jugantor
স্মরণ
বড়দিনের যুদ্ধ

  তারা ঝিলমিল ডেস্ক  

১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ০০:০০:০০  | 

চলতি বছরের একটা ঈদ আর দিওয়ালী ইতিমধ্যেই দখল করে ফেলেছেন সালমান খান। মাঝের কিছুটা ব্যর্থ সময়ের যোগ্য প্রতিদান দিয়েছেন বজরঙ্গী ভাইজান আর প্রেম রতন ধন পায়োর মাধ্যমে। দুটো ছবিরই রেকর্ড ভাঙার সাফল্যের পর অপেক্ষাটা ছিল বাকি দুই খানের। আমির গেল বছরের পিকের পর এ বছর পুরোই নীরব। আর শাহরুখ গেল বছরের হ্যাপি নিউ ইয়ারের পর বেশ লম্বা একটা নীরবতার পর আবারও সরব হওয়ার অপেক্ষায় বড়দিনের আগের সপ্তার ‘দিলওয়ালে’কে ঘিরে। গেল বছর শাহরুখ দিপীকা’র যে হ্যাপি নিউ ইয়ারের সাফল্য। এবার সেই দিপীকাই রূপ নিয়েছেন শাহরুখের প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে। একদিকে দিলওয়ালেতে শাহরুখের গোল্ডের জুটি কাজল। অন্যদিকে ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটের ওপর নীর্মিত বাজিরাও মাস্তানিতে দিপীকা মিলেছেন তার হালের কথিত প্রেমিক রনবীর সিংয়ের সঙ্গে। পাশে প্রিয়াঙ্কা চোপড়াও রয়েছেন শক্তিশালী ভূমিকায়। পরিচালকও কম যুদ্ধংধেহী নন। একদিকে বাজিরাও মাস্তানির নেপথ্যে সঞ্জয়লীলা বানশালী। অন্যদিকে শাহরুখ-দিপীকাকে নিয়ে শতকোটির ফল তুলে নেয়া রোহিত শেঠি। কাউকেই ফেলে দেয়ার জো নেই। তাই শেষ পর্যন্ত বিজয়ের মালাটা কার গলায় যায় সেটা জানতে অপেক্ষা দির্ঘায়িত করতে হবে চলতি মাসের ১৮ তারিখ পর্যন্ত।


 

সাবমিট
স্মরণ

বড়দিনের যুদ্ধ

 তারা ঝিলমিল ডেস্ক 
১০ ডিসেম্বর ২০১৫, ১২:০০ এএম  | 

চলতি বছরের একটা ঈদ আর দিওয়ালী ইতিমধ্যেই দখল করে ফেলেছেন সালমান খান। মাঝের কিছুটা ব্যর্থ সময়ের যোগ্য প্রতিদান দিয়েছেন বজরঙ্গী ভাইজান আর প্রেম রতন ধন পায়োর মাধ্যমে। দুটো ছবিরই রেকর্ড ভাঙার সাফল্যের পর অপেক্ষাটা ছিল বাকি দুই খানের। আমির গেল বছরের পিকের পর এ বছর পুরোই নীরব। আর শাহরুখ গেল বছরের হ্যাপি নিউ ইয়ারের পর বেশ লম্বা একটা নীরবতার পর আবারও সরব হওয়ার অপেক্ষায় বড়দিনের আগের সপ্তার ‘দিলওয়ালে’কে ঘিরে। গেল বছর শাহরুখ দিপীকা’র যে হ্যাপি নিউ ইয়ারের সাফল্য। এবার সেই দিপীকাই রূপ নিয়েছেন শাহরুখের প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে। একদিকে দিলওয়ালেতে শাহরুখের গোল্ডের জুটি কাজল। অন্যদিকে ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটের ওপর নীর্মিত বাজিরাও মাস্তানিতে দিপীকা মিলেছেন তার হালের কথিত প্রেমিক রনবীর সিংয়ের সঙ্গে। পাশে প্রিয়াঙ্কা চোপড়াও রয়েছেন শক্তিশালী ভূমিকায়। পরিচালকও কম যুদ্ধংধেহী নন। একদিকে বাজিরাও মাস্তানির নেপথ্যে সঞ্জয়লীলা বানশালী। অন্যদিকে শাহরুখ-দিপীকাকে নিয়ে শতকোটির ফল তুলে নেয়া রোহিত শেঠি। কাউকেই ফেলে দেয়ার জো নেই। তাই শেষ পর্যন্ত বিজয়ের মালাটা কার গলায় যায় সেটা জানতে অপেক্ষা দির্ঘায়িত করতে হবে চলতি মাসের ১৮ তারিখ পর্যন্ত।


 

 
শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র