পারভেজ আলম চৌধুরী    |    
প্রকাশ : ০৮ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০১:৩৫:২২ প্রিন্ট
ব্যালন ডি'অর জয়
রোনাল্ডোর মুকুটে পঞ্চম পালক

রাতের প্যারিস আরও মোহনীয়। সন্ধ্যা নামার পর আড়মোড়া ভেঙে জেগে ওঠে 'সিটি অব লাইট'। আলোর নগরী। আইফেল টাওয়ার পর্যটকদের আমন্ত্রণ জানায় প্যারিসের চিরযৌবনা রূপ চাক্ষুষ করার জন্য।

প্যারিস সুরভি, প্রণয়, ফ্যাশন এবং ফুটবলেরও শহর। আইফেল টাওয়ারে বৃহস্পতিবার রাতে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর হাতে পঞ্চমবারের মতো উঠল ২০১৭ ব্যালন ডি'অর ট্রফি। প্রত্যাশিতভাবে।

ব্যক্তিগত বিমানে প্যারিসে উড়ে গিয়ে পুরস্কার নিলেন তিনি। নিউক্যাসল ও টটেনহ্যামের সাবেক ফুটবলার ডেভিড গিনোলার হাত থেকে।

এ সময় ব্রাজিলের সাবেক তারকা স্ট্রাইকার রোনালদোও মঞ্চে ছিলেন। যার বিয়ে ও বিচ্ছেদ দুটিই হয়েছিল প্যারিসে।

অনুমিতই ছিল, রিয়াল মাদ্রিদের পর্তুগিজ যুবরাজের মুকুটে যোগ হবে পঞ্চম পালক। ব্যত্যয় হয়নি। পাঁচে পাঁচ। মানে, চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী লিওনেল মেসিকে ধরে ফেললেন রোনাল্ডো।

দু'জনেরই সংগ্রহশালায় এখন পাঁচটি করে ব্যালন ডি'অর। কারও গর্ব করার কোনো সুযোগ নেই। নেই কারো আক্ষেপের অবকাশও।

তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় রোনাল্ডো বলেন, 'অবশ্যই আমি খুশি। প্রতি বছর এই দিনটির অপেক্ষায় থাকি। গেল বছর জিতেছি, যা এ বছরও জিততে আমাকে সাহায্য করেছে।'

স্বপ্নের মতো একটা বছর পেছনে ফেলে এসে ফসল তোলার শেষ ধাপে পা দিলেন রোনাল্ডো। গোটা পরিবার উত্তেজিত। রোনাল্ডোর মা মারিয়া দোলোরেস দোস সান্তোস কাল সকালে ইনস্টাগ্রামে সেলফি পোস্ট করলেন।

তাতে লেখা 'প্রনতা পারা মাইস উমা ইদা আ প্যারিস...।' মানে, 'প্যারিসে আরেকটি সফরের জন্য প্রস্তুত।' রোনাল্ডোর বান্ধবী জর্জিনা রদ্রিগেজও ইনস্টাগ্রামে গোটা পরিবারের ছবি পোস্ট করলেন। অধীর আগ্রহে তারা অপেক্ষা করছেন টানা দ্বিতীয় বছর বাড়ির কর্তার বিশ্বসেরা ফুটবলারের পুরস্কার পাওয়ার জন্য।

আগেরদিনই আভাস পাওয়া গিয়েছিল, বিজয়ী আর কেউ নয়, রোনাল্ডোই। এই বিশেষ মুহূর্ত উপলক্ষে তার স্পন্সর নাইক একজোড়া নতুন বুট উপহার দিয়েছে সিআর সেভেনকে।

সাদা-সোনালি রঙের বুটে লেখা- ২০০৮, ২০১৩, ২০১৪, ২০১৬ ও ২০১৭। মানে, রোনাল্ডোর ব্যালন ডি'অর জেতার বছর।

আরও লেখা- 'কুইনতো ত্রিউনফো।' মানে পঞ্চম বিজয়। আর কিছু বলার প্রয়োজন আছে!

 


আরো পড়ুন
  • শীর্ষ খবর
  • সর্বশেষ খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৮৪১৯২১১-৫, রিপোর্টিং : ৮৪১৯২২৮, বিজ্ঞাপন : ৮৪১৯২১৬, ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৭, সার্কুলেশন : ৮৪১৯২২৯। ফ্যাক্স : ৮৪১৯২১৮, ৮৪১৯২১৯, ৮৪১৯২২০

Design and Developed by

© ২০০০-২০১৭ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত