¦
বসন্তের গান

জাহিদ আকবর | প্রকাশ : ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৫

আহা! বসন্ত এসে গেছে। বসন্ত মনটাকে প্রেমিক করে তোলে। কী এক রঙিন ছোঁয়ায় মনটা দুলে ওঠে। বসন্ত মনের অনেক গভীরে ভালোবাসার বীজ বুনে দেয়। সবুজ সবুজ অবুঝ কচি পাতায় ছুঁয়ে থাকে দারুণ ভালোলাগা। কোকিলের কুহুতানে মনটা উতালা হয়ে যায়। দূরে কোথাও কোকিলের ডাক একটা হাহাকারের জন্ম দেয় বুকের অন্তপুরে। বসন্ত খুব অল্প সময়ের জন্য আসে। এই অল্প সময়ে মনের মধ্যে ছড়িয়ে যায় অপার ভালোলাগা। বসন্ত নিয়ে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, কাজী নজরুল ইসলামসহ অনেকেই লিখেছেন গান, কবিতা। সত্যি বলতে বসন্ত নিয়ে বর্তমান সময়ে খুব একটা রচিত হয়নি গান-কবিতার পঙ্ক্তিমালা। তবে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর বসন্ত নিয়ে অনেক গান-কবিতা লিখেছেন। তার মায়ার খেলা গীতিনাট্যের ‘আহা আজি এই বসন্তে, এতো ফুল ফোঁটে, এতো বাঁশি বাজে এতো পাখি গায়।’ পঙ্ক্তিগুলো বাঙালি জীবনের পরতে পরতে জড়িয়ে আছে ছড়িয়ে রয়েছে। রবীন্দ্রসঙ্গীতের শ্রোতাপ্রিয় অনেকের কণ্ঠে গানটা শুনে হৃদয় মেতেছে। বসন্ত নিয়ে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের আরেকটি গান ‘বসন্ত তার গান লিখে যায় ধূলির পরে কী আদরে’। কাজী নজরুল ইসলাম বসন্ত নিয়ে লিখেছেন একটি গানে- ‘বসন্ত আজ আসলো ধরায়, ফুল ফুটেছে বনে বনে, শীতের হাওয়া পালিয়ে বেড়ায় ফাল্গুনী মোর মন বনে।’ অথবা ‘বসন্ত এলো এলো এলোরে, পঞ্চম স্বরে কোকিল কুহুরে।’ শচীন দেব বর্মনের বিখ্যাত গান ‘শোনগো দখিন হাওয়া’ গানটাতে বসন্ত বন্দনা রয়েছে- ‘রচিগো হেমন্তে মায়া শীতেতে উদাসী, হয়েছি বসন্তে আমি বাসনা বিলাসী।’ বসন্ত নিয়ে কবি সুভাষ মুখোপাধ্যায় লিখেছেন, ‘ফুল ফুটুক আর না ফুটুক আজ বসন্ত, শান বাঁধানো ফুটপাতে পাথরে পা ডুবিয়ে একে কাঠখোট্টা গাছ, কচি কচি পাতায় পাঁজর ফাটিয়ে হাসছে।’ কবিতাটি অসংখ্য মানুষের মুখে-মুখে ফিরে আজও। বসন্ত নিয়ে অমর পঙ্ক্তি এটি। বাউল সম্রাট শাহ আবদুল করিমের বিখ্যাত গান ‘বসন্ত বাতাসে সই গো বসন্ত বাতাসে, বন্ধুর বাড়ির ফুলের গন্ধ, আমার বাড়ি আসে। বন্ধুর বাড়ির ফুল বাগান, নানান রঙের ফুল, ফুলের গন্ধে মন আনন্দে ভ্রমর হয় আকুল।’ গানটা শুনতে শুনতে মনটা উতলা হয়ে যায়। ভালোলাগা একটা হাহাকারের জন্ম হয় বুকের ভেতরে। শাহ আবদুল করিমসহ অনেক কণ্ঠশিল্পীর কণ্ঠে গানটি গীত হয়েছে।
কাওসার আহমেদ চৌধুরীর লেখা কুমার বিশ্বজিতের গাওয়া ‘যেখানে সীমান্ত তোমার সেখানে বসন্ত আমার, ভালোবাসা হৃদয়ে নিয়ে, আমি বারেবারে আসি ফিরে, ডাকি তোমায় কাছে।’ শিল্পীর মায়াবী কণ্ঠে গাওয়া অসম্ভব জনপ্রিয় একটা গান। ভালো লাগার মানুষের সীমান্তে প্রতি বসন্তে ফিরে আসার ইচ্ছা জাগানিয়া একটা গান।
একই কণ্ঠশিল্পী গাওয়া আরেকটা গানে বসন্ত এসেছে দারুণভাবে। ‘বসন্ত ছুঁয়েছে আমাকে, ঘুমন্ত মন তাই জেগেছে।’ সত্যিই তো বসন্তে মনটা জেগে ওঠে। কোথায় কোথায় সে হারিয়ে যায় দূরে বহুদূরে।
পপ গায়ক হাসানের গাওয়া অনুরূপ আইচের লেখা আরমান খানের সুরে একটা গানে বসন্ত এসেছে। ‘শীত নয় গ্রীষ্ম নয় এসেছে বসন্ত।’ গানটা শ্রোতাদের মনে দোলা দিয়ে আসছে আজও।
কলকাতার নির্মাতা সৃজিত মুখোপাধ্যায় তার ছবি ‘চতুষ্কোণ’-এ বসন্ত নিয়ে একটা গান করেছেন। ইতিমধ্যেই গানটা শ্রোতাপ্রিয় হয়ে উঠেছে। অনুপম রায়ের কথা ও সুরে গানটি গেয়েছেন লগ্নজিতা চক্রবর্তী। গানটা হল- ‘একরাশ বিষাদের মাঝখানে শুয়ে আছি, কানাঘুষা শোনা যায় বসন্ত এসে গেছে।’ আসলেই বসন্ত এসে গেছে। কিন্তু কেন যে এত অল্প সময়ের জন্য বসন্ত আসে। বসন্ত নিয়ে কবি গীতিকবিরা রচনা করুক আরও গান কবিতা। মাতাল হোক তাদের হৃদয় বসন্ত এসে গেছে।
লেখক : সাংবাদিক, গীতিকবি
 

তারাঝিলমিল পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close