যুগান্তর রিপোর্ট    |    
প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১৮:১৫:২৮ প্রিন্ট
রোহিঙ্গা ইস্যুতে ঐক্য হয়ে গেছে: নাসিম

রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে বিশ্বজনমত সৃষ্টিতে জাতীয় ঐক্য প্রয়োজন-বিএনপি মহাসচিবের এমন বক্তব্যের জবাবে 'এরই মধ্যে এ ঐক্য হয়ে গেছে' বলে মন্তব্য করেছেন সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম।

হোটেল সোনারগাঁওয়ে শুক্রবার দুপুরে এক অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন।

বাংলাদেশ সোসাইটি অব আল্ট্রাসনোগ্রাফির ২৯তম জাতীয় সম্মেলনে তিনি প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন।

বৃহস্পতিবার বিএনপি ছাড়াও বিকল্পধারা বাংলাদেশের প্রেসিডেন্ট সাবেক রাষ্ট্রপতি একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেনও রোহিঙ্গা ইস্যুতে জাতীয় ঐক্য সৃষ্টির প্রয়োজনীয়তার কথা বলেছেন।

এ প্রসঙ্গে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মোহাম্মদ নাসিম বলেন, আজ পত্রপত্রিকায় দেখলাম, জাতীয় ঐক্য প্রয়োজন।  রোহিঙ্গাদের ইস্যুতে বাংলাদেশের মানুষের মধ্যে ঐক্য হয়ে গেছে। জাতীয় ঐক্য হয়েছে।  আজকে আওয়ামী লীগ ও ১৪ দলের বাইরে বিএনপি কথা বলছে, জাতীয় পার্টি রোহিঙ্গাদের সাহায্য করছে। গণফোরামসহ অন্যরাও  রোহিঙ্গাদের সাহায্য করার কথা বলছে। আমরা সবাই বলছি, প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘে গিয়ে বলেছেন, উনি উদ্যোগ নিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সততা আছে বলেই আজ যুক্তরাষ্ট্রও কথা বলছে।

তিনি বলেন, যুক্তরাজ্য, জার্মানি, ইরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশ, জাতিসংঘসহ সবাই মিয়ানমারে নিরীহ রোহিঙ্গাদের ওপর চলমান অত্যাচারের বিরুদ্ধে কথা বলছে। রোহিঙ্গা নির্যাতনের বিরুদ্ধে সারা বিশ্বে সাড়া পড়েছে। ঐক্য হওয়ার আর কী বাকি আছে? এখন জাতিসংঘসহ সবাইকে রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে মিয়ানমার সরকারের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে হবে।

অনুষ্ঠানে সোসাইটির সভাপতি প্রফেসর মিজানুল হাসানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন বিএমডির প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ শহীদউল্লাহ, সোসাইটির মহাসচিব প্রফেসর মাহবুবুল হক, ইউএসটিসির বিআইএমইউআর-এর পরিচালক প্রফেসর কানু বালা।


আরো পড়ুন
  • শীর্ষ খবর
  • সর্বশেষ খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Design and Developed by

© ২০০০-২০১৭ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত