jugantor
চট্টগ্রামে ১০ পৌরসভা
১৩ আপিল আবেদনের সব ক’টি খারিজ

  চট্টগ্রাম ব্যুরো  

১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ০০:০০:০০  | 

চট্টগ্রামের ১০ পৌরসভা নির্বাচনে প্রার্থীদের করা ১৩ আপিল আবেদনের সব ক’টি খারিজ করে দেয়া হয়েছে। চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন সংশ্লিষ্ট প্রার্থী ও তাদের প্রতিনিধির উপস্থিতিতে শুনানি শেষে আপিল আবেদনগুলো গ্রহণযোগ্য না হওয়ায় খারিজ করে দেন। এর মধ্যে ৭টি আবেদন ছিল দুই মেয়র প্রার্থীর প্রার্থিতা চ্যালেঞ্জ করে। অন্যদিকে যাচাই-বাছাইয়ে বাদ পড়া ৬ প্রার্থী তাদের প্রার্থিতা ফিরে পেতে আপিল করেছিলেন জেলা প্রশাসকের কাছে। বুধবার দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলা প্রশাসন কার্যালয়ে এ শুনানি অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, যাচাই-বাছাইয়ে ঝরে পড়াদের মধ্যে সর্বমোট ১৭ জন প্রার্থী তাদের প্রার্থিতা ফিরে পেতে এবং প্রার্থিতা চ্যালেঞ্জ করে আপিল করেন। এদের মধ্যে ৪ জনের শুনানি মঙ্গলবার শেষ হয়েছে। বাকি ১৩টির মধ্যে রাউজানের দেবাশীষ পালিতের বিরুদ্ধে মেয়র প্রার্থিতার চ্যালেঞ্জ করে চারটি আবেদন করেছিলেন তার প্রতিদ্বন্দ্বী আরেক প্রার্থী। পটিয়া উপজেলার বিএনপির মেয়র প্রার্থী তৌহিদুল আলমের বিরুদ্ধে প্রার্থিতা চ্যালেঞ্জ করে দুটি আবেদন করেন তারই প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী হারুনুর রশিদ। এই সাতটি আবেদন শুনানি শেষে জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন খারিজ করে দেন। অন্যদিকে প্রার্থিতা ফিরে পেতে ছয়টি আবেদন করেন সাধারণ কাউন্সিলর ও মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থীরা। শুনানি শেষে এই ছয়টি আবেদনও খারিজ করে দেন জেলা প্রশাসক। তবে আপিল আবেদন খারিজ হওয়ায় কেউ কেউ এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যাওয়ার কথা জানিয়েছে।



সাবমিট
চট্টগ্রামে ১০ পৌরসভা

১৩ আপিল আবেদনের সব ক’টি খারিজ

 চট্টগ্রাম ব্যুরো 
১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ১২:০০ এএম  | 
চট্টগ্রামের ১০ পৌরসভা নির্বাচনে প্রার্থীদের করা ১৩ আপিল আবেদনের সব ক’টি খারিজ করে দেয়া হয়েছে। চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন সংশ্লিষ্ট প্রার্থী ও তাদের প্রতিনিধির উপস্থিতিতে শুনানি শেষে আপিল আবেদনগুলো গ্রহণযোগ্য না হওয়ায় খারিজ করে দেন। এর মধ্যে ৭টি আবেদন ছিল দুই মেয়র প্রার্থীর প্রার্থিতা চ্যালেঞ্জ করে। অন্যদিকে যাচাই-বাছাইয়ে বাদ পড়া ৬ প্রার্থী তাদের প্রার্থিতা ফিরে পেতে আপিল করেছিলেন জেলা প্রশাসকের কাছে। বুধবার দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলা প্রশাসন কার্যালয়ে এ শুনানি অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, যাচাই-বাছাইয়ে ঝরে পড়াদের মধ্যে সর্বমোট ১৭ জন প্রার্থী তাদের প্রার্থিতা ফিরে পেতে এবং প্রার্থিতা চ্যালেঞ্জ করে আপিল করেন। এদের মধ্যে ৪ জনের শুনানি মঙ্গলবার শেষ হয়েছে। বাকি ১৩টির মধ্যে রাউজানের দেবাশীষ পালিতের বিরুদ্ধে মেয়র প্রার্থিতার চ্যালেঞ্জ করে চারটি আবেদন করেছিলেন তার প্রতিদ্বন্দ্বী আরেক প্রার্থী। পটিয়া উপজেলার বিএনপির মেয়র প্রার্থী তৌহিদুল আলমের বিরুদ্ধে প্রার্থিতা চ্যালেঞ্জ করে দুটি আবেদন করেন তারই প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী হারুনুর রশিদ। এই সাতটি আবেদন শুনানি শেষে জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন খারিজ করে দেন। অন্যদিকে প্রার্থিতা ফিরে পেতে ছয়টি আবেদন করেন সাধারণ কাউন্সিলর ও মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থীরা। শুনানি শেষে এই ছয়টি আবেদনও খারিজ করে দেন জেলা প্রশাসক। তবে আপিল আবেদন খারিজ হওয়ায় কেউ কেউ এর বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যাওয়ার কথা জানিয়েছে।



 
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র