আইনজীবী ফোরামের বিক্ষোভ

খালেদা জিয়াকে মুক্তি না দেয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে

প্রকাশ : ১১ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ২০:১৫ | অনলাইন সংস্করণ

  যুগান্তর রিপোর্ট

সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন বলেছেন, রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে সাজা দেয়া হয়েছে। তাকে মুক্তি না দেয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাব।  

রোববার দুপুরে সপ্তাহব্যাপী কর্মসূচির অংশ হিসেবে সুপ্রিমকোর্ট বার ভবনের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে অংশ নিয়ে তিনি একথা বলেন। বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বেআইনি ও অন্যায়ভাবে সাজা দেয়া হয়েছে উল্লেখ করে প্রতিবাদে এ মানববন্ধন আয়োজন করে জাতীয়তাবদী আইনজীবী ফোরাম।

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন বিএনপি নেতা মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দীন, শাহ মো. খসরুজ্জামান, নিতায় রায় চৌধুরী, সুপ্রিমকোর্ট বারের সম্পাদক ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন, সাবেক সম্পাদক বদরুদ্দোজা বাদল, কায়সার কামাল, তৈমুর আলম খন্দকার, আবেদ রাজা, আসিফা আশরাফী পাপিয়া, রুহুল কুদ্দুস কাজল, গাজী কামরুল ইসলাম সজল ও মির্জা আল মাহমুদ প্রমুখ।

জয়নুল আবেদীন বলেন, দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় নেত্রী খালেদা জিয়াকে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে করা মামলায় সাজা দেয়া হয়েছে। রায় যেদিন দেয়া হয়েছে মানুষ দেখেছে গুলি করেও মানুষের ঢল থামানো যায়নি। বেগম জিয়াকে অন্যায়ভাবে জেলে রাখা হয়েছে। তাকে মুক্তি না দেয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাব।

মীর মোহাম্মদ নাছির উদ্দীন বলেন, শেখ হাসিনা আগুন নিয়ে খেলা শুরু করেছেন। ইতিমধ্যেই তিনি বুঝতে পেরেছেন মুক্ত খালেদা জিয়ার চেয়ে জেলের খালেদা জিয়া অধিক জনপ্রিয়। তাকে জেলে দিয়ে শেখ হাসিনার ঘুম হারাম হয়ে গেছে। যারা রাষ্ট্রের হাজার হাজার কোটি টাকা লুট করছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না। অন্যদিকে বেগম জিয়ার বিরুদ্ধে মিথ্যা দুর্নীতি মামলায় সাজা দেয়া হচ্ছে।

নিতায় রায় চৌধুরী বলেন, খালেদা জিয়াকে পাতানো মামলায় সাজা দেয়া হয়েছে। মানুষ এই সাজা প্রত্যাখ্যান করেছে। এতে শেখ হাসিনার পতন ত্বরান্বিত হবে।

মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেন, অবিলম্বে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করুন। নতুবা দেশের মানুষ আন্দোলন সংগ্রাম করে তাকে মুক্ত করবে। তিনি বলেন, পার্শ্ববর্তী দেশের সহায়তা নিয়ে ক্ষমতায় থাকার স্বপ্ন দেখবেন না। অবিলম্বে পদত্যাগ করুন এবং খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিন।

মানববন্ধন শেষে শতাধিক আইনজীবী জয়নুল আবেদীন ও মাহবুবউদ্দিন খোকনের নেতৃত্বে সুপ্রিমকোর্ট বার ভবনে বিক্ষোভ করেন। তারা অবিলম্বে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দেয়ার জন্য স্লোগান দেন।