¦
ভারত-শ্রীলংকা চার চুক্তি

যুগান্তর ডেস্ক | প্রকাশ : ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৫

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও শ্রীলংকার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা পরমাণু জ্বালানিসহ চার চুক্তিতে একমত হয়েছেন। সোমবার নয়াদিল্লির হায়দ্রাবাদ হাউসে এক দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে কৌশলগত সহযোগিতা নিয়ে আলোচনা করেন তারা। ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সৈয়দ আকবরুদ্দিন জানান, ‘ভারত ও শ্রীলংকার অর্থনৈতিক বন্ধন শক্তিশালী করতে একমত হয়েছেন দুই নেতা। তারা চারটি চুক্তির ব্যাপারে আলোচনা করেছেন।’ তিনি জানান, এসব চুক্তির মধ্যে পরমাণু জ্বালানি, সাংস্কৃতিক বন্ধন, কৃষিক্ষেত্রে সহযোগিতা এবং নালন্দা বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে এক সমঝোতা স্মারকের কথা বলা হয়েছে।
পরমাণু জ্বালানি চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন ভারতের আণবিক শক্তি বিভাগের সচিব রতন কুমার সিনহা ও শ্রীলংকার বিদ্যুৎ ও জ্বালানিমন্ত্রী প্যাটালি চাম্পিকা রানাওয়াকা। এই চুক্তির মাধ্যমে দুই দেশের মধ্যে পরমাণু কাঁচামালের স্থানান্তর, বিশেষজ্ঞ সহায়তা ও সক্ষমতা তথ্যের বিনিময় করা যাবে।
দ্বিতীয় আরেকটি চুক্তিকে ভারত-শ্রীলংকার সংস্কৃতির আদান-প্রদানে ২০১৫-১৮ সাল পর্যন্ত একটি সমঝোতা হয়েছে। এতে স্বাক্ষর করেন ভারতের সংস্কৃতি সচিব রবীন্দ্র সিং ও শ্রীলংকার হাইকমিশনার সুদর্শন সেনেভিরত্ন। এছাড়া নালন্দা বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে ২০১৪-১৫ সেশনের কর্মপরিকল্পনাবিষয়ক সমঝোতা স্মারক ও দুই দেশের কৃষি খাতে সহায়তার ব্যাপারে দুটি পৃথক চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।
এদিকে সিরিসেনার সঙ্গে বৈঠকের পর এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে মোদি বলেন, ‘আমরা দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক ও আন্তর্জাতিক ইস্যুতে ফলপ্রসূ আলোচনা করেছি। শ্রীলংকার সর্ববৃহৎ বাণিজ্যিক অংশীদার হতে পেরে আমরা আনন্দিত।’ মোদি বলেন, ‘শ্রীলংকার নিকটতম প্রতিবেশী ভারত। আমাদের সদিচ্ছা ও সমর্থন সবসময় শ্রীলংকার জনগণের জন্য নিবদ্ধ।’
দক্ষিণ এশিয়ার শান্তি, স্থিতিশীলতা ও সমৃদ্ধির জন্য দুই দেশের কৌশলগত সম্পর্ক জোরদার ও সামুদ্রিক নিরাপত্তা নিয়েও আলোচনা করেন তারা। আলোচনায় শ্রীলংকার সঙ্গে ভারতের আকাশসীমা ও সামুদ্রিক যোগাযোগ বৃদ্ধি করা হবে বলেও জানান মোদি।
শ্রীলংকার অর্থনীতি, শান্তি স্থিতিশীলতা ও জাতিগত বিরোধ নিষ্পত্তির বিষয়গুলো আলোচনায় প্রাধান্য পায়। এছাড়া শ্রীলংকার তামিল সম্প্রদায়ের ক্ষমতায়ন এবং জেলে প্রসঙ্গটি নিয়েও তারা আলোচনা করেন। সংবিধানের ১৩তম সংশোধনী বাস্তবায়নের পরামর্শ দেন মোদি।
রোববার ১৫ সদস্যের এক প্রতিনিধি দল নিয়ে ভারত সফরে পৌঁছান সিরিসেনা। এ সফরে তার সঙ্গে রয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাঙ্গালা সামারাওয়েরা, স্বাস্থ্যমন্ত্রী রাজিথা সেনারতœ, বিচারমন্ত্রী উইজাওয়াদাসা রাজাপাকসে এবং বিদ্যুৎ ও জ্বালানিমন্ত্রী চাম্পিকা রানাওয়াকা।
মার্চে শ্রীলংকায় যাবেন মোদি
আগামী মার্চ মাসে শ্রীলংকা সফরে যাওয়ার কথা জানিয়েছেন নরেন্দ্র মোদি। ভারত সফররত শ্রীলংকা প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনার সঙ্গে যৌথ সংবাদ সম্মেলনের সময় মোদি বলেন, ‘সিরিসেনার প্রথম সফর ভারতে করার জন্য ধন্যবাদ। আমি মার্চ মাসে তার সুন্দর দেশে সফর করার ইচ্ছা করছি।’
সিরিসেনার পরবর্তী সফর চীনে
ভারত সফরের পর চীন সফরে যাচ্ছেন শ্রীলংকার প্রেসিডেন্ট মাইথ্রিপালা সিরিসেনা। ভারতের সঙ্গে ঘনিষ্ঠতায় চীনের কাছে ভারসাম্য করতে এ উদ্যোগ নিয়েছেন বলে মনে করা হচ্ছে। শ্রীলংকার পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাঙ্গালা সামারাওয়েরা আগামী ২৭-২৮ ফেব্র“য়ারি বেইজিংয়ে যাচ্ছেন। এদিকে চীন বলছে, কলম্বোর সঙ্গে তাদের সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে। রাজাপাকসের আমলে চালু করা প্রজেক্টগুলো বন্ধ হবে না বলে মনে করছে বেইজিং।
 

দশ দিগন্ত পাতার আরো খবর
৭ দিনের প্রধান শিরোনাম

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Developed by
close
close