কিশোরগঞ্জ-১ আসনে মনোনয়ন চান সৈয়দ আশরাফ পরিবারের চার সদস্য

  এ টি এম নিজাম, কিশোরগঞ্জ ব্যুরো ১৪ নভেম্বর ২০১৮, ২২:২৮ | অনলাইন সংস্করণ

সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম ও সৈয়দ সাফায়েতুল ইসলাম। ছবি: সংগৃহীত
সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম ও তার ভাই সৈয়দ সাফায়েতুল ইসলাম। ছবি: সংগৃহীত

আওয়ামী লীগের প্রেসিডয়াম সদস্য ও জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের নির্বাচন করার সম্ভাবনা ক্রমেই ক্ষীণ হয়ে আসছে। গত বছর তার সহধর্মিনী শিলা আশরাফ ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে না ফেরার দেশে পাড়ি জমানোর পর তিনিও মানসিকভাবে ভেঙে পড়েন।

চলতি বছরের শুরুর দিকে নিজেও এখন ফুসফুস ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে শয্যাশায়ী হন। পরে চিকিৎসার জন্য তাকে থাইল্যান্ডের হাসপাতালে এখনও চিকিৎসাধীন রয়েছেন। তার শারীরিক অবস্থা সংকটাপন্ন বলে সরকারি-বেসরকারি সূত্রে জানা গেছে।আর এ কারণে গত সপ্তাহে তার রোগমুক্তির জন্য দলীয় উদ্যোগে দেশব্যাপী দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এ অনিশ্চিত পরিস্থিতিতে সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের কিশোরগঞ্জ-১ আসনে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হতে তিনিসহ তার নিজের পরিবারের ৪ সদস্য নিয়ে মোট ১১ জনের পক্ষ থেকে দলীয় মনোনয়ন ফরম কেনার পর জমা দেয়া হয়েছে বলে সংশ্লিষ্ট নির্ভরযোগ্য একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে।

এছাড়াও ১৪ দলের শরিক দল গণতন্ত্রী পার্টির প্রার্থী দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও কিশোরগঞ্জ জেলা গণতন্ত্রী পার্টির সভাপতি প্রবীণ আইনজীবী ভূপেন্দ্র ভৌমিক দোলন মনোনয়ন ফরম নিয়েছেন।

এ আসনে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম ছাড়া দলের অন্যান্য মনোনয়ন প্রত্যাশীরা হচ্ছেন সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের দুই সহোদর মেজর জেনারেল (অব.) সৈয়দ সাফায়েতুল ইসলাম ও লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক মুক্তিযোদ্ধা ড. সৈয়দ মঞ্জুরুল ইসলাম এবং চাচাতো ভাই অ্যাডভোকেট সৈয়দ আশফাকুল ইসলাম টিটু।

এছাড়া কিশোরগঞ্জ আওয়ামী লীগের আরও ৭ নেতা মনোনয়ন ফরম ক্রয় করে জমাদান দিয়েছেন। আলোচিত ওই নেতারা হচ্ছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের মেজো ছেলে রাসেল আহমেদ তুহিন,আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় উপ-কমিটির সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক সহকারি কৃষিবিদ মশিউর রহমান হুমায়ুন, কিশোরগঞ্জ পৌরসভার মেয়র মাহমুদ পারভেজ, কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও বেসরকারি শিক্ষক-কর্মচারী অবসর সুবিধা বোর্ডের সদস্য সচিব অধ্যক্ষ শরীফ সাদী, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) কিশোরগঞ্জ জেলা সভাপতি ডা. দীন মোহাম্মদ, বাংলাদেশ কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির মহিলা বিষয়ক সম্পাদক অধ্যক্ষ গুলশান আরা বেগম এবং বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-পাঠাগার সম্পাদক অধ্যক্ষ এম এ হান্নান।

প্রসঙ্গত, আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও জনপ্রশাসনমন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম কিশোরগঞ্জ-১ (কিশোরগঞ্জ সদর ও হোসেনপুর) আসনের টানা চারবার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।তার পিতা ঢাকার কেন্দ্রীয় কারাগারে অন্য তিন জাতীয় নেতার সঙ্গে শাহাদাৎ বরণকারী মুক্তিযুদ্ধকালীন মুজিবনগর সরকারের অস্থায়ী রাষ্ট্রপতি শহীদ নজরুল ইসলাম।

১৯৯৬ সালে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম সালে নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে বিজয়ী হয়ে প্রথমে বেসামরিক বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী হন।

বর্ণাঢ্য রাজনৈতিক জীবনে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম দলের মুখপাত্র, সাধারণ সম্পাদক হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছেন। এছাড়াও স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রীর মতো গুরুত্বপূর্ণ পদে অধিষ্ঠিত হন।

বাংলাদেশের রাজনীতির সাদামাটা চরিত্রের নির্মোহ এ নেতা অসুস্থতার জন্য থাইল্যান্ডে চিকিৎসা নিতে জাতীয় সংসদ থেকেও ছুটি নিয়েছেন।

আওয়ামী লীগের সংসদীয় বোর্ডের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, বুধবার বেলা ১১টা থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার নেয়া শুরু হবে। সাক্ষাৎকার শেষে দলীয় মনোনয়ন চূড়ান্ত শেষে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসবে।

কিশোরগঞ্জের আওয়ামী লীগ দলীয় নেতাকর্মী ও সমর্থকরা সেই খবরটির জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছেন।

ঘটনাপ্রবাহ : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter
×