jugantor
শেয়ারবাজারে আরও দরপতন

  যুগান্তর রিপোর্ট  

১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ০০:০০:০০  | 

শেয়ারবাজারে আরও দরপতন হয়েছে। বুধবারও দেশের দুই শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) মূল্যসূচক ও বাজার মূলধন কমেছে। এরমধ্যে ডিএসইর সূচক কমেছে ৬ পয়েন্ট এবং সিএসইর সূচক কমেছে ২৫ পয়েন্ট। এছাড়া উভয় শেয়ারবাজারেই বুধবার লেনদেনও কমেছে।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে- ডিএসইতে বুধবার ৩২১টি প্রতিষ্ঠানের ৯ কোটি ৬০ লাখ শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যার মোট মূল্য ৩৮১ কোটি ৪১ লাখ টাকা। আগের দিনের চেয়ে যা ১৬ কোটি ৬৬ লাখ টাকা কম। ডিএসইর ব্রডসূচক আগের দিনের চেয়ে ৬ পয়েন্ট কমে ৪ হাজার ৫৮৭ পয়েন্টে নেমে এসেছে। এরমধ্যে দাম বেড়েছে ১৩০টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের, কমেছে ১৪৪টি এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৭টি কোম্পানির শেয়ারের দাম। ডিএস-৩০ মূল্যসূচক ৫ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৭৪৩ পয়েন্টে নেমে এসেছে। ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক ১ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ১০৪ পয়েন্টে নেমে এসেছে। ডিএসইর বাজার মূলধন আগের দিনের চেয়ে কমে ৩ লাখ ১৪ হাজার কোটি টাকায় নেমে এসেছে।

সিএসই : চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে বুধবার ২৫৫টি প্রতিষ্ঠানের ৯১ লাখ ৪৬ হাজার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যার মোট মূল্য ২৭ কোটি ১৮ লাখ টাকা। আগের দিনের চেয়ে যা ৩ কোটি টাকা কম। এর মধ্যে দাম বেড়েছে ৯৭টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের, কমেছে ১১৭টি এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪১টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম। সিএসইর সার্বিক মূল্যসূচক আগের দিনের চেয়ে ২৫ পয়েন্ট কমে ১৩ হাজার ৯৯৯ পয়েন্টে উন্নীত হয়েছে। সিএসইর বাজার মূলধন আগের দিনের চেয়ে কমে ২ লাখ ৪৯ হাজার কোটি টাকায় নেমে এসেছে।

শীর্ষ দশ কোম্পানি : বুধবার ডিএসইতে যেসব প্রতিষ্ঠানের শেয়ার বেশি লেনদেন হয়েছে সেগুলো হল- আফতাব অটো মোবাইল, বেক্সিমকো ফার্মা, স্কয়ার ফার্মা, কাশেম ড্রাইসেল, ডেল্টা লাইফ, বিএসআরএম স্টিল, ইউনাইটেড পাওয়ার, কেডিএস এক্সেসরিজ, এমআই সিমেন্ট এবং শাশা ডেনিমস। ডিএসইতে বুধবার যেসব প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম বেশি বেড়েছে সেগুলো হল- এপেক্স ট্যানারি, ঢাকা ডাইং, এপেক্স স্পিনিং, এক্সিম প্রথম মিউচুয়াল ফান্ড, মিরাকল ইন্ডাস্ট্রিজ, লিগেসি ফুটওয়ার, ইসলামী ইন্স্যুরেন্স, জেমিনি সী ফুড, এপেক্স ফুড এবং প্রগতি ইন্স্যুরেন্স।



সাবমিট

শেয়ারবাজারে আরও দরপতন

 যুগান্তর রিপোর্ট 
১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ১২:০০ এএম  | 
শেয়ারবাজারে আরও দরপতন হয়েছে। বুধবারও দেশের দুই শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) মূল্যসূচক ও বাজার মূলধন কমেছে। এরমধ্যে ডিএসইর সূচক কমেছে ৬ পয়েন্ট এবং সিএসইর সূচক কমেছে ২৫ পয়েন্ট। এছাড়া উভয় শেয়ারবাজারেই বুধবার লেনদেনও কমেছে।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে- ডিএসইতে বুধবার ৩২১টি প্রতিষ্ঠানের ৯ কোটি ৬০ লাখ শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যার মোট মূল্য ৩৮১ কোটি ৪১ লাখ টাকা। আগের দিনের চেয়ে যা ১৬ কোটি ৬৬ লাখ টাকা কম। ডিএসইর ব্রডসূচক আগের দিনের চেয়ে ৬ পয়েন্ট কমে ৪ হাজার ৫৮৭ পয়েন্টে নেমে এসেছে। এরমধ্যে দাম বেড়েছে ১৩০টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের, কমেছে ১৪৪টি এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৭টি কোম্পানির শেয়ারের দাম। ডিএস-৩০ মূল্যসূচক ৫ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৭৪৩ পয়েন্টে নেমে এসেছে। ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক ১ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ১০৪ পয়েন্টে নেমে এসেছে। ডিএসইর বাজার মূলধন আগের দিনের চেয়ে কমে ৩ লাখ ১৪ হাজার কোটি টাকায় নেমে এসেছে।

সিএসই : চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে বুধবার ২৫৫টি প্রতিষ্ঠানের ৯১ লাখ ৪৬ হাজার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যার মোট মূল্য ২৭ কোটি ১৮ লাখ টাকা। আগের দিনের চেয়ে যা ৩ কোটি টাকা কম। এর মধ্যে দাম বেড়েছে ৯৭টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের, কমেছে ১১৭টি এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪১টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম। সিএসইর সার্বিক মূল্যসূচক আগের দিনের চেয়ে ২৫ পয়েন্ট কমে ১৩ হাজার ৯৯৯ পয়েন্টে উন্নীত হয়েছে। সিএসইর বাজার মূলধন আগের দিনের চেয়ে কমে ২ লাখ ৪৯ হাজার কোটি টাকায় নেমে এসেছে।

শীর্ষ দশ কোম্পানি : বুধবার ডিএসইতে যেসব প্রতিষ্ঠানের শেয়ার বেশি লেনদেন হয়েছে সেগুলো হল- আফতাব অটো মোবাইল, বেক্সিমকো ফার্মা, স্কয়ার ফার্মা, কাশেম ড্রাইসেল, ডেল্টা লাইফ, বিএসআরএম স্টিল, ইউনাইটেড পাওয়ার, কেডিএস এক্সেসরিজ, এমআই সিমেন্ট এবং শাশা ডেনিমস। ডিএসইতে বুধবার যেসব প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম বেশি বেড়েছে সেগুলো হল- এপেক্স ট্যানারি, ঢাকা ডাইং, এপেক্স স্পিনিং, এক্সিম প্রথম মিউচুয়াল ফান্ড, মিরাকল ইন্ডাস্ট্রিজ, লিগেসি ফুটওয়ার, ইসলামী ইন্স্যুরেন্স, জেমিনি সী ফুড, এপেক্স ফুড এবং প্রগতি ইন্স্যুরেন্স।



 
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র