jugantor
নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে রোকেয়া দিবস পালিত

  যুগান্তর রিপোর্ট  

১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ০০:০০:০০  | 

নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে বেগম রোকেয়া দিবস-২০১৫ পালিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে বুধবার সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রোকেয়া হলের ভাস্কর্যের বেদিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করে বিভিন্ন সংগঠন। এছাড়া সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের নেতৃত্বে একটি র‌্যালি বের হয়।

দিবসটি উপলক্ষে সকাল সাড়ে ৮টায় রোকেয়া হলের ভাস্কর্যে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করে নারী সংহতি। পরে তারা একটি মিছিল বের করে। মিছিল টিএসসি প্রদক্ষিণ করে রোকেয়া হলের সামনে এসে শেষ হয়। সংগঠনের সভাপতি শ্যামলী শীলের নেতৃত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি তাসলিমা আখতার, কেন্দ্রীয় সম্পাদক অপরাজিতা দেব, সহ-সম্পাদক রেবেকা নীলা, সাংগঠনিক সম্পাদক জান্নাতুল মরিয়ম প্রমুখ। একই সময়ে নারী মুক্তি কেন্দ্রের নেতেৃত্বে রোকেয়া ভাস্কর্যে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। বিকাল ৩টায় সংগঠনের আয়োজনে তোপখানায় কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে রোকেয়ার জীবন সংগ্রাম ও কর্ম নিয়ে আলোচনা সভা হয়। সভায় বক্তব্য দেন কমরেড মানস নন্দী, সংগঠনের সভাপতি সীমা দত্ত, সাংগঠনিক সম্পাদক মনিদীপা ভট্টাচার্য ও সদস্য খালেদ মনিকা। সন্ধ্যায় রোকেয়া হল অডিটরিয়ামে বৃত্তি, স্বর্ণপদক ও বক্তৃতা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে রোকেয়া ফাউন্ডেশন। অনুষ্ঠানে বক্তৃতা দেন শিক্ষাবিদ অধ্যাপক ড. কাজী মদিনা। প্রধান অতিথি ছিলেন অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক। উপস্থিত ছিলেন হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. নাজমা শাহীনসহ বৃত্তিপ্রাপ্ত কৃতী শিক্ষার্থীরা।

প্রবন্ধ পাঠ ও আলোচনা : বুধবার রোকেয়া দিবস উপলক্ষে বিকালে বাংলা একাডেমির কবি শামসুর রাহমান সেমিনার কক্ষে প্রবন্ধ পাঠ ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তৃতা করেন একাডেমির মহাপরিচালক অধ্যাপক শামসুজ্জামান খান। ‘রোকেয়ার আলো এবং আমাদের আলো-অন্ধকার’ শীর্ষক প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন লেখক-সাংবাদিক আবুল মোমেন। আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন গবেষক ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক ড. সোনিয়া নিশাত আমিন। সভাপতিত্ব করেন বাংলা একাডেমির সভাপতি ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান।



সাবমিট

নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে রোকেয়া দিবস পালিত

 যুগান্তর রিপোর্ট 
১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ১২:০০ এএম  | 
নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে বেগম রোকেয়া দিবস-২০১৫ পালিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে বুধবার সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রোকেয়া হলের ভাস্কর্যের বেদিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করে বিভিন্ন সংগঠন। এছাড়া সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিকের নেতৃত্বে একটি র‌্যালি বের হয়।

দিবসটি উপলক্ষে সকাল সাড়ে ৮টায় রোকেয়া হলের ভাস্কর্যে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করে নারী সংহতি। পরে তারা একটি মিছিল বের করে। মিছিল টিএসসি প্রদক্ষিণ করে রোকেয়া হলের সামনে এসে শেষ হয়। সংগঠনের সভাপতি শ্যামলী শীলের নেতৃত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি তাসলিমা আখতার, কেন্দ্রীয় সম্পাদক অপরাজিতা দেব, সহ-সম্পাদক রেবেকা নীলা, সাংগঠনিক সম্পাদক জান্নাতুল মরিয়ম প্রমুখ। একই সময়ে নারী মুক্তি কেন্দ্রের নেতেৃত্বে রোকেয়া ভাস্কর্যে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। বিকাল ৩টায় সংগঠনের আয়োজনে তোপখানায় কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে রোকেয়ার জীবন সংগ্রাম ও কর্ম নিয়ে আলোচনা সভা হয়। সভায় বক্তব্য দেন কমরেড মানস নন্দী, সংগঠনের সভাপতি সীমা দত্ত, সাংগঠনিক সম্পাদক মনিদীপা ভট্টাচার্য ও সদস্য খালেদ মনিকা। সন্ধ্যায় রোকেয়া হল অডিটরিয়ামে বৃত্তি, স্বর্ণপদক ও বক্তৃতা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে রোকেয়া ফাউন্ডেশন। অনুষ্ঠানে বক্তৃতা দেন শিক্ষাবিদ অধ্যাপক ড. কাজী মদিনা। প্রধান অতিথি ছিলেন অধ্যাপক ড. আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক। উপস্থিত ছিলেন হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. নাজমা শাহীনসহ বৃত্তিপ্রাপ্ত কৃতী শিক্ষার্থীরা।

প্রবন্ধ পাঠ ও আলোচনা : বুধবার রোকেয়া দিবস উপলক্ষে বিকালে বাংলা একাডেমির কবি শামসুর রাহমান সেমিনার কক্ষে প্রবন্ধ পাঠ ও আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তৃতা করেন একাডেমির মহাপরিচালক অধ্যাপক শামসুজ্জামান খান। ‘রোকেয়ার আলো এবং আমাদের আলো-অন্ধকার’ শীর্ষক প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন লেখক-সাংবাদিক আবুল মোমেন। আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন গবেষক ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক ড. সোনিয়া নিশাত আমিন। সভাপতিত্ব করেন বাংলা একাডেমির সভাপতি ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান।



 
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র