খালেদা জিয়ার সাজা

রিজভী কী বলেন আর কী বোঝেন- সন্দেহ আছে: আইনমন্ত্রী

  যুগান্তর রিপোর্ট ১৯ এপ্রিল ২০১৯, ১৬:১৪ | অনলাইন সংস্করণ

রিজভী কী বলেন আর কী বোঝেন- সন্দেহ আছে: আইনমন্ত্রী
আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। ছবি:সংগৃহীত

‘বিচারব্যবস্থায় সরকারের নগ্ন হস্তক্ষেপের কারণে খালেদা জিয়ার মুক্তি বিলম্বিত হচ্ছে’- বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীর এমন মন্তব্যের জবাবে তার বোধগম্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক।

তিনি বলেন, ‘রিজভী নামে বিএনপির এক ভদ্রলোক আছেন, তিনি খালেদা জিয়াকে নিয়ে কী বলেন, আর কী বোঝেন এ সম্পর্কে সবার সন্দেহ আছে। তার সম্পর্কে আমি আর কিছু বলতে চাই না।’

শুক্রবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলা পরিষদ চত্বরে জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতর অফিসের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন শেষে তিনি এ কথা বলেন।

দুর্নীতির দুই মামলায় ১৭ বছরের সাজা নিয়ে এক বছরেরও বেশি সময় ধরে কারাগারে আছেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তাকে ‘রাজনীতি থেকে সরিয়ে দেয়ার’ জন্য ‘মিথ্যা মামলায়’ সাজা দেয়া হয়েছে বলে মনে করছে বিএনপি।

রুহুল কবির রিজভী বৃহস্পতিবার নয়াপল্টনে এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, দেশনেত্রীকে নিয়ে মাইনাস ফর্মুলা বন্ধ করুন। প্যারোলের নামে মাইনাস তত্ত্বের যে অশুভ চক্রান্ত চলছে, এই চক্রান্ত করে লাভ হবে না।

সাংবাদিকরা রিজভীর এই বক্তব্যের বিষয়ে আইনমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করলে তিনি বলেন, ‘এতিমের টাকা চুরির জন্য খালেদা জিয়াকে নিম্ন আদালত সাজা দিয়েছেন। সেই নিম্ন আদালতে সাজার বিরুদ্ধে খালেদা জিয়া হাইকোর্টে আপিল করেছিলেন। সেখানে তাকে ৫ বছর থেকে ১০ বছর সাজা দেয়া হয়েছে। এখানে সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ দেখা গেল আমি খুঁজে পাই না।

আইনমন্ত্রী বলেন, আদালতের ওপর সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ নেই। বিচারব্যবস্থা সম্পূর্ণ স্বাধীন বলেই দুর্নীতিবাজদের বিচার হচ্ছে।

তিনি বলেন, শেখ হাসিনা সরকার গঠনের পর থেকেই দেশে বিচারব্যবস্থা স্বাধীন, যা বিএনপির আমলে ছিল না।

এ সময় ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ-দৌলা-খান, জেলা পুলিশের কসবা-আখাউড়া সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার আবদুল করিম, কসবা উপজেলা নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান রাশেদুল কাওসার ভূঁইয়া জীবন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৯

converter
×