারি পদ্মায় লঞ্চডুবিতে ৭৯ জনের মৃত্যু হয়। পাটুরিয়া থেকে ছেড়ে যাওয়া একটি সারবাহী কার্গোর ধাক্কায় এমভি মোস্তফা নামের লঞ্চটি ডুবে যায়। ২০১৪ সালের ৪ আগস্ট পিনাক-৬ লঞ্চডুবির পর এটিই ছিল সবচেয়ে বড় নৌদুর্ঘটনা।
মাহমুদুর রহমান মান্নার কথোপকথন ফাঁস : ২২ ফেব্রুয়ারি ডাকসুর সাবেক ভিপি ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নার ‘জেনারেলদের সঙ্গে বৈঠকে আগ্রহী মান্না’ এবং ‘বিশ্ববিদ্যালয়ে লাশ চান মান্না’ শিরোনামে দুটি অডিও ফাঁস হয়। ২৪ ফেব্র“য়ারি মান্নাকে গ্রেফতার করা হয়।
আম্পায়ারের বিতর্কিত সিদ্ধান্তে কোটি হৃদয়ে রক্তক্ষরণ : বিশ্বকাপ ক্রিকেটে ১৯ মার্চ ভারতের সঙ্গে কোয়ার্টার ফাইনালে খেলে বাংলাদেশ। ওই ম্যাচে একের পর এক বিতর্কিত সিদ্ধান্ত দেন আম্পায়ার ইয়ান গোল্ড ও আলিমদার। ওই খেলাকে প্রহসন উল্লেখ করে ক্ষোভে ফেটে পড়ে পুরো দেশ। হারেনি টাইগাররা, হারল ক্রিকেট- এটাই ছিল ১৬ কোটি বাঙালির বক্তব্য। পরবর্তীকালে বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়নদের হাতে আইসিসি সভাপতি আহম মোস্তফা কামালকে গঠনতন্ত্র লংঘন করে ট্রফি দিতে না দেয়ার বিষয়টিও খুব বিতর্কিত হয়।
বর্ষবরণে টিএসসিতে যৌন হয়রানি : ১৪ এপ্রিল বাংলা নববর্ষ বরণ অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসিতে যৌন নিপীড়নের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় দেশব্যাপী তোলপাড় শুরু হয়। ওইদিন ছয় নারী বিবস্ত্র এবং ২০ জন শ্লীলতাহানির শিকার হন বলে অভিযোগ ওঠে। বছর শেষে পুলিশের জমা দেয়া প্রতিবেদনে অপরাধীদের শনাক্ত করতে না পারার বিষয়টিও খুব বিতর্কিত হয়।
রামপুরায় ঘর দেবে ১২ জনের প্রাণহানি : ১৫ এপ্রিল রাজধানীর রামপুরায় একটি দোতলা টিনশেড ঘর দেবে গিয়ে প্রাণ হারান একই পরিবারের ৩ জনসহ কমপক্ষে ১২ জন। ঝিলের ওপর অবৈধভাবে গড়ে তোলা হয়েছিল এই দোতলা টিনের ঘরটি।
গ্রেনেড ফাটিয়ে ব্যাংক ডাকাতি, ৮ জনের মৃত্যু : ২১ এপ্রিল ঢাকার উপকণ্ঠে আশুলিয়ায় বাংলাদেশ কমার্স ব্যাংকের একটি শাখায় গ্রেনেড ফাটিয়ে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। এতে ওই ব্যাংকের ব্যবস্থাপকসহ ৮ জন নিহত হন। ডাকাত দলের এক সদস্য গণপিটুনিতে নিহত হয়। অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে চাবি চাইলেও তা দেননি ব্যবস্থাপক ওয়ালিউল্লাহ। দেশজুড়ে তার পেশাদারিত্বের বিষয়টি আলোচিত হয়।
তিন সিটি নির্বাচনে জালিয়াতির মহোৎসব : ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ব্যাপক ভোট জালিয়াতির ঘটনা ঘটে। সকালেই কেন্দ্র দখল করে নেয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। নির্বাচন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা এবং আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের সামনেই তারা ছিনিয়ে নেয় ব্যালট পেপার ও ব্যালট বাক্স। চলে জাল ভোটের মহোৎসব ও নজিরবিহীন কারচুপি। দুপুরের পর বিএনপি নির্বাচন বর্জন করে।
ঢাকায় চলন্ত মাইক্রোবাসে গারো তরুণীকে গণধর্ষণ : ২২ মে রাজধানীর ভাটারা থানার কুড়িল বিশ্বরোড এলাকায় কর্মস্থল থেকে বাড়ি ফেরার পথে গণধর্ষণের শিকার হন ২২ বছর বয়সী এক গারো তরুণী। বর্ষবরণ অনুষ্ঠানে যৌন হয়রানির ঘটনার পর ওই ঘটনায় দেশব্যাপী তোলপাড় হয়।
মোদির ঢাকা সফর : ৬ জুন দুই দিনের জন্য প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ সফরে আসেন ভারতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সফরকালে ১৯টি চুক্তি সই হয়। বহুল প্রত্যাশিত তিস্তা পানি চুক্তির বিষয়ে আশ্বাস দেন মোদি। কলকাতা-ঢাকা-আগরতলা বাস সার্ভিস এবং ঢাকা-শিলং-গৌহাটি বাস সার্ভিসের উদ্বোধন করেন মোদি। সফরটি উভয় দেশের জন্য রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিকভাবে ছিল অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ।
বিজিবি কর্মকর্তা হাতকড়াসহ ছবি প্রকাশ : ১৭ জুন কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের জাদিমোরার নাফ নদী সংলগ্ন সীমান্ত থেকে টহলরত বিজিবি দলের ওপর গুলি করে নায়েক আবদুর রাজ্জাককে ধরে নিয়ে যায় মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনী-বিজিপি। তাকে সেখানে হাতকড়া পরিয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় বেঁধে রাখার ছবি ফেসবুক ও গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়। দেশে-বিদেশে ওই ঘটনা নিয়ে ব্যাপক সমালোচনা হয়।
প্রথম পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close